শোবিজ

মুক্তি পেল মহালয়ার ট্রেলার

শোবিজ ডেস্ক: মহালয়ার ভোরে বীরেন্দ্রকৃষ্ণ ভদ্রের কণ্ঠের মহিষাসুরমর্দিনী ছাড়া ভারতীয় বাঙালি হিন্দুদের কোনোভাবেই চলে না। কিন্তু ১৯৭৬ সালে একবারই ঘটেছিল এর ব্যতিক্রম। কণ্ঠ দিয়েছিলেন মহানায়ক উত্তম কুমার। আর তা নিয়েই বেঁধেছিল যত বিপত্তি। এ ঘটনাকেই এবার চলচ্চিত্রে রূপ দিয়েছেন পরিচালক সৌমিক সেন। গতকাল রোববার মুক্তি পেয়েছে মহালয়ার ট্রেলার। আগামী ১ মার্চ মুক্তি পাবে সেই ছবি ‘মহালয়া’।
‘আকাশবাণী আমাকে বাদ দিয়েছে বলে কি আমি আকাশ বাদ দেওয়ার চেষ্টা করব?’ যিনি বলছেন এ কথা, তাকে ছাড়া মহালয়ার ভোরে মহিষাসুরমর্দিনীর কথা ভাবতে পারেন না ভারতীয় বাঙালি হিন্দু। ভাবতে পারেন না এই ২০১৯-এও। তিনি বীরেন্দ্রকৃষ্ণ ভদ্র।
১৯৭৬ সালে প্রাণের নায়ককেও রেডিওতে রেয়াত করেননি বাঙালি। রেডিওর মহালয়া যে তার মাঠ নয়, তা বুঝিয়ে দিয়েছিলেন শ্রোতারা। সেই মাঠে যে মানুষ প্রত্যেক বছর ছক্কা হাঁকাতে অভ্যস্ত তার নাম বীরেন্দ্রকৃষ্ণ ভদ্র। সেই টানাপড়েনই ধরা পড়বে ছবিতে।
প্রসেনজিৎ চট্টোপাধ্যায় নিবেদিত এ ছবিতে বীরেন্দ্রকৃষ্ণের ভূমিকায় অভিনয় করেছেন শুভাশিস মুখোপাধ্যায়। উত্তম কুমারের ভূমিকায় দেখা যাবে যিশু সেনগুপ্তকে। যিশুর কেরিয়ারে এ ছবি অন্যতম গুরুত্বপূর্ণ। প্রথম পোস্টার তৈরি হয়েছিল সংবাদপত্রের পাতার আদলে। ‘বীরেন্দ্রকৃষ্ণের বদলে উত্তম, উত্তাল বাংলা’ শিরোনামে ছিল খবরও। ট্রেলার মুক্তির পর এ ছবি বাঙালির আবেগের সঙ্গে জড়িয়ে যাবে বলে মনে করছেন ইন্ডাস্ট্রির একটা বড় অংশ।

সর্বশেষ..



/* ]]> */