সপ্তাহজুড়ে সাত প্রতিষ্ঠানের লভ্যাংশ ঘোষণা

নিজস্ব প্রতিবেদক: গত সপ্তাহজুড়ে ২০১৮ সালের ৩০ জুন সমাপ্ত হিসাববছরের জন্য লভ্যাংশ ঘোষণা করেছে তালিকাভুক্ত এক কোম্পানি ও ছয় মিউচুয়াল ফান্ড। ঢাকা স্টক এক্সচেঞ্জ (ডিএসই) সূত্রে এ তথ্য জানা গেছে।
ইউনাইটেড পাওয়ার জেনারেশন অ্যান্ড ডিস্ট্রিবিউশন: ২০১৮ সালের ৩০ জুন পর্যন্ত সমাপ্ত লিমিটেড বিনিয়োগকারীদের ৯০ শতাংশ নগদ ও ২০ শতাংশ বোনাস লভ্যাংশ ঘোষণা করেছে। আলোচিত সময়ে কোম্পানিটির শেয়ারপ্রতি আয় (ইপিএস) হয়েছে ১১ টাকা ৫১ পয়সা এবং শেয়ারপ্রতি সম্পদমূল্য (এনএভি) দাঁড়িয়েছে ৪০ টাকা ৮০ পয়সা। ঘোষিত লভ্যাংশ বিনিয়োগকারীদের সম্মতিক্রমে অনুমোদনের জন্য আগামী ৩০ অক্টোবর সকাল সাড়ে ১০টায় আর্মি গলফ ক্লাব, বিমানবন্দর সড়ক, ঢাকায় বার্ষিক সাধারণ সভা (এজিএম) অনুষ্ঠিত হবে। এ জন্য রেকর্ড ডেট নির্ধারণ করা হয়েছে ৬ সেপ্টেম্বর।
সর্বশেষ কার্যদিবসে শেয়ারদর দশমিক ৯০ শতাংশ বা তিন টাকা বেড়ে প্রতিটি সর্বশেষ ৩৩৫ টাকায় হাতবদল হয়, যার সমাপনী দর ছিল ৩৩৫ টাকা ১০ পয়সা। দিনজুড়ে সাত লাখ সাত হাজার ১৩৫টি শেয়ার মোট দুই হাজার পাঁচবার হাতবদল হয়, যার বাজারদর ২৩ কোটি ৭৬ লাখ ৬১ হাজার টাকা। দিনজুড়ে শেয়ারদর সর্বনিম্ন ৩২৬ টাকা থেকে সর্বোচ্চ ৩৪৪ টাকায় হাতবদল হয়। এক বছরে শেয়ারদর ১৪৯ টাকা ৭০ পয়সা থেকে ৩৪৮ টাকা ৭০ পয়সার মধ্যে ওঠানামা করে।
২০১৭ সালের ৩০ জুন সমাপ্ত হিসাববছরে কোম্পানিটি ৯০ শতাংশ নগদ ও ১০ শতাংশ বোনাস লভ্যাংশ দিয়েছে। ওই সময় ইপিএস হয়েছে ১১ টাকা ৫০ পয়সা ও এনএভি ৪১ টাকা ২২ পয়সা। ওই সময় কর-পরবর্তী মুনাফা করেছে ৪১৭ কোটি ৪৯ লাখ ৬০ হাজার টাকা। কোম্পানিটির মোট ৩৯ কোটি ৯২ লাখ ৩৯ হাজার ১৬৮টি শেয়ার রয়েছে। ডিএসইর সর্বশেষ তথ্যানুযায়ী কোম্পানির মোট শেয়ারের মধ্যে উদ্যোক্তা ও পরিচালকদের ৯০ শতাংশ, প্রাতিষ্ঠানিক ছয় দশমিক ১৬ শতাংশ ও সাধারণ বিনিয়োগকারীর কাছে তিন দশমিক ৮৪ শতাংশ শেয়ার রয়েছে।
গ্রামীণ ওয়ান স্কিম টু: আলোচ্য সময়ে ফান্ডটি ১২ শতাংশ নগদ লভ্যাংশ ঘোষণা করেছে। ওই সময় ইউনিটপ্রতি আয় (ইপিইউ) হয়েছে এক টাকা ৩১ পয়সা এবং ইউনিটপ্রতি সম্পদমূল্য (এনএভি) হয়েছে ১৯ টাকা ৩৩ পয়সা। এটি আগের বছরের একই সময় ছিল যথাক্রমে এক টাকা ১১ পয়সা ও ১৯ টাকা ৭১ পয়সা। এজন্য রেকর্ড ডেট নির্ধারণ করা হয়েছে আগামী ৩০ আগস্ট।
গত বৃহস্পতিবার ফান্ডটির ইউনিট দর অপরিবর্তিত থেকে প্রতিটি ইউনিট সর্বশেষ ১৬ টাকায় হাতবদল হয়, যার সমাপনী দর ছিল ১৫ টাকা ৯০ পয়সা। দিনভর ইউনিট দর সর্বনি¤œ ১৫ টাকা ৬০ পয়সা থেকে সর্বোচ্চ ১৬ টাকা ৫০ পয়সার মধ্যে হাতবদল হয়।
এশিয়ান টাইগার সন্ধানী লাইফ গ্রোথ ফান্ড: আলোচ্য সময়ে ফান্ডটি ১২ শতাংশ নগদ লভ্যাংশ ঘোষণা করেছে। ওই সময় ইপিইউ হয়েছে এক টাকা ২৭ পয়সা এবং ইউনিটপ্রতি সম্পদমূল্য (এনএভি) হয়েছে ১৩ টাকা ৪৭ পয়সা। এটি আগের বছরের একই সময় ছিল যথাক্রমে এক টাকা ৫৮ পয়সা ও ১৪ টাকা দুই পয়সা। এজন্য রেকর্ড ডেট নির্ধারণ করা হয়েছে আগামী ৩ সেপ্টেম্বর।
গত বৃহস্পতিবার ফান্ডটির ইউনিট দর এক দশমিক ৮৩ শতাংশ বা ২০ পয়সা বেড়ে প্রতিটি ইউনিট সর্বশেষ ১১ টাকা ১০ পয়সায় হাতবদল হয়, যার সমাপনী দর ছিল ১১ টাকা। দিনভর ইউনিট দর সর্বনিম্ন ১০ টাকা ৮০ পয়সা থেকে সর্বোচ্চ ১১ টাকা ১০ পয়সার মধ্যে হাতবদল হয়।
ডিবিএইচ ফার্স্ট মিউচুয়াল ফান্ড: আলোচ্য সময়ে ফান্ডটি ৯ শতাংশ নগদ লভ্যাংশ ঘোষণা করেছে। ওই সময় ইপিইউ হয়েছে ৯৭ পয়সা এবং ইউনিটপ্রতি সম্পদমূল্য (এনএভি) হয়েছে ১১ টাকা ৯৬ পয়সা। এটি আগের বছরের একই সয়ম ছিল যথাক্রমে ৪৩ পয়সা ও ১১ টাকা ৫০ পয়সা। এজন্য রেকর্ড ডেট নির্ধারণ করা হয়েছে আগামী ৩ সেপ্টেম্বর।
গতকাল ফান্ডটির ইউনিট দর এক দশমিক ১৪ শতাংশ বা ১০ পয়সা বেড়ে প্রতিটি সর্বশেষ আট টাকা ৯০ পয়সায় হাতবদল হয়, যার সমাপনী দরও ছিল আট টাকা ৯০ পয়সা। দিনভর ইউনিট দর সর্বনি¤œ আট টাকা ৮০ পয়সা থেকে সর্বোচ্চ ৯ টাকার মধ্যে হাতবদল হয়।
গ্রীন ডেল্টা মিউচুয়াল ফান্ড: আলোচ্য সময়ে ফান্ডটি ৯ শতাংশ নগদ লভ্যাংশ ঘোষণা করেছে। ওই সময় ইপিইউ হয়েছে ৯৫ পয়সা এবং ইউনিটপ্রতি সম্পদমূল্য (এনএভি) হয়েছে ১২ টাকা। এটি আগের বছরের একই সময় ছিল যথাক্রমে ৪৩ পয়সা ও ১১ টাকা ৫৪ পয়সা। এজন্য রেকর্ড ডেট নির্ধারণ করা হয়েছে আগামী ৩ সেপ্টেম্বর।
গতকাল ফান্ডটির ইউনিট দর এক দশমিক ১৬ শতাংশ বা ১০ পয়সা কমে প্রতিটি ইউনিট সর্বশেষ আট টাকা ৫০ পয়সায় হাতবদল হয়, যার সমাপনী দর ছিল আট টাকা ৪০ পয়সা। দিনভর ইউনিট দর সর্বনিম্ন আট টাকা ৪০ পয়সা থেকে সর্বোচ্চ ৯ টাকার মধ্যে হাতবদল হয়।
এসইএমএল আইবিবিএল শরিয়াহ্ ফান্ড: আলোচ্য সময়ে ফান্ডটি চার শতাংশ নগদ লভ্যাংশ ঘোষণা করেছে। ওই সময় ইপিইউ হয়েছে ৩৩ পয়সা এবং ইউনিটপ্রতি সম্পদমূল্য (এনএভি) হয়েছে ১০ টাকা ৪২ পয়সা। এজন্য রেকর্ড ডেট নির্ধারণ করা হয়েছে আগামী ৯ সেপ্টেম্বর।
সিএপিএম বিডিবিএল মিউচুয়াল ফান্ড ওয়ান: আলোচ্য সময়ে ফান্ডটি সাত শতাংশ নগদ লভ্যাংশ ঘোষণা করেছে। ওই সময় ইপিইউ হয়েছে ৭৭ পয়সা এবং ইউনিটপ্রতি সম্পদমূল্য (এনএভি) হয়েছে ১০ টাকা ৩৩। এটি আগের বছরের একই সময় ছিল যথাক্রমে ২১ পয়সা ও ১০ টাকা ২১ পয়সা। এজন্য রেকর্ড ডেট নির্ধারণ করা হয়েছে আগামী ৪ সেপ্টেম্বর।
গতকাল ফান্ডটির ইউনিট দর দুই দশমিক ৫৬ শতাংশ বা ২০ পয়সা কমে প্রতিটি ইউনিট সর্বশেষ সাত টাকা ৬০ পয়সায় হাতবদল হয়, যার সমাপনী দর ছিল সাত টাকা ৭০ পয়সা।
ওইদিন ৬৬ হাজার ৯৬৮টি ইউনিট মোট ৩৫ বার হাতবদল হয়, যার বাজারদর পাঁচ লাখ ১৪ হাজার টাকা। এক বছরে ইউনিট দর সাত টাকা ৫০ পয়সা থেকে ১০ টাকা ৬০ পয়সার মধ্যে হাতবদল হয়।