উভয় বাজারে মিশ্র প্রবণতায় লেনদেন

নিজস্ব প্রতিবেদক: উভয় বাজারে গতকাল মিশ্র প্রবণতায় লেনদেন সম্পন্ন হয়েছে। ঢাকা স্টক এক্সচেঞ্জে (ডিএসই) প্রধান সূচক কমলেও বাকি দুটো বেড়েছে। ফলে সূচক দুটোর নতুন উচ্চতায় ওঠার রেকর্ড অব্যাহত রয়েছে। তবে কমেছে বেশিরভাগ শেয়ারের দর। বাজার মূলধনও আগের দিনের তুলনায় কমেছে। গতকাল লেনদেনের শুরুতে সূচক ইতিবাচক থাকলেও বেলা ১টার পর থেকে বিক্রির চাপ বাড়লে সূচক নেমে যায়। শেষ পর্যন্ত সূচকের পতন অব্যাহত থাকে। অন্যদিকে চট্টগ্রাম স্টক এক্সচেঞ্জে (সিএসই) সূচকে ছিল মিশ্র অবস্থা। প্রধান দুই সূচক ও সিএসই৫০ সূচক কমলেও বেড়েছে সিএসই৩০ ও সিএসআই সূচক। কমেছে বেশিরভাগ শেয়ারের দর ও লেনদেন।

বাজার পর্যবেক্ষণে দেখা গেছে, এদিন ডিএসইর প্রধান মূল্যসূচক ডিএসইএক্স ১৬ দশমিক ২৮ পয়েন্ট বা দশমিক ২৬ শতাংশ কমে ছয় হাজার ১৫১ দশমিক ২০ পয়েন্টে অবস্থান করে। ডিএসইএস বা শরিয়াহ সূচক তিন দশমিক ৪৪ পয়েন্ট বা দশমিক ২৫ শতাংশ বেড়ে এক হাজার ৩৭১ দশমিক ৬৯ পয়েন্টে আর ডিএস৩০ সূচক সাত দশমিক ৩৪ পয়েন্ট বা দশমিক ৩৩ শতাংশ বেড়ে দুই হাজার ২০৮ দশমিক ৭৮ পয়েন্টে অবস্থান করে। গতকাল ডিএসইর বাজার মূলধন চার লাখ ১১ হাজার ২৮৯ কোটি ১৪ লাখ ৯৬ হাজার ১০৮ টাকা হয়।

ডিএসইতে গতকাল লেনদেন হয় এক হাজার ১৫২ কোটি ৩৪ লাখ ৪২ হাজার টাকা। আগের কার্যদিবসে লেনদেন হয় এক হাজার ২৫৯ কোটি ৯০ লাখ ৩৬ হাজার টাকার শেয়ার ও মিউচুয়াল ফান্ডের ইউনিট। এ হিসেবে লেনদেন কমেছে ১০৭ কোটি ৫৬ লাখ টাকা। এদিন ৩২ কোটি ৬৮ লাখ ১৮ হাজার ১৩৩টি শেয়ার এক লাখ ৬৩ হাজার ৩১৯ বার হাতবদল হয়। লেনদেন হওয়া ৩৩১টি কোম্পানি ও মিউচুয়াল ফান্ডের মধ্যে দর বেড়েছে ১২২টির। কমেছে ১৭০টির, অপরিবর্তিত ছিল ৩৯টির দর।

টাকার অঙ্কে লেনদেনের শীর্ষে ছিল লংকাবাংলা ফাইন্যান্স। ৪৫ কোটি ৬৭ লাখ টাকায় ৭১ লাখ ৮০ হাজার ৫৩২টি শেয়ার লেনদেন হয়। শেয়ারটির  দর ১০ পয়সা বেড়েছে। এর পরের অবস্থানগুলোয় ছিল লাফার্জ সুরমা, স্কয়ার ফার্মা, সিএমসি কামাল, প্রিমিয়ার ব্যাংক, যমুনা অয়েল, সিটি ব্যাংক, ফরচুন সুজ, বেক্সিমকো ও এনবিএল। সবচেয়ে বেশি সংখ্যক শেয়ার লেনদেন হয় প্রিমিয়ার ব্যাংকের। কোম্পানিটির এক কোটি ৩৮ লাখ ৯০ হাজার ৮৮৭টি শেয়ার ২৩ কোটি ২৯ লাখ টাকায় লেনদেন হয়। এরপরের অবস্থানগুলোতে ছিল এনবিএল, সিএমসি কামাল, আইএফআইসি ব্যাংক, লংকাবাংলা ফিন্যান্স, এক্সিম ব্যাংক, ফাস ফিন্যান্স, বেক্সিমকো, মার্কেন্টাইল ব্যাংক ও ফার্স্ট সিকিউরিটি ব্যাংক।

৯ দশমিক ৯৪ শতাংশ দর বেড়েছে এস আলম কোল্ড রোল্ড স্টিলসের। আট দশমিক ৭৩ শতাংশ বেড়েছে কোহিনুর ক্যামিকেলসের। এরপরে পাঁচ দশমিক ৭৪ শতাংশ বাড়ে প্যারামাউন্ট টেক্সের। আইসিবি এএমসিএল সেকেন্ড মিউচুয়াল ফান্ড পাঁচ দশমিক ৬১ শতাংশ ও আইসিবির দর বেড়েছে চার দশমিক ৭৩ শতাংশ। অন্যদিকে ৯ দশমিক ৮৪ শতাংশ দর কমেছে মেঘনা পেটের। প্রগ্রেসিভ লাইফের কমেছে ৯ দশমিক ৭০ শতাংশ, মুন্নু সিরামিকের ৯ দশমিক ৩৮ শতাংশ, স্ট্যান্ডার্ড সিরামিকের সাত দশমিক ৯৫ শতাংশ ও দুলামিয়া কটনের ৭ দশমিক ১৪ শতাংশ কমেছে।

চট্টগ্রাম স্টক এক্সচেঞ্জে (সিএসই) গতকাল সিএসসিএক্স মূল্যসূচক ২৩ দশমিক ৭২ পয়েন্ট কমে ১১ হাজার ৫৩২ পয়েন্টে, সার্বিক সূচক সিএএসপিআই ৪২ দশমিক ৫১ পয়েন্ট কমে ১৯ হাজার ৭২ পয়েন্টে অবস্থান করে। গতকাল দিনজুড়ে ২৭৩টি কোম্পানি ও মিউচুয়াল ফান্ডের শেয়ার ও ইউনিট লেনদেন হয়। এর মধ্যে ১০১টির দর বেড়েছে, কমেছে ১৪২টির। অপরিবর্তিত ছিল ৩০টির দর।

এদিন ৭১ কোটি ১৩ লাখ পাঁচ হাজার ২০১ টাকার শেয়ার লেনদেন হয়। আগের দিন লেনদেন হয়েছিল ৭৭ কোটি ৫৮ লাখ ৮৪ হাজার টাকার শেয়ার লেনদেন হয়। এ হিসেবে লেনদেন কমে ছয় কোটি ৪৫ লাখ টাকা। সিএসইতে লেনদেনের শীর্ষে ছিল সিঙ্গার বিডি। কোম্পানিটির ১৮ কোটি ৫৫ লাখ টাকার শেয়ার লেনদেন হয়। এরপর লাফার্জ সুরমার চার কোটি ৬১ লাখ টাকার, বেক্সিমকো দুই কোটি ৩৯ লাখ, এনবিএল এক কোটি ৭৮ লাখ, আইএফআইসি এক কোটি ৫০ লাখ, লংকাবাংলা এক কোটি ৪১ লাখ, স্কয়ার ফার্মা এক কোটি ৩৬ লাখ, এবি ব্যাংক এক কোটি ১১ লাখ এবং মিরাকল ইন্ডাস্ট্রিজের এক কোটি দুই লাখ টাকার শেয়ার লেনদেন হয়।