আফগান ব্যাংকিং ব্যবস্থা পতনের দ্বারপ্রান্তে: জাতিসংঘ

শেয়ার বিজ ডেস্ক: যুদ্ধবিধ্বস্ত আফগানিস্তানে অর্থনৈতিক সংকটের ব্যাপারে আবারও হুশিয়ারি উচ্চারণ করেছে জাতিসংঘ। সংস্থাটি বলছে, দেশটির অর্থনৈতিক ও ব্যাংকিং ব্যবস্থা পতনের দ্বারপ্রান্তে রয়েছে। তাই মানবিক ও আর্থিক নিরাপত্তার স্বার্থে আফগান ব্যাংকগুলোকে রক্ষায় জরুরি পদক্ষেপ নিতে হবে। জরুরি পদক্ষেপ ছাড়া কয়েক মাসের মধ্যে আফগান ব্যাংকিং ব্যবস্থা ভেঙে পড়তে পারে বলেও সতর্কতা উচ্চারণ করা হয়েছে। খবর: রয়টার্স।

জাতিসংঘের মহাসচিব অ্যান্তেনিও গুতেরেসের মুখপাত্র স্টিফেন ডুজারিক স্থানীয় সময় সোমবার নিউইয়র্কে বলেন, আফগানিস্তানের ক্রেডিট মার্কেটে অনাদায়ী ঋণের পরিমাণ বহুগুণে বেড়েছে। দেশটিতে অনাদায়ী ঋণের পরিমাণ ২০২০ সালে যেখানে ছিল শতকরা ২০ ভাগ, সেটি চলতি বছরে ৫৭ শতাংশে এসে দাঁড়িয়েছে বলে জানিয়েছে ইউএনডিপি।

ডুজারিক জানান, ইউএনডিপির প্রতিবেদন অনুযায়ী, আফগানিস্তানের ব্যাংকগুলো থেকে গ্রাহকরা তাদের পুঁজি তুলে ফেলছেন, যা অব্যাহত থাকলে চলতি বছরের শেষ নাগাদ ব্যাংকে জনগণের গচ্ছিত অর্থ শতকরা ৪০ ভাগ কমে যাবে।

জাতিসংঘ মহাসচিবের এ মুখপাত্র আরও বলেন, এখন পর্যন্ত আফগানিস্তানের জন্য সাহায্যের আবেদনে যে সাড়া পাওয়া গেছে তাতে ৬০ কোটি ৬০ লাখ ডলারের তহবিল সংগৃহীত হয়েছে এবং এ অর্থ দিয়ে আফগানিস্তানের এক কোটি ১০ লাখ মানুষকে সেবার আওতায় আনা সম্ভব হবে।

তিন কোটি ডলার সহায়তা দেবে পাকিস্তান: এদিকে আফগানিস্তানকে দুই কোটি ৮০ লাখ ডলারের মানবিক সহায়তা দেয়ার ঘোষণা দিয়েছেন পাকিস্তানের প্রধানমন্ত্রী ইমরান খান। দেশটিকে চিকিৎসা, খাদ্য ও অন্যান্য মানবিক চাহিদা মেটানোর জন্য এ অর্থ দিচ্ছে পাকিস্তান। তাছাড়া পাকিস্তানের মধ্য দিয়ে ভারতীয় খাদ্য সহায়তা আফগানিস্তানে পরিবহনেরও অনুমোদন দিয়েছে ইমরান খানের সরকার। খবর: আল জাজিরা।

ইমরান খান সোমবার পাকিস্তানের রাজধানী ইসলামাবাদে দেশটির সেনাপ্রধান জেনারেল কামার জাভেদ বাজওয়া, পররাষ্ট্রমন্ত্রী, অর্থমন্ত্রী ও জাতীয় নিরাপত্তা উপদেষ্টাসহ শীর্ষ সরকারি কর্মকর্তাদের সঙ্গে বৈঠক করেন। বৈঠকে ইমরান খান আফগানিস্তানে পাঁচ বিলিয়ন পাকিস্তানি রুপি অর্থাৎ দুই কোটি ৮০ লাখ ডলারের মানবিক সহায়তা পাঠানোর নির্দেশ দেন। এসব সহায়তার মধ্যে ৫০ হাজার টন গম, জরুরি চিকিৎসা সরঞ্জাম সরবরাহ, শীত নিবারণসামগ্রী ও অন্যান্য সহায়তা রয়েছে। ইমরান খানের সঙ্গে দেশটির উচ্চপর্যায়ের কর্মকর্তাদের বৈঠক শেষে এক বিবৃতিতে এ তথ্য জানানো হয়।

বিবৃতিতে বলা হয়, পাকিস্তান সরকার আফগানিস্তানে পণ্য রপ্তানির ওপর শুল্ক কমিয়ে দেয়ারও সিদ্ধান্ত নিয়েছে।

প্রিন্ট করুন প্রিন্ট করুন   ❑ পড়েছেন  ৯২  জন  

সর্বশেষ..