দিনের খবর

‘ইসলামী পর্যটনকে ‘বিশ্ব বাণিজ্য ব্র্যান্ড’ হিসেবে গড়ে তুলতে হবে’

শেয়ার বিজ ডেস্ক: প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা বলেছেন, ‘ইসলামী পর্যটনকে ‘বিশ্ব বাণিজ্য ব্র্যান্ড’ হিসেবে গড়ে তুলতে হবে। আর সে জন্য সর্বাত্মক প্রচেষ্টা ও রোডম্যাপ থাকা জরুরি। ইসলামী পর্যটনের বিকাশে আন্তঃ-ওআইসি পর্যটক প্রবাহ বৃদ্ধি করার লক্ষ্যে ভিসা সহজীকরণ, বিনিয়োগ বৃদ্ধি, ব্র্যান্ডিং ও মানোন্নয়নের প্রয়োজনীয় উদ্যোগ নিতে হবে।’

আজ বৃহস্পতিবার সকালে রাজধানীর ইন্টারকন্টিনেন্টাল হোটেলে ‘ঢাকা অ্যাজ দ্য ওআইসি সিটি অব ট্যুরিজম-২০১৯’ উদযাপন উপলক্ষে দু’দিনব্যাপী অনুষ্ঠানের উদ্বোধনকালে তিনি একথা বলেন।

এ সময় প্রধানমন্ত্রী বলেন, ‘ঢাকা একটি ঐতিহ্যবাহী ঐতিহাসিক নগরী। এখানে সোহরাওয়ার্দী উদ্যান, ঢাকেশ্বরী মন্দির, আহসান মঞ্জিলসহ আরও অনেক নিদর্শন রয়েছে। এছাড়া, ঢাকার জামদানি বিশ্ববিখ্যাত। এ রকম আরও বহু নিদর্শন আছে আমাদের। এগুলোকে আরও আকর্ষণীয় করতে হবে। বিশেষ করে বাংলাদেশের পর্যটনকে আরও আকর্ষণীয় করতে প্রয়োজনীয় পদক্ষেপ নিতে হবে।’

ইসলামি অর্থনীতির বিকাশে সংশ্লিষ্ট খাতে ওআইসি সদস্য রাষ্ট্রগুলোর সরকারি-বেসরকারি সহযোগিতা ও অংশীদারিত্বের প্রয়োজন আছে বলে উল্লেখ করেন প্রধানমন্ত্রী।

সে ক্ষেত্রে ইসলামি দেশগুলোকে আলোচনার মাধ্যমে পারস্পরিক সমস্যা সমাধান করে ইসলামী পর্যটনকে বিশ্ববাণিজ্যের ব্র‍্যান্ড হিসেবে গড়ে তোলার আহ্বান জানান তিনি। একই সঙ্গে পর্যটন শিল্পের বিকাশে ভিসা সহজ করতে ওআইসি দেশগুলোর প্রতি আহ্বান জানিয়েছেন প্রধানমন্ত্রী।

শেখ হাসিনা বলেন, ‘বাংলাদেশকে কীভাবে সুন্দর করে গড়ে তোলা যায় সেটা আমাদের দেখতে হবে। আমাদের মাথা পিছু আয় বেড়েছে, কমেছে দেশের দারিদ্র্য হার। সহস্রাব্দ উন্নয়ন লক্ষ্য (এমডিজি) অর্জনে বাংলাদেশ বেশ সফল। আমরা টেকসই উন্নয়ন লক্ষ্যমাত্রাও (এসডিজি) বাস্তবায়ন করতে সক্ষম হবো ইনশাল্লাহ।’

প্রসঙ্গত, রাজধানী হিসেবে ঢাকার রয়েছে চারশ বছরের ঐতিহ্য। ওয়ার্ল্ড ট্রাভেল অ্যান্ড ট্যুরিজম কাউন্সিলের সাম্প্রতিক তথ্য-বাংলাদেশের জাতীয় আয়ে ভ্রমণ ও পর্যটন খাতের প্রত্যক্ষ অবদান প্রায় ৫০ হাজার কোটি টাকা, যা জিডিপির ২ শতাংশেরর উপরে। এমন সম্ভাবনা বিবেচনায় ২০১৯ সালের জন্য ওআইসি সদস্যভুক্ত রাষ্ট্রগুলোর পর্যটন নগরী হিসেবে ঢাকাকে নির্বাচিত করা হয়েছে। রাজধানীর একটি হোটেলে দুইদিনব্যাপী এর আনুষ্ঠানিক উদযাপন ঘোষণা দেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা।

ইসলামী পর্যটনের বাজার ২০২১ সাল নাগাদ বেড়ে দাঁড়াবে ২৪৩ বিলিয়ন ডলারে। এই দিক বিবেচনায় ইসলামী পর্যটনকে বিশ্ববাণিজ্য ব্রান্ড হিসেবে গড়ে তোলার উপর জোর দেন শেখ হাসিনা।

ওআইসি ভুক্ত দেশগুলোকে পর্যটন খাতে বিকাশ ও বিনিয়োগে প্রয়োজনে আলাদা জায়গা দেয়ারও আশ্বাস দেন সরকার প্রধান।

সর্বশেষ..