আজকের পত্রিকা

ধোনির আউট নিয়ে বিতর্ক!

ক্রীড়া ডেস্ক: প্যারা কমান্ডোদের বলিদান ব্যাজের গ্লাভস পরা। এদিকে ধীরগতির ব্যাটিং। বিশ্বকাপে শুরু থেকেই এ দুটি ব্যাপারে আলোচনার কেন্দ্রে ছিলেন মহেন্দ্র সিং ধোনি। গত পরশুও ফাইনালে ওঠার লড়াইয়ের ম্যাচ শেষও ঠিক একইভাবে কথা উঠে তার ব্যাটিং নিয়ে। যদিও রবিন্দ্র জাদেজার সঙ্গে তিনিও চেষ্টা করেছিলেন ভারতকে জেতাতে। কিন্তু পারেননি এ ডানহাতি। ১৮ রানের আক্ষেপ থেকে যায়। তার মধ্যে এ উইকেটরক্ষক ব্যাটসম্যান সাজঘরে ফেরেন রান আউটে কাটা পড়ে। তবে ধোনি কী সত্যিই আউট ছিলেন, তা নিয়েও উঠেছে প্রশ্ন।
শেষ ১০ বলে ভারতের জিততে দরকার ছিল ২৫ রান। স্টাইকে ছিলেন ধোনি। কিন্তু লিয়াম ফার্গুসনের বলে
দুই রান নিতে গিয়ে এ উইকেটরক্ষক রান আউটে কাটা পড়েন। এরপরই নিউজিল্যান্ডের দিকে ঘুরে যায় ম্যাচের
পাল্লা। কিন্তু ধোনির রান আউট প্রশ্ন করেছেন ভক্তরা। টুইটারে একটি ভিডিওতে দেখা যাচ্ছে- যে বলটিতে ধোনি আউট হন সেটা বৈধ বল ছিল না! ওয়ানডেতে নিয়ম বলছে, তৃতীয় পাওয়ার প্লেতে ৩০ গজ বৃত্তের বাইরে থাকতে পারেন পাঁচজন ফিল্ডার। কিন্তু ধোনির আউটের সময় ছয় ফিল্ডার বাইরে ছিলেন!
ম্যাচ শেষে তাই ধোনির রান আউট নিয়ে প্রশ্ন তুলেছে ভারতীয় সংবাদমাধ্যমগুলো। এদিকে লকি ফার্গুসনের যে ডেলিভারিতে ধোনি রান আউট হয়েছেন সেটির বৈধতা নিয়েও উঠেছে প্রশ্ন। যদি বলটি ‘নো বল’ হলেও কিন্তু ধোনি রান আউটই হতেন (নো বলে ব্যাটসম্যান রান আউট হতে পারে)।
অনেক ভক্ত অবশ্য ধোনিকেও হারের জন্য দায়ী করছেন। তবে অধিনায়ক বিরাট কোহলি সতীর্থের পাশেই দাঁড়িয়েছেন, ‘আমার মনে হয় ধোনির জন্যই জাদেজা ফ্রি ক্রিকেট খেলতে পেরেছে। একটা প্রান্ত ধরে
রেখেছিল ধোনি। পরিস্থিতি বুঝে ওকে একটা বিশেষ ভূমিকা দেওয়া হয়েছিল। ওরা ১০০ রানের জুটি গড়েছে। আসলে বাইরে থেকে সমালোচনা করাটা সহজ। অস্বীকার করছি না যে- আমরা ভুল করিনি। কিন্তু এটাও ঠিক আমরা সমালোচনা একটু বেশিই করি।’
ভারতের বিশ্বকাপ শেষ হতেই ধোনির অবসর প্রসঙ্গ চলে এসেছে। তবে কোহলি জানিয়েছেন, ‘দেখুন, ধোনি এখনও পর্যন্ত এ বিষয়ে আমাদের কিছুই বলেনি।’

সর্বশেষ..