মেক্সিকোতে শক্তিশালী ভূমিকম্পে নিহত বেড়ে ৬১

মেক্সিকোর দক্ষিণাঞ্চলীয় উপকূলে শক্তিশালী ভূমিকম্পে নিহতের সংখ্যা বেড়ে ৬১ জনে দাঁড়িয়েছে। দেশটির কর্মকর্তারা এ তথ্য জানিয়েছেন।

ভূমিকম্পের পর সবচেয়ে বেশি ক্ষতিগ্রস্ত এলাকা তাবাসকো, ওয়াক্সাকা ও চিয়াপাসে বড় পরিসরে উদ্ধার তৎপরতা চলছে। অঞ্চলগুলোতে এখনো অনেকে ধ্বংসস্তূপের নিচে আটকা পড়ে আছে বলে ধারণা করা হচ্ছে।

মেক্সিকোর প্রেসিডেন্ট এনরিক পেনা নিয়েতো বলেছেন, ভূমিকম্পে কমপক্ষে ২০০ মানুষ নিহত হয়েছে।

গত বৃহস্পতিবার রাতে আট দশমিক এক মাত্রার ভূমিকম্প অনুভূত হয় মেক্সিকোতে। এটিই ছিল এক শতাব্দীর মধ্যে সবচেয়ে বড় ভূকম্পন।

ভূমিকম্পে হতাহত ব্যক্তিদের স্মরণে একদিনের শোক ঘোষণা করেছেন প্রেসিডেন্ট নিয়েতো। শোকের অংশ হিসেবে জাতীয় পতাকা অর্ধনমিত রাখা হবে।

প্রেসিডেন্ট বলেন, ভূমিকম্পে ওয়াক্সাকায় ৪৫, চিয়াপাসে ১২ ও তাবাসেকাতে চারজন নিহত হয়েছে।

ভূকম্পনে সবচেয়ে বেশি ক্ষতিগ্রস্ত হয়েছে ওয়াক্সাকার জুচিতান শহর। সেখানে কমপক্ষে ১৭ জন নিহত হওয়ার খবর পাওয়া গেছে। ভূমিকম্পে টাউন হল ও অন্য বেশ কিছু ভবন একেবারে ধ্বংস হয়ে গেছে কিংবা মারাত্মক ক্ষতিগ্রস্ত হয়েছে।

‘জুচিতানের অবস্থা ভয়াবহ ; এটা ইতিহাসের সবচেয়ে ভয়াবহ মুহূর্ত’, বলেন মেয়র গ্লোরিয়া সানচেজ। শুক্রবার শহরটি পরিদর্শনে যান প্রেসিডেন্ট নিয়েতো।

বিবিসির প্রতিবেদক অর্তোরো ওয়ালেস জানান, ভূমিকম্পে আক্রান্ত এলাকা মেক্সিকোর দরিদ্রতম । সেখানে  ক্ষয়ক্ষতির প্রকৃত চিত্র এখনো জানা যায়নি