১০ বছরের মধ্যে সর্বনিন্মে নামবে ভারতের তুলা উৎপাদন

শেয়ার বিজ ডেস্ক: চলতি মৌসুমে ভারতের তুলা উৎপাদন ১০ বছরের মধ্যে সর্বনিম্ন পৌঁছাবে বলে পূর্বাভাস দিয়েছে কটন অ্যাসোসিয়েশন অব ইন্ডিয়া (সিআইএ)। সংগঠনটির মতে, এ মৌসুমে তুলা উৎপাদন হবে ৩২৮ লাখ বেল (প্রতি বেলে ১৭০ কেজি)। পর্যাপ্ত বৃষ্টিপাতের অভাবে তুলা উৎপাদনের জন্য বিখ্যাত গুজরাট, কর্ণাটক, তেলেঙ্গানা ও মহারাষ্ট্র রাজ্যে উৎপাদন কমবে। এর প্রভাব পড়বে সার্বিক উৎপাদনে। খবর: ইকোনমিক টাইমস।
সিআইএ গত বৃহস্পতিবার আগের দেওয়া পূর্বাভাসের চেয়ে উৎপাদন আরও কমিয়েছে। সংগঠনটি বলছে, আগে তারা বলেছিল তুলা উৎপাদন হবে ৩৪৮ লাখ বেল। কিন্তু আবহাওয়া অনুকূলে না থাকায় উৎপাদন আট দশমিক ছয় শতাংশ কমিয়ে ৩২৮ লাখ বেল হবে বলে নতুন পূর্বাভাসে বলা হয়েছে।
সংগঠনটির প্রেসিডেন্ট অতুল গনত্র বলেন, গত বছর তুলার উৎপাদন হয়েছিল ৩৬৫ লাখ বেল। চলতি বছর ৩৭ লাখ বেল তুলা কম উৎপাদন হতে পারে। এটি হলে গত ১০ বছরের মধ্যে উৎপাদন হবে সবচেয়ে কম। সর্বশেষ ২০০৯ সালে উৎপাদন হয়েছিল ৩০৫ লাখ বেল।
তিনি বলেন, ‘চলতি বছর ১২৩ লাখ হেক্টর জমিতে তুলা চাষ হয়েছে। কিন্তু পর্যাপ্ত বৃষ্টিপাতের অভাবে উৎপাদন কমবে। গত সেপ্টেম্বর ও অক্টোবরে খরা ছিল। গুজরাট, কর্ণাটক, তেলেঙ্গানা ও মহারাষ্ট্র রাজ্যে উৎপাদনের জন্য বৃষ্টিপাতের তুলনায় ২৮ শতাংশ কম বৃষ্টিপাত ছিল।
উৎপাদন কমায় ভারতে তুলার আমদানি আগের বছরের তুলনায় ৮০ শতাংশ বেড়ে যেতে পারে বলে মনে করছেন বিশ্লেষকরা। বিশ্বের শীর্ষ তুলা উৎপাদনকারী দেশে ভারতে আমদানি বেড়ে যাওয়ায় বিশ্ববাজারে পণ্যটির দাম বাড়বে। ভারতে উৎপাদন কম হওয়ায় প্রতদ্বন্দ্বী যুক্তরাষ্ট্র, ব্রাজিল ও অস্ট্রেলিয়া থেকে এশিয়ার দেশ চীন, বাংলাদেশ ও পাকিস্তান তুলা আমদানি করতে পারে।
অতুল গনত্র এর আগে জানিয়েছিলেন, ‘ভারতে তুলার উৎপাদন স্থানীয় বাজারের চাহিদা মেটাতে যথেষ্ট নয়। আগামী মার্চ থেকে পণ্যটির আমদানি বাড়তে পারে। আগামী ৩০ সেপ্টেম্বর শেষ হওয়া ২০১৮-১৯ বিপণন বর্ষে দেশটি ২৭ লাখ বেল তুলা আমদানি করতে পারে। আগের বর্ষের ১৫ লাখ বেলসের তুলনায় অনেক বেশি।
সিএআই জানিয়েছে, চলতি মৌসুমে ভারতে সব মিলিয়ে তিন কোটি ৩৫ লাখ বেল তুলা উৎপাদন হতে পারে, যা ২০১০-১১ মৌসুমের পর থেকে সর্বনিম্ন উৎপাদন। ২০১৭-১৮ বিপণন মৌসুমে দেশটিতে তিন কোটি ৬৫ লাখ বেল তুলা উৎপাদন হয়েছিল। সে হিসাবে প্রতিকূল আবহাওয়ার জের ধরে এক বছরের ব্যবধানে দেশটিতে পণ্যটির উৎপাদন কমতে পারে ৩০ লাখ বেল।