দুবাইয়ের মিরাকল গার্ডেন

কবির ভাষায়-‘কত ফুল তুমি পথে ফেলে দাও মালা গাঁথ অকারণে, আমি চেয়েছিনু একটি কুসুম সেই কথা পড়ে মনে’।
আসলে ফুল সৌন্দর্য, ভালোবাসা ও পবিত্রতার প্রতীক। ফুল ভালোবাসে না-এমন লোক পৃথিবীতে খুব কমই আছে। ফুল ছাড়া তারুণ্যের জীবনের প্রতিটি বসন্ত যেন অর্থহীন। বিভিন্ন জায়গার বিভিন্ন ফুলের মিষ্টি গন্ধে মন ভরে দেয় সবার। বিশ্বের এক এক স্থানের ফুলের আকার, ধরন ও গন্ধ একেক রকম হয়তো। বছরজুড়ে নানা রঙের, নানা প্রজাতির ফুল প্রকৃতিকে সাজিয়ে তোলে অপরূপ সাজে। পৃথিবীর নানা জাতের, নানা গন্ধের সব ফুলের যদি এক স্থানে সমারোহ দেখেন, তবে কেমন লাগবে!
এমনই একটি ফুলের বাগানের কথা বলব আজ। সংযুক্ত আরব আমিরাতের দুবাই মিরাকল গার্ডেন বিশ্বের কয়েকটি বড় ফুলবাগানের একটি। এটি দুবাইয়ের শেখ মোহাম্মদ বিন জায়েদ সড়কের পাশে অবস্থিত। ২০১৩ সালের ১৪ ফেব্রুয়ারি এর উদ্বোধন করা হয়। ৭২ হাজার বর্গমিটার আয়তনের এ বাগানে প্রায় ৪৫ মিলিয়নের বেশি ফুল রয়েছে। এসব ফুল বিভিন্ন আকৃতিতে সাজানো। যেমন ময়ূর, গাড়ি, পাখি, ঈগলু, পিরামিড, ছাতা, হার্ট শেপ, স্টার শেপ, বল, ফুলের দেয়াল, ফুলের গেট প্রভৃতি। এগুলো ঋতুভিত্তিক রং বদলায়।
মূলত আরব আমিরাতের অধিবাসী, প্রবাসী ও পর্যটকদের মন আকৃষ্ট করতে এই ফুলের বাগানটি নির্মিত হয়েছে। পৃথিবীর নানা প্রজাতির ফুল দিয়ে সাজানো মিরাকল গার্ডেনটি। বাগানটি অল্প সময়ের মধ্যে পর্যটকদের আকৃষ্ট করেছে।
বাগানে রয়েছে সাত হাজার টনের অধিক ফুল। ফুল দিয়ে বিশাল দেয়াল ও ফুলের ঝুড়ি তৈরি করা হয়েছে। কৃত্রিম উঁচু পাহাড়, হ্রদ ও পানির ফোয়ারা-সম্মিলিত এই বাগান যেন এক অনন্যসুন্দর সৃষ্টি। এছাড়া ভালোবাসার স্বপ্ন দেখা আপন মানুষকে নিয়ে কেমন করে সাজানো হবে ঘর, গাড়ি কিংবা নৌকা, তারও ধারণা দেওয়া রয়েছে।
দুবাইয়ে গ্রীষ্মকালে অনেক গরম থাকে, তাই এ সময় প্রকৃতি রুগ্ণ হয়ে যায়। সাধারণত এ সময় মরু অঞ্চলে কিছু উৎপাদন করা অকল্পনীয়। তাই শীতের মৌসুমে বাগানটি সাজানো হয়েছে পৃথিবীর নানা প্রান্তের, নানা প্রজাতির ফুল দিয়ে, যা দেখে বাগানে আগতদের মন ফুলের মতো রাঙিয়ে দেয়। ফুলের ভালোবাসার মতো নিজেদের মধ্যে ছড়িয়ে দেবে মমতা। বিশ্বের সবচেয়ে সুন্দর ও বড় ফুলের বাগান হিসেবে কয়েকবার ওয়ার্ল্ড গিনেস বুকে জায়গা করে নিয়েছে এটি। এর পরিধি আরও বাড়ানোর কাজ চলছে।
বিশাল এ বাগানের সীমানায় রয়েছে ওপেন পার্কিং সিস্টেম, ভিআইপি পার্কিং সিস্টেম, সিটিং এরিয়া, ধর্মকর্মের জন্য আলাদা জায়গা, টয়লেট ব্লকস, হেলিকপ্টার ল্যান্ডিংয়ের জায়গা থেকে শুরু করে যাবতীয় সবকিছু।
পর্যটকদের আকর্ষণে অপূর্ব সুন্দর বাগান এটি। সপ্তাহের যে কোনো ছুটির দিনে এটি দেখা যাবে। প্রবাসী ছাড়াও বিশ্বের বিভিন্ন দেশ থেকে বহু পর্যটক আসেন এই বিশাল ফুলবাগান ‘দুবাই মিরাকল গার্ডেন’ দেখতে। অসাধারণ এ বাগানটি তৈরি করেছে ‘আকার’ নামে একটি কোম্পানি।

শিপন আহমেদ