দিনের খবর প্রচ্ছদ শেষ পাতা

অস্থায়ী হাসপাতাল করার জন্য প্রস্তুত বসুন্ধরা কনভেনশেন সিটি

শেয়ার বিজ ডেস্ক: ৫ হাজার শয্যার অস্থায়ী হাসপাতাল করার জন্য বসুন্ধরা কনভেনশেন সিটির প্রায় আড়াইলাখ বর্গফুটের ৫টি হল ছেড়ে দিচ্ছে বসুন্ধরা গ্র“প। সরকার চাইলে সাত দিনেই এখানে অস্থায়ী হাসপাতাল তৈরি করা সম্ভব। এগুলোতে শীততাপ নিয়ন্ত্রণ ব্যবস্থা, পর্যাপ্ত টয়লেট, ২৪ ঘন্টা গ্যাস, পানি ও বিদ্যুৎ, হ্যালিপ্যাডসহ হাসপাতাল তৈরীর সব ধরনের সুবিধা আছে বলে জানান, বসুন্ধরা গ্রুপের ব্যবস্থাপনা পরিচালক, সায়েম সোবহান আনভীর।

করোনা ভাইরাসের সংক্রমণ ব্যাপকভাবে ছড়িয়ে পড়লে অনেক মানুষের চিকিৎসা সেবা দিতে প্রয়োজন হবে আরো হাসপাতালের। পরিস্থিতি বিবেচনায় বসুন্ধরা ইন্টারন্যাশনাল কনভেনশন সিটির ২ লাখ ৪০ হাজার বর্গফুট জায়গা, অস্থায়ী হাসপাতাল তৈরীর জন্য, সরকারকে ছেড়ে দিয়েছে দেশের শীর্ষ শিল্প গ্রুপ বসুন্ধরা।

আইসিসিবিতে চারটি কনভেনশন সেন্টার ও একটি ট্রেড সেন্টার আছে। যার মধ্যে সবচেয়ে বড় কনভেনশন সেন্টারটি ৩০ হাজার বর্গ ফুট, বাকি তিনটির প্রত্যেকটি ২৪ হাজার বর্গফুট। এছাড়া ট্রেড সেন্টারের আয়তন দেড় লাখ বর্গফুট। যেখানে করোনা মোকাবেলায় পৃথিবীর সব থেকে বড় হাসপাতাল তৈরী করা যাবে।

হাসপাতাল তৈরীর জন্য সব ধরণের সুবিধাই আছে বসুন্ধরার কনভেনশন সিটিতে। এই জায়গায় উন্নত যোগাযোগ ব্যবস্থা ও হ্যালিপ্যাড থাকায় রোগীদের দেশের যেকোন প্রান্ত থেকে দ্রুত আনা সম্ভব।

চীনের উহানে করোনাভাইরাস আক্রান্ত রোগীদের চিকিৎসায় তিনটি অস্থায়ী হাসপাতালে, সাড়ে ৩ হাজার শয্যার ব্যবস্থা ছিল। সেখানে আইসিসিবিতে মাত্র সাতদিনে ৫ হাজার শয্যার হাসপাতাল করা সম্ভব। এছাড়াও অবকাঠামো নির্মাণে সরকারের সময় ও অর্থ দুটোই বাঁচবে বলে জানান, গ্রুপের ব্যবস্থাপনা পরিচালক।

আইসোলেশন, ভ্যান্টিলেশন ও কোয়ারেন্টাইন সেন্টার সব একই জায়গায় করা সম্ভব বলেও জানান তিনি। এরই মধ্যে জায়গাটি পরির্দশন করেছেন স্বাস্থ্য অধিদপ্তর ও সেনাবাহিনীর ইঞ্জিনিয়ারিং কোরের কর্মকর্তারা।

প্রিন্ট করুন প্রিন্ট করুন
ট্যাগ ➧

সর্বশেষ..