মালয়েশিয়ার পুঁজিবাজারে পতন

শেয়ার বিজ ডেস্ক: গত সপ্তাহে অনুষ্ঠিত মালয়েশিয়া জাতীয় নির্বাচনে প্রধানমন্ত্রী হিসেবে মাহাথির মোহাম্মদের জয়ের পর গতকালই ছিল দেশটির পুঁজিবাজারে প্রথম লেনদেন। এদিন দেশটির পুঁজিবাজার সূচক পড়েছে এক দশমিক সাত শতাংশ এবং মুদ্রা রিঙ্গিতের মান কমে চার মাসের মধ্যে সর্বনিন্মে পৌঁছায়। খবর রয়টার্স।
ক্রেডিট রেটিং সংস্থা মুডিস বলছে, মালয়েশিয়ার নতুন সরকারের নির্বাচনি ইশতেহারে অর্থনৈতিক নীতি অনেকটা অস্পষ্ট। তাই তারা ইশতেহারের প্রতিশ্রুতিগুলো ভারসাম্য না এনে বাস্তবায়ন করলে অর্থনীতিতে নেতিবাচক প্রভাব পড়বে।
প্রতিবেদন বলা হয়েছে, মুডিসের ওই প্রতিবেদন এবং গত ছয় দশক দেশ শাসন করা জোট নির্বাচনে পরাজিত হওয়ায় বিনিয়োগকারীদের মধ্যে শঙ্কা কাজ করছে। এর প্রভাব পড়েছে বাজারে।
গতকাল এক ডলারের বিপরিতে মান কমে তিন দশমিক ৯৮৫ রিঙ্গেতে পৌঁছায়। এদিকে টেলিযোগাযোগ কোম্পানিগুলোর শেয়ারদর পতনে গতকাল মালয়েশিয়ার পুঁজিবাজার নি¤œমুখী ধারায় থাকতে দেখা গেছে। এর মধ্যে আজিয়াটা গ্রুপ বারহাডের শেয়ার কমেছে সাড়ে আট শতাংশ। সিআইএমবি গ্রুপ হোল্ডিংস বারহাডের শেয়ার কমেছে ১২ শতাংশ। এছাড়া এয়ার এশিয়া গ্রুপ বারহাডের শেয়ার কমেছে ১০ শতাংশ। তবে বেড়েছে পিপিবি গ্রুপের শেয়ারদর। মালয়েশিয়ার বিলিয়নেয়ার রবার্ট কৌক প্রতিষ্ঠানটির নতুন প্রশাসনের উপদেষ্টা নিয়োগ পাওয়ায় পিপিবি গ্রুপের শেয়ারদরে ইতিবাচক প্রভাব পড়েছে। গতকাল এর শেয়ারদর বেড়েছে প্রায় আট দশমিক তিন শতাংশ।
গত সপ্তাহে মালয়েশিয়ার সাধারণ নির্বাচনে জয় পেয়েছে বিরোধী জোট পাকাতুন হারাপান। দীর্ঘ ৬০ বছরের ক্ষমতা হারাল বারিসান ন্যাশনাল। আর অপর দিকে সবাইকে তাক লাগিয়ে দিয়ে ৯২ বছর বয়সী মাহাথির মাহাথির মোহাম্মদ আবার ক্ষমতায় এলেন। এ নির্বাচনের মধ্য দিয়ে নতুন ইতিহাস তৈরি করে মালয়শিয়া দেখিয়ে দিলো সারা বিশ্বকে।
৯২ বছর বয়সী এই নেতা নিজের দলের বিপক্ষে দাঁড়িয়ে জয় লাভ করে পুনরায় রাজনীতিতে নিজের প্রবেশ ঘটালেন। ২০০৩ সালে স্বেচ্ছায় প্রধানমন্ত্রিত্ব থেকে মাহাথির মোহাম্মদ পদত্যাগ করলে বারিসান নাশিওনাল জোটের নেতৃত্বে আসেন নাজিব তুন নাজাক। প্রধানমন্ত্রীর থাকাকালে নাজিবের বিরুদ্ধে সীমাহীন দুর্নীতিতে জড়িয়ে পড়ার অভিযোগ ওঠে। যার ফলে অর্থনৈতিক ধসের মুখে পড়ে মালয়েশিয়া। মাহাথির তাকে পদত্যাগের আহ্বান জানান।