বাণিজ্য সংবাদ শিল্প-বাণিজ্য

আজ শুরু বাণিজ্য মন্ত্রণালয়ের ‘বিশেষ সেবা সপ্তাহ’

নিজস্ব প্রতিবেদক: প্রধানমন্ত্রীর কার্যালয় থেকে রমজানে দ্রব্যমূল্য নিয়ন্ত্রণসহ জনসাধারণের প্রত্যাশিত সেবা নিশ্চিত ও নির্বিঘœ রাখার লক্ষ্যে সব মন্ত্রণালয়কে বিশেষ সেবা সপ্তাহ পালনের নির্দেশনা দেয়া হয়। রমজান ও ঈদুল ফিতর সামনে রেখে সরকারি দপ্তরগুলোয় ‘বিশেষ সেবা সপ্তাহ’ পালনের অংশ হিসেবে আজ থেকে আগামী ৬ মে পর্যন্ত বাণিজ্য মন্ত্রণালয় ও অধীনস্থ দপ্তরগুলোয় ‘বিশেষ সেবা সপ্তাহ’ পালন করা হবে। সেবা সপ্তাহ পালনে মন্ত্রণালয়ের আওতাধীন সব দপ্তর ও সংস্থা নিজ নিজ সেবা নিয়ে বিশেষ পরিকল্পনা বাস্তবায়ন করবে। গতকাল মন্ত্রণালয় সূত্রে এ তথ্য জানা যায়।

মন্ত্রণালয় থেকে জানানো হয়, আজ থেকে শুরু হওয়া বাণিজ্য মন্ত্রণালয়ের সেবা সপ্তাহ পালন উপলক্ষে করোনা মহামারিকালে রমজান ও ঈদুল ফিতর সামনে রেখে বাজারে অত্যাবশ্যকীয় পণ্যের সরবরাহ স্বাভাবিক রাখার স্বার্থে বাজার মনিটরিং কার্যক্রম জোরদার করা হয়েছে। নিত্যপণ্যের সরবরাহ স্বাভাবিক রাখার জন্য বন্দরগুলোসহ সব পরিবহন ও যোগাযোগ ব্যবস্থা অটুট রাখার লক্ষ্যে সমন্বয় কার্যক্রম অব্যাহত রাখা হয়েছে। 

টিসিবি ‘বিশেষ সেবাসপ্তাহ’ উপলক্ষে নিত্যপ্রয়োজনীয় দ্রব্যসামগ্রী অধিকসংখ্যক জনগণের মধ্যে বিতরণের ব্যবস্থা নেবে। ট্রেডিং করপোরেশন অব বাংলাদেশ (টিসিবি) পণ্য বরাদ্দের পরিমাণ বৃদ্ধিসহ ট্রাকসেল বিক্রয় কার্যক্রম বৃদ্ধি করবে। কভিড-১৯ বিস্তার রোধকল্পে বিনা মূল্যে মাস্ক বিতরণ এবং সেবা সপ্তাহ উল্লেখপূর্বক ট্রাকসেলে বিশেষ ব্যানার ব্যবহার করবে।

জাতীয় ভোক্তা-অধিকার সংরক্ষণ অধিদপ্তর নিত্যপ্রয়োজনীয় পণ্যের মজুত ও সরবরাহ, ন্যায্য মূল্যে ক্রয়-বিক্রয় এবং মূল্য স্থিতিশীল রাখার লক্ষ্যে স্বাস্থ্যবিধি অনুসরণ করে ঢাকা মহানগরসহ দেশব্যাপী শুক্র ও শনিবারসহ সাত দিন বাজার তদারকি কার্যক্রম জোরদার করবে এবং নিত্যপ্রয়োজনীয় পণ্যের মূল্য স্থিতিশীল রাখার লক্ষ্যে দোকানে পণ্যের মূল্যতালিকা টানানো ও প্রদর্শন করার বিষয়টি জনস্বার্থে নিশ্চিতকরণের পাশাপাশি বাজার তদারকি ও অভিযান পরিচালনাকালে সচেতনামূলক কর্মকাণ্ড জোরদার করবে। বাজার অভিযান পরিচালনাকালে হ্যান্ডমাইকের মাধ্যমে ক্রেতা ও বিক্রেতাদের মধ্যে সচেতনামূলক কার্যক্রম পরিচালনা এবং ‘মাস্ক পরিধান করুন সুস্থ থাকুন’ এ সেøাগান সামনে রেখে ভোক্তা অধিকার পথচারীর মধ্যে মাস্ক বিতরণ ও স্বাস্থ্যবিধি সম্পর্কে জনসাধারণকে সচেতন করবে।

বিশেষ সেবা সপ্তাহ উপলক্ষে রপ্তানি উন্নয়ন ব্যুরো থেকে রপ্তানিকারক প্রতিষ্ঠানের অনুকূলে রপ্তানির বিপরীতে ইস্যু করা সব সার্টিফিকেট অব অরিজিন (সিও), জিএসপি, সাপটা, সাফটা, আপটা আবেদনের তারিখের মধ্যে সেবা প্রদানের জন্য হেল্প ডেস্ক স্থাপন করা হবে। এছাড়া রপ্তানিবিষয়ক যে কোনো পরামর্শ প্রদানের জন্য ‘পরামর্শ ডেস্ক’ স্থাপন করা হবে।

যৌথ মূলধনি কোম্পানি ও ফার্মসমূহের পরিদপ্তর সিংগেল প্রসেস প্রক্রিয়ায় কোম্পানি নিবন্ধন সেবাগ্রহীতাদের অনলাইনে আবেদন পূরণে সহায়তা করবে এবং দুই দিনের মধ্যে মর্টগেজ নিবন্ধন (অনলাইন) কাজ সম্পন্ন ও স্বয়ংক্রিয়ভাবে ইমেইলে সার্টিফিকেট প্রদান করবে। শেয়ার ট্রান্সফার-সংক্রান্ত পেন্ডিং রিটার্ন রেকর্ডভুক্তকরণে ক্র্যাশ কর্মসূচি গ্রহণ এবং দীর্ঘ দিনের পেন্ডিং রিটার্ন নিষ্পত্তিকরণের জন্য ক্র্যাশ প্রোগ্রাম গ্রহণ করবে, ভিডিও পোর্টাল উম্মুক্ত করবে এবং ওয়ান স্টপ সার্ভিসের মাধ্যমে সার্টিফাইড কপি প্রদান করবে।

বাংলাদেশ চা বোর্ড চলতি মৌসুমে দেশে চায়ের উৎপাদন স্বাভাবিক রাখার জন্য দেশের সব চা বাগানে ভর্তুকি মূল্যে সার বিতরণে সহায়তাদান কার্যক্রম এবং অন-লাইন চা রপ্তানি লাইসেন্স প্রদান অব্যাহত রাখবে। ২০২১-২২ নিলামবর্ষের নিলাম কার্যক্রম চট্টগ্রাম ও শ্রীমঙ্গলে আগামী ৩ মে শুরু হবে এবং ‘দুটি পাতা একটি কুড়ি’ এবং ‘চা সেবা’ অ্যাপস দুটির মাধ্যমে গ্রাহক পর্যায় চা তথ্য ও প্রযুক্তিবিষয়ক সেবা প্রদান অব্যাহত রাখবে। চলতি মৌসুমে দেশে চায়ের উৎপাদন স্বাভাবিক রাখার জন্য চা বাগানের মৃত্তিকা পরীক্ষা, চায়ের নমুনা পরীক্ষা এবং পেস্টিসাইড পর্যালোচনা করে চা উৎপাদন-সংশ্লিষ্টদের উপদেশ প্রদান অব্যাহত রাখবে এবং চায়ের উৎপাদন স্বাভাবিক রাখার জন্য চা বাগানগুলোয় স্বাস্থবিধি মেনে চা উৎপাদন কার্যক্রম অব্যাহত রাখা হবে।

প্রিন্ট করুন প্রিন্ট করুন

সর্বশেষ..