মার্কেটওয়াচ

বাজার ভালো করার জন্য আরও প্রণোদনা দরকার

প্রধানমন্ত্রীর নির্দেশনা অনুযায়ী বাজারের জন্য যে প্রণোদনাগুলো দেওয়া হয়েছে, তার জন্য ধন্যবাদ। কিন্তু বর্তমানে পুঁজিবাজার একটি চ্যালেঞ্জের মধ্যে রয়েছে। বাজার ভালো করার ক্ষেত্রে এ প্রণোদনা তেমন একটা ভূমিকা রাখবে বলে মনে হয় না। সত্যিকার অর্থে বাজার ভালো করার জন্য আরও প্রণোদনা দেওয়া দরকার। গতকাল এনটিভির মার্কেট ওয়াচ অনুষ্ঠানে বিষয়টি আলোচিত হয়। হাসিব হাসানের সঞ্চালনায় অনুষ্ঠানে উপস্থিত ছিলেন পুঁজিবাজার বিশ্লেষক মাহমুদ হোসেন, এফসিএ, এনবিইআরের চেয়ারম্যান অধ্যাপক আহসানুল আলম পারভেজ এবং মাল্টি ব্র্যান্ড গ্রুপের এক্সিকিউটিভ ডিরেক্টর মাছউদ করিম চৌধুরী।
মাহমুদ হোসেন বলেন, পুঁজিবাজারের তালিকাভুক্ত কোম্পানির ওপর কর আরোপের প্রস্তাবে পরিবর্তন এনেছে সরকার। বিশেষ করে স্টকের সমপরিমাণ নগদ লভ্যাংশ দিলে কোম্পানিগুলোকে বাড়তি কর দিতে হবে না। অর্থাৎ বোনাস দিলে নগদ লভ্যাংশও দিতে হবে। যদি নগদ লভ্যাংশ না দেয় সেক্ষেত্রে ১০ শতাংশ কর প্রদান করতে হবে। দুই থেকে তিন মাস ধরে অর্থমন্ত্রীর মুখে শুনে আসছি পুঁজিবাজারের জন্য ভালো প্রণোদনা বা চমৎকার কিছু থাকবে। আর এ বাজেটে পুঁজিবাজারের জন্য যে প্রণোদনা ঘোষণা করা হয়েছে, সেটি বাজারের জন্য কতটুকু ভালো তা বিচার-বিশ্লেষণের বিষয় রয়েছে। তবে এটি বাজারের জন্য কিছুটা ইতিবাচক হবে মনে করি।
তিনি আরও বলেন, দেশে শিক্ষিত বেকারের হার দিন দিন বাড়ছে। যদি বিনিয়োগ না বাড়ে, তাহলে কর্মসংস্থানের সুযোগ সৃষ্টি হবে না। আবার ইন্ডাস্ট্রিয়াল সেক্টরের দেশের জিডিপিতে অবদান মাত্র ৩৩ শতাংশ।
অধ্যাপক আহসানুল আলম পারভেজ বলেন, বাজেট ঘোষণার আগে অর্থমন্ত্রী পুঁজিবাজার নিয়ে অনেক আশার বাণী শুনিয়েছিলেন, কিন্ত বাজেটে সেরকম কিছু লক্ষ করা যায়নি। তবে প্রধানমন্ত্রীর নির্দেশনা অনুযায়ী, বাজারের জন্য যে প্রণোদনাগুলো দেওয়া হয়েছে সেজন্য ধন্যবাদ। কিন্তু বর্তমানে পুঁজিবাজার একটি চ্যালেঞ্জের মধ্যে রয়েছে, অর্থাৎ বাজার ভালো করার ক্ষেত্রে এ প্রণোদনা তেমন একটা ভূমিকা পালন করবে না। সত্যিকার অর্থে বাজার ভালো করার জন্য আরও প্রণোদনা দেওয়া দরকার। এবার বাজেট নিয়ে বেশ আলোচনা-সমালোচনা হচ্ছে। বিশাল বাজেট একটি চ্যালেঞ্জের মুখে রয়েছে। বিশেষ করে ব্যাংক খাতের তারল্য সংকটসহ বিভিন্ন সমস্যা রয়েছে পুঁজিবাজার স্থিতিশীল রাখা, নতুন বিনিয়োগ আনা প্রভৃতি। তবে এ বাজেটে কোনো ম্যাজিক কাজ করবে না এবং আরও নতুন কিছু বিষয় নিয়ে ভাবতে হবে। তবে আশা করি সেগুলো সরকার সংশোধন করবে।
মাছউদ করিম চৌধুরী বলেন, আইটি খাতে অনেক শিক্ষিত লোক দেখা যায়, কিন্তু সমস্যা হচ্ছে মার্কেটে কীসের চাহিদা রয়েছে, সেটি কেউ বিশ্লেষণ করছে না। অর্থাৎ আইটি ও অটোমোবাইলসে অনেক কর্মসংস্থানের সুযোগ রয়েছে। এখানে বড় সমস্যা হচ্ছে শিক্ষিত লোক এলেও ভালো মানের অভিজ্ঞ লোক পাওয়া যাচ্ছে না। যেখানে সরকার আইটি খাতে বিশেষভাবে নজর দিয়েছে, সেখানে পর্যাপ্ত অভিজ্ঞ লোকের অভাব রয়েছে।

শ্রুতিলিখন: শিপন আহমেদ

সর্বশেষ..