বিশ্ব সংবাদ

ইউরোপীয় কমিশন নিয়ে ম্যাখোঁ-মেরকেল বিরোধ

শেয়ার বিজ ডেস্ক: ইউরোপীয় পার্লামেন্টের নির্বাচনের পর পরবর্তী কমিশনের প্রেসিডেন্ট কে হবেন, এ নিয়ে পরস্পরবিরোধী অবস্থান ফ্রান্স ও জার্মান নেতাদের। সর্বোচ্চ ভোট পাওয়া ব্যক্তিকেই স্বয়ংক্রিয়ভাবে প্রেসিডেন্ট ঘোষণা করতে নারাজ ফরাসি প্রেসিডেন্ট ইমানুয়েল ম্যাখোঁ। অন্যদিকে জার্মান চ্যান্সেলর অ্যাঙ্গেলা মেরকেলের পক্ষে অবস্থান নিয়েছেন। খবর ডয়েচে ভেলে।
ইইউর বিশেষ শীর্ষ সম্মেলনের আগে আঙ্গেলা মেরকেল বলেছেন, জার্মানি এখনও নির্বাচনে জয়ী দলের শীর্ষ প্রার্থীকে পরবর্তী প্রেসিডেন্ট মনোনীত করার পক্ষেই রয়েছে। এ ব্যাপারে দ্রুত সিদ্ধান্ত নিতে ইইউ নেতাদের আহ্বান জানিয়েছেন মেরকেল। এক সংবাদ সম্মেলনে তিনি বলেন, ‘আমাদের যত দ্রুত সম্ভব একটি সমাধানে পৌঁছাতে হবে, কারণ, জুনের শুরুতেই ইউরোপীয় পার্লামেন্ট বৈঠকে বসবে। সবার প্রত্যাশা, ইউরোপীয় কাউন্সিল থেকে এর মধ্যে আমরা প্রস্তাব উত্থাপন করব।’
জার্মান চ্যান্সেলর বলেন, তার সিডিইউ-সিএসইউ জোট ঐক্য ও এসপিডির সঙ্গে জোটের নেতারা এতদিন চলে আসা জয়ী দলের প্রস্তাব করা প্রার্থীকে কমিশনের প্রেসিডেন্ট হিসেবে মনোনয়ন দেওয়াকেই সমর্থন করেন। আগেরবারের চেয়ে অনেক কম ভোট পেলেও রক্ষণশীল ইউরোপিয়ান পিপলস পার্টি (ইপিপি) এবং দলটির প্রার্থী মানফ্রেড ভেবার এখনও শীর্ষেই অবস্থান করছেন।
প্রার্থী মনোনয়ন দ্রুত করার বিষয়ে ফরাসি প্রেসিডেন্ট ইমানুয়েল ম্যাখোঁও একমত। কিন্তু তার দফতরের এক কর্মকর্তা জানিয়েছেন, ফরাসি প্রেসিডেন্ট ‘স্বয়ংক্রিয়’ এই নির্বাচন ব্যবস্থার পক্ষে নন।
ইপিপিতে মেরকেলের সিডিইউ ছাড়ও ইউরোপের বেশকিছু রক্ষণশীল দল রয়েছে। ১৯৯৯ সালের পর থেকে এ জোটই ইউরোপীয় পার্লামেন্টে সবচেয়ে বেশি আসন পেয়ে আসছে। এবারও জয়ী দল হলেও ইপিপিকে হারাতে হয়েছে ৩৬টি আসন।

সর্বশেষ..