বিশ্ব বাণিজ্য

ইরান থেকে তেল কেনা বন্ধ করেছে ভারত

শেয়ার বিজ ডেস্ক: মার্কিন নিষেধাজ্ঞায় থাকা ইরানের কাছ থেকে তেল আমদানি বন্ধ করেছে ভারত। সম্প্রতি যুক্তরাষ্ট্রে নিযুক্ত ভারতের রাষ্ট্রদূত হর্ষ বর্ধন শ্রিংলা এ তথ্য নিশ্চিত করেছেন। তিনি জানান, ইরানের ওপর যুক্তরাষ্ট্রের সর্বশেষ নিষেধাজ্ঞা এবং দেশটি থেকে তেল কিনতে আট দেশকে দেওয়া ছাড় তুলে নেওয়ার পর ভারত এ পদক্ষেপ নিয়েছে। খবর: এএফপি।
১৩তম লোকসভা নির্বাচনে নরেন্দ্র মোদির জয়ের পর দেওয়া বিবৃতিতে শ্রিংলা বলেন, মার্কিন নিষেধাজ্ঞার কারণে এমনিতেই ইরানের তেলের আমদানি কমিয়ে আনছিল ভারত। গত এপ্রিলে দেশটি থেকে মাত্র এক মিলিয়ন টন অপরিশোধিত তেল আমদানি করা হয়েছে। এছাড়া ইরানের পাশাপাশি ভেনেজুয়েলা থেকেও সব ধরনের তেল আমদানি বন্ধ করেছে। তবে আমদানি বন্ধ করে দেওয়ায় ভারতের অভ্যন্তরীণ বাজারে বেগ পেতে হচ্ছে। কারণ, ভারতের মোট তেলের ১০ শতাংশই ইরান পূরণ করত।
উল্লেখ্য, ইরানের অন্যতম বাণিজ্য অংশীদার ভারত। অন্যদিকে ভারতের জন্যও ইরান থেকে অপরিশোধিত তেল কেনা অনেকটা সস্তা; কারণ পরিবহন খরচ ও দাম দুটোই কম পড়ে। কিন্তু মার্কিন নিষেধাজ্ঞার কারণে দেশটি থেকে তেল কিনতে পারছে না ভারত। এ পরিস্থিতিতে সম্প্রতি দিল্লি সফর করলেন ইরানের পররাষ্ট্রমন্ত্রী জাভেদ জারিফ। ভারতের পররাষ্ট্রমন্ত্রী সুষমা স্বরাজ সফররত ইরানের পররাষ্ট্রমন্ত্রীর সঙ্গে ‘গঠনমূলক’ আলোচনা করেন। সেখানে ভারতের লোকসভা নির্বাচনের পরই গুরুত্বপূর্ণ তেল আমদানির বিষয়ে সিদ্ধান্ত নেওয়া হবে বলে জানান সুষমা।
পর্যবেক্ষকরা ধারণা করছেন, ভারত যাতে ইরান থেকে তেল কেনা অব্যাহত রাখে, সেজন্য তেহরান দিল্লিকে চাপে রাখতে চাইছে, আর এজন্য দরকষাকষির হাতিয়ার হিসেবে ব্যবহার করা হচ্ছে চাবাহার বন্দরকে। গত চার মাসে দুবার দিল্লি সফর করলেন জাভেদ জারিফ। কিন্তু ইরান ইস্যু ভারতের জন্য জটিল এক কূটনৈতিক চ্যালেঞ্জ হয়ে উঠছে।

সর্বশেষ..



/* ]]> */