টেলকো টেক

অনলাইনে খুঁজুন মনের মতো প্রপার্টি

২০০৮ সালে শুরু হওয়া বিশ্ব আবাসন সংকট এখনও প্রধান একটি সমস্যা। ওয়ার্ল্ড ইকোনমিক ফোরামের রিপোর্ট ‘মেকিং অ্যাফোর্ডেবল হাউজিং আ রিয়েলিটি ইন সিটিজ’ অনুযায়ী, বিশ্বে শহুরে জনসংখ্যার ৩০ শতাংশের বেশি, প্রায় দুই দশমিক পাঁচ বিলিয়ন মানুষ ২০৫০ সালের মধ্যে নিম্নমানের আবাসনে বসবাস করবে অথবা অর্থনৈতিকভাবে উন্নত হবে। আবাসন সংকট সব মানুষের জীবনযাত্রাকে প্রভাবিত করে এবং এর মানও ব্যাপকভাবে হ্রাস করে। আধুনিক বিশ্বের সঙ্গে তাল মিলিয়ে আমাদের রাজধানীও একই গতিতে সামনের দিকে এগিয়ে যাচ্ছে। এমন পরিস্থিতিতে সাশ্রয়ী দামে মনের মতো বাসস্থান পাওয়া কঠিন হয়ে পড়ছে। ফলে অনেকে এখন ছোট বাসা খুঁজছেন।

চাহিদা ও সরবরাহের মিথস্ক্রিয়া ছাড়াও আবাসনের পেছনে কিছু সামাজিক-অর্থনৈতিক কারণও রয়েছে। সবচেয়ে গুরুত্বপূর্ণ কারণটি হলো পারিবারিক কাঠামোতে পরিবর্তন। অতীতে যৌথ পরিবারই ছিল স্বাভাবিক। কিন্তু গত দুই দশক ধরে বাবা-মা ও এক বা দুই সন্তান নিয়ে গঠিত একক পরিবারই বেশি দেখা যাচ্ছে। এ ধরনের পরিবারগুলো দুই বা তিন কক্ষের অ্যাপার্টমেন্টে থাকাকেই বেশি সুবিধাজনক মনে করে।

রাজধানীসহ দেশের বিভিন্ন শহরের অনেকে তাদের বাড়ি ভাড়া দিয়ে থাকেন। কথা হচ্ছে, এখন তারা কীভাবে তাদের মনের মতো ভাড়াটিয়া খুঁজে পেতে পারেন বা ভাড়াটিয়ারা কীভাবে পছন্দমতো বাড়ির মালিক পেতে পারেন। কাক্সিক্ষত বাসা খুঁজতে ভাড়াটিয়াদের বিভিন্ন বাড়িতে যেতে হয়। বাড়ির মালিকদেরও দীর্ঘ সময় অপেক্ষা করতে হয়। এ ঝামেলা চিরস্থায়ী নয়। বলা যায়, বাড়ি ভাড়া নেওয়া এখন আর কোনো সমস্যাই নয়।

কারণ, বাংলাদেশে রিয়েল এস্টেট খাতের শীর্ষ মার্কেটপ্লেস বিপ্রপার্টি ডটকম গ্রাহককে ওয়ানস্টপ সল্যুশন দিচ্ছে। তাই এখন বাড়িতে বসে অনলাইনে সহজে গ্রাহক পছন্দমতো ভাড়াটিয়া বা বাড়ির মালিক খুঁজে নিতে পারছেন। বাংলাদেশে বিপ্রপার্টি ৩৬০ ডিগ্রি ভার্চুয়াল ট্যুরের মাধ্যমে যে কোনো জায়গায় বসে যে কোনো সময় কাক্সিক্ষত বাসা নেওয়া সম্ভব।

স্থানীয় বাজার সম্পর্কে বিপ্রার্টির ধারণা স্পষ্ট। এর অর্থ, আপনার অন্যতম গুরুত্বপূর্ণ মৌলিক চাহিদা পূরণে সচেষ্ট এ প্রতিষ্ঠানটিÑআপনার নির্ধারিত ভাড়া অনুযায়ী তারা আপনাকে বাড়ি খুঁজে দিতে পারবে। সাশ্রয়ী দামে কোন এলাকায় আপনি বাসা পেতে পারেন, সে ব্যাপারেও তারা আপনাকে নির্দেশনা দিতে পারে। সুবিধাজনক পরিবেশে বসে শুধু মোবাইল ফোনে আপনার সামর্থ্যরে মধ্যে পছন্দসই এলাকা বাছাই করে কাক্সিক্ষত বাসাটি ভাড়া নিতে পারবেন। এজন্য প্রথমে তাদের ওয়েবসাইটে লগ-ইন করতে হবে।

গ্রাহক তার পছন্দের সেবাটি নেওয়ার জন্য বিপ্রপার্টি ডটকম অ্যাপ ও বিপ্রপার্টি ডটকম ফেসবুক পেজেরও সাহায্য নিতে পারেন। প্রতিষ্ঠানটির সেবা নেওয়ার জন্য আবাসিক ও বাণিজ্যিক ভাড়াটিয়াসহ গ্রাহককে কোনো ফি পরিশোধ করতে হয় না। প্রতিষ্ঠানটি মালিক পক্ষের কাছ থেকে কমিশন নিয়ে থাকে এবং তা প্রপার্টির মালিক ও গ্রাহকের মধ্যে চুক্তি হওয়ার পর। প্রতিষ্ঠানটি কোনো সম্পত্তি বেচাকেনার পর সেই পরিমাণের তিন শতাংশ ও বাড়ি ভাড়া হলে দুই সপ্তাহের ভাড়া বাড়িওয়ালার কাছ থেকে কমিশন নিয়ে থাকে।

গ্রাহককে আবাসন খাতের যে কোনো সুবিধা দেওয়ার জন্য বিপ্রপার্টি সব সময় প্রস্তুত। আন্তর্জাতিক ও স্থানীয় দক্ষ জনবল নিয়ে প্রতিষ্ঠানটি দেশের আবাসন খাতকে ডিজিটালাইজ করা এবং আবাসিক বা বাণিজ্যিক জমি খোঁজার একটি বিশ্বস্ত উৎস হওয়ার লক্ষ্যে কাজ করছে। একক ও যৌথ পরিবারের জন্য উপযুক্ত বাসা, অ্যাপার্টমেন্ট, ভিলাসহ যে কোনো ধরনের আবাসনের ব্যাপারে তথ্য সরবরাহ করতে সক্ষম তারা।

আধুনিক এ সময়ে শহরের ব্যস্ত মানুষের মানসিক চাপ কমানোর জন্য আবাসন খাতে প্রযুক্তির ব্যবহার বেশ সহায়ক। কারণ, এটি মানুষকে তাদের ঘরের আরামদায়ক পরিবেশে বসে বিভিন্ন সম্পত্তি দেখা ও নিজেদের পছন্দের বাসাটিও নির্ধারণ করতে সহায়তা করে। এক্ষেত্রে বিপ্রপার্টি ডটকম অন্যতম।

বিপ্রপার্টি কর্তৃপক্ষ তাদের গ্রাহককে শুধু অ্যাপার্টমেন্ট ও বাণিজ্যিক জমি ভাড়া নেওয়া বা বেচাকেনায় সহায়তাই করে না, একই সঙ্গে এ বিষয়ে সঠিক সিদ্ধান্ত নিতে প্রয়োজনীয় তথ্য ও আইনি সহায়তাও দেয়।

  রাহুল সরকার

সর্বশেষ..