বিশ্ব বাণিজ্য

চীনে গাড়ি বিক্রি কমেছে ৯.৬ শতাংশ

শেয়ার বিজ ডেস্ক: চলতি বছরের জুনে গত বছরের একই সময়ের তুলনায় চীনে গাড়ি বিক্রি ৯ দশমিক ছয় শতাংশ কমেছে। গাড়ি কোম্পানিগুলোর সংগঠন চায়না অ্যাসোসিয়েশন অব অটোমোবাইল ম্যানুফ্যাকচারারস (সিএএএম) গতকাল বুধবার এ তথ্য জানিয়েছে। এ নিয়ে টানা ১২ মাস বিশ্বের সবচেয়ে বড় গাড়ির বাজারে বিক্রি কমল। খবর: ইকোনমিক টাইমস।
সিএএএম বলছে, জুন মাসে চীনে ২০ লাখ ছয় হাজার গাড়ি বিক্রি হয়েছে। আগের বছরের একই সময়ের তুলনায় এটি ৯ দশমিক ছয় শতাংশ কম। এর আগে মে মাসে দেশটিতে বিক্রি কমেছে ১৬ দশমিক চার শতাংশ এবং এপ্রিলে কমেছিল ১৪ দশমিক ছয় শতাংশ।
অর্থনৈতিক প্রবৃদ্ধির শ্লথহার ও যুক্তরাষ্ট্রের সঙ্গে বাণিজ্যযুদ্ধের প্রভাবে গত বছর থেকেই গাড়ি বিক্রি কমেছে। ১৯৯০ সালের পর গত বছর বার্ষিক হিসাবে প্রথম দেশটিতে বিক্রি কমেছে।
রয়টার্সের পূর্বাভাসের জরিপে বলা হয়েছে, জুনে দেশটির রফতানি আগের বছরের একই সময়ের তুলনায় দুই শতাংশ। যেখানে মে মাসে আগের বছরের একই সময়ের তুলনায় এক দশমিক এক শতাংশ বেশি রফতানি হয়েছিল।
অভ্যন্তরীণ ভোক্তা চাহিদা হ্রাস ও যুক্তরাষ্ট্রের সঙ্গে বাণিজ্যযুদ্ধের প্রভাবে চীনের অর্থনৈতিক প্রবৃদ্ধিতে নেতিবাচক প্রভাব পড়েছে। ২৮ বছরের মধ্যে ২০১৮ সালে দেশটির প্রবৃদ্ধিতে সবচেয়ে শ্লথগতি ছিল। গত দশকের বিশ্ব প্রবৃদ্ধির এক-তৃতীয়াংশ এসেছে চীন থেকে। অথচ দেশটির অর্থনীতিতে এখন দুর্বল অবস্থা দেখা দিয়েছে। এতে বিশ্ব অর্থনীতির জন্য একটি ঝুঁকি তৈরি হয়েছে। এছাড়া অ্যাপল থেকে শুরু করে গাড়ি নির্মাতা বড় বৈশ্বিক প্রতিষ্ঠানগুলোর আয়ের ওপরও চীনের শ্লথগতির প্রভাব পড়ছে।
যুক্তরাষ্ট্রের সঙ্গে বাণিজ্যযুদ্ধ নিরসনে একটি চুক্তিতে পৌঁছাতে পারলেও তা চীনের অর্থনীতির প্রবৃদ্ধির চাকা সচল করতে পুরোপুরি কার্যকর হবে না। কারণ, বেইজিংকে আগে দুর্বল ভোক্তা চাহিদা ও বিনিয়োগ মোকাবিলা করতে হবে।
বহুদিন ধরেই বৈরী সম্পর্কের কারণে সম্প্রতি যুক্তরাষ্ট্র ও চীনের মধ্যে বাণিজ্যযুদ্ধ শুরু হয়। একে অন্যের ওপর কয়েক বিলিয়ন ডলার শুল্কারোপ করে বাণিজ্যযুদ্ধের দিকে এগিয়ে গেছে তারা।

সর্বশেষ..