প্রচ্ছদ শেষ পাতা

শীর্ষ মুনাফার ১০ কোম্পানিতে চোখ বিনিয়োগকারীর

মুস্তাফিজুর রহমান নাহিদ: সম্প্রতি পুঁজিবাজারে তালিকাভুক্ত ২১৪ কোম্পানির তৃতীয় প্রান্তিক শেষ হয়েছে। এরই মধ্যে কোম্পানিগুলোর আর্থিক হিসাব প্রকাশ করেছে। ব্যাংক, বিমা, আর্থিক প্রতিষ্ঠান, বহুজাতিক কোম্পানি ও মিউচুয়াল ফান্ড বাদে পুঁজিবাজারে তালিকাভুক্ত জুন ক্লোজিং কোম্পানির সংখ্যা ২১৪টি। এর মধ্যে চলতি অর্থবছরের প্রথম ৯ মাসে মুনাফায় রয়েছে ১৭৬টি কোম্পানি এবং লোকসান হয়েছে ৩৮টি কোম্পানি। সংশ্লিষ্ট সূত্রে এ তথ্য জানা গেছে।
এদিকে মুনাফায় এগিয়ে থাকার কারণ চাহিদা বেড়েছে এসব কোম্পানির শেয়ারের। সম্প্রতি বিনিয়োগকারীদের আগ্রহের শীর্ষে রয়েছে এসব কোম্পানি। ফলে বাড়ছে বেশিরভাগ কোম্পানির শেয়ারদর।
প্রাপ্ত তথ্যমতে, মুনাফায় থাকা ১৭৬টি কোম্পানির মধ্যে শীর্ষ মুনাফার ১০টি কোম্পানি হলোÑরেনাটা, মেঘনা পেট্রোলিয়াম, পদ্মা ওয়েল, যমুনা ওয়েল, ফার্মা এইড, ইউনাইটেড পাওয়ার, স্কয়ার ফার্মা, ন্যাশনাল টি, ওয়াটা কেমিক্যাল ও এপেক্স ফুটওয়্যার লিমিটেড। মুনাফায় এগিয়ে থাকার কারণে বিনিয়োগকারীদের আগ্রহের শীর্ষে রয়েছে এসব কোম্পানি।
বিষয়টি নিয়ে আলাপ করলে পুঁজিবাজার-সংশ্লিষ্টরা বলেন, যেসব কোম্পানি মুনাফায় এগিয়ে রয়েছে এসব কোম্পানির আর্থিক ভিত্তি মজবুত। প্রায় প্রতি বছরই এসব কোম্পানি ভালো মুনাফা করে। এসব কোম্পানির লভ্যাংশ প্রদানের হারও ভালো। সে কারণে বিনিয়োগকারীরা এসব কোম্পানির শেয়ারের সঙ্গে থাকতে চান।
এ প্রসঙ্গে ডিবিএ’র প্রেসিডেন্ট শাকিল রিজভী বলেন, বুদ্ধিমান বিনিয়োগকারীরা লভ্যাংশপ্রাপ্তির মধ্য দিয়ে লাভবান হতে চান। সে কারণে তারা ভালো কোম্পানি অর্থাৎ মুনাফায় থাকা কোম্পানিতে বিনিয়োগ করতে চান। অন্যদিকে এসব কোম্পানিতে ঝুঁকিও কম থাকে। মূলত এই কারণে বিনিয়োগকারীদের আস্থার শীর্ষে থাকে এসব কোম্পানি।
প্রাপ্ত তথ্যমতে, তৃতীয় প্রান্তিক শেষে শেয়ারপ্রতি ৩১ দশমিক ৮৮ টাকা মুনাফা নিয়ে শীর্ষস্থানে রয়েছে রেনাটা। এরপর মেঘনা পেট্রোলিয়াম ২১ দশমিক ৫৩ টাকা মুনাফা নিয়ে দ্বিতীয় অবস্থানে রয়েছে। পরের অবস্থানে থাকা কোম্পানিগুলো হচ্ছে পদ্মা ওয়েল ১৯ দশমিক ৭২ টাকা, যমুনা ওয়েল ১৫ দশমিক ৭৭, ফার্মা এইড ১৩ দশমিক ৪৬, ইউনাইটেড পাওয়ার ১২ দশমিক ৮৮, স্কয়ার ফার্মা ১১ দশমিক ৯৩, ন্যাশনাল টি ৯ দশমিক ৬৭, ওয়াটা কেমিক্যাল ৮ দশমিক ৪৫ টাকা এবং এপেক্স ফুটওয়ার আট দশমিক ৩৩ টাকা শেয়ারপ্রতি মুনাফা করেছে।
অন্যদিকে মুনাফার শীর্ষে থাকা ১০ কোম্পানির মধ্যে লভ্যাংশের দিক থেকে এগিয়ে রয়েছে রেনাটা, মেঘনা পেট্রোলিয়াম, পদ্মা ওয়েল, যমুনা ওয়েল ও ইউনাইটেড পাওয়ার। কোম্পানিগুলো শতভাগের বেশি লভ্যাংশ দিয়েছে। এর মধ্যে গত বছর মেঘনা পেট্রোলিয়াম ১৪০ শতাংশ নগদ, যমুনা ওয়েল ১৩০ শতাংশ নগদ, পদ্মা ওয়েল ১৩০ শতাংশ নগদ, ইউনাইটেড পাওয়ার ১১০ ও রেনাটা ১১০ শতাংশ লভ্যাংশ দিয়েছে।
এদিকে তালিকায় থাকা অন্য প্রতিষ্ঠানের মধ্যে এপেক্স ফুটওয়ার ৫৫ শতাংশ, ফার্মা এইড ৫০ শতাংশ, স্কয়ার ফার্মা ৪৩ শতাংশ, ওয়াটা কেমিক্যাল ৪০ এবং ন্যাশনাল টি ২২ শতাংশ নগদ লভ্যাংশ দিয়েছে।
সাধারণ বিনিয়োগকারীরা জানান, প্রতিষ্ঠানগুলো তৃতীয় প্রান্তিক পর্যন্ত যেহেতু ভালো অবস্থানে রয়েছে, সেহেতু শেষ প্রান্তিকে প্রতিষ্ঠানগুলো ভালো করবে। তাছাড়া কোম্পানিগুলোর রিটার্ন প্রদানের হারও ভালো। সে কারণেই তারা এসব কোম্পানিতে আস্থা রেখেছে।

সর্বশেষ..