টাঙ্গাইলে বেড়েছে জাতীয় পতাকা বিক্রি

আব্দুল্লাহ আল নোমান, টাঙ্গাইল: বিজয় দিবস সামনে রেখে টাঙ্গাইলে রাস্তাঘাটে জাতীয় পতাকা বিক্রির ধুম পড়েছে। ফেরিওয়ালারা কাঁধে কিংবা সাইকেলে বিভিন্ন আকারের জাতীয় পতাকা বিক্রি করছেন। টাঙ্গাইল শহরসহ বিভিন্ন স্থানে ভোর থেকে শুরু করে মধ্যরাত পর্যন্ত পতাকা বিক্রি করছেন মৌসুমি পতাকা ব্যবসায়ীরা।

বিজয় দিবস উপলক্ষে ঘরবাড়ি, অফিস-আদালত এমনকি যানবাহনেও লাগানো হচ্ছে জাতীয় পতাকা। তাই চাহিদা চেড়েছে পতাকার। কাঁধে কিংবা সাইকেলে জাতীয় পতাকা বিক্রি করছেন মৌসুমি বিক্রেতারা। আর এই পতাকা কিনছেন বিভিন্ন শ্রেণি-পেশার লোকজন।

পতাকা বিক্রেতারা জানান, সর্বনিম্ন ১০ টাকা থেকে শুরু করে সর্বোচ্চ ২০০ টাকায় পর্যন্ত পতাকা বিক্রি করা হয়। এর মধ্যে ছোট পতাকা ১০ টাকা, মাঝারি পতাকা ৫০ টাকা থেকে ৮০ টাকা এবং বড় পতাকা ১৫০ টাকা থেকে ২০০ টাকা।

টাঙ্গাইল শহরের শহীদ মিনারে গতকাল বুধবার পতাকা বিক্রেতা মোহাম্মদ হোসেন জানান, তিনি গত মঙ্গলবার ফরিদপুর থেকে পতাকা বিক্রি করার জন্য টাঙ্গাইলে এসেছেন। তার সঙ্গে আরও দুজন লোক টাঙ্গাইলে পতাকা বিক্রি করতে এসেছেন। তিনি বিজয় দিবস সামনে রেখে পতাকা বিক্রি করে বেশ লাভবান হন। গতবছর বিজয়ের মাসে পতাকা বিক্রি করে প্রায় পাঁচ হাজার টাকা লাভ হয়েছিল। এ বছরও পতাকা বিক্রি করে বেশ লাভবান হবেন বলে তিনি আশা করেন।

আরেক পতাকা বিক্রেতা মো. রহিম জানান, তিনি পায়ে হেঁটে শহরের বিভিন্ন স্থানে পতাকা বিক্রি করেন। এখন ক্রেতা কিছুটা কম। তবে কয়েকদিন পর পুরোদমে পতাকা বিক্রি শুরু হবে। তারা ঢাকা থেকে পতাকা কিনে এনে বিক্রি করেন। এতে বেশ লাভবান হওয়া যায়।