ইউনাইটেড ফাইন্যান্সের রেটিং সম্পন্ন

নিজস্ব প্রতিবেদক: ইউনাইটেড ফাইন্যান্স লিমিটেডের ঋণমান অবস্থান (ক্রেডিট রেটিং) নির্ণয় করেছে ঋণমান নির্ণয়কারী প্রতিষ্ঠান ইমারজিং ক্রেডিট রেটিং লিমিটেড (ইসিআরএল)। ঢাকা স্টক এক্সচেঞ্জ (ডিএসই) সূত্রে এ তথ্য জানা গেছে।
কোম্পানিটি দীর্ঘ মেয়াদে রেটিং পেয়েছে ‘এএ-’ এবং স্বল্পমেয়াদি ‘এসটি-২’। ৩১ ডিসেম্বর ২০১৭ পর্যন্ত নিরীক্ষিত আর্থিক প্রতিবেদনের আলোকে এ রেটিং সম্পন্ন হয়েছে।
গতকাল শেয়ারদর দুই দশমিক ৩০ শতাংশ বা ৪০ পয়সা বেড়ে প্রতিটি সর্বশেষ ১৭ টাকা ৮০ পয়সায় হাতবদল হয়, যার সমাপনী দর ছিল ১৭ টাকা ৭০ পয়সা। দিনজুড়ে ৭৪ হাজার ১৫৫টি শেয়ার মোট ৭৩ বার হাতবদল হয়, যার বাজারদর ১৩ লাখ পাঁচ হাজার টাকা। দিনভর শেয়ারদর সর্বনি¤œ ১৭ টাকা ৩০ পয়সা থেকে সর্বোচ্চ ১৭ টাকা ৮০ পয়সায় হাতবদল হয়। গত এক বছরে শেয়ারদর ১৬ টাকা ৩০ পয়সা থেকে ২৫ টাকা ৭০ পয়সায় ওঠানামা করে।
২০১৭ সালে ৩১ ডিসেম্বর সমাপ্ত হিসাববছরের কোম্পানিটি ১০ শতাংশ নগদ ও পাঁচ শতাংশ বোনাস লভ্যাংশ দিয়েছে। ওই সময় শেয়ারপ্রতি আয় (ইপিএস) হয়েছে এক টাকা ৪৪ পয়সা এবং শেয়ারপ্রতি সম্পদমূল্য (এনএভি) হয়েছে ১৬ টাকা ৯৫ পয়সা। ওই সময় কর-পরবর্তী মুনাফা করেছে ২৫ কোটি ৬২ লাখ টাকা।
আর্থিক খাতের কোম্পানিটি ১৯৯৪ সালে পুঁজিবাজারে তালিকাভুক্ত হয়। ২০১৬ সালে সমাপ্ত হিসাববছরের আর্থিক প্রতিবেদন পর্যালোচনা করে বিনিয়োগকারীদের ১০ শতাংশ নগদ ও পাঁচ শতাংশ বোনাস লভ্যাংশ দিয়েছে, যা আগের বছর ছিল পাঁচ শতাংশ নগদ ও ১০ শতাংশ বোনাস। এ সময়ে কোম্পানিটির ইপিএস হয়েছে এক টাকা ৮৪ পয়সা এবং এনএভি দাঁড়িয়েছিল ১৭ টাকা ২৯ পয়সা। এটি আগের বছর একই সময় ছিল যথাক্রমে দুই টাকা ২২ পয়সা ও ১৭ টাকা ৪৯ পয়সা। ওই সময় করপরবর্তী মুনাফা ছিল ৩১ কোটি ৩০ লাখ ৪০ হাজার টাকা, যা আগের বছর ছিল ৩৪ কোটি ৩২ লাখ ৫০ হাজার টাকা।