সারা বাংলা

আলুর ফলন বাড়াতে মাঠ দিবস

প্রতিনিধি, জয়পুরহাট: আলুর ফলন বাড়ানোর লক্ষ্যে জয়পুরহাটের ক্ষেতলাল উপজেলায় প্রায় ৬০০ কৃষককে নিয়ে মাঠ দিবস উদ্যাপিত হয়েছে। গতকাল বুধবার উপজেলার চৌমুহনী ফসলের মাঠে এ দিবসের আয়োজন করে ব্র্যাক সিড অ্যান্ড অ্যাগ্রো লিমিটেডের স্থানীয় ডিলার শাহজামান তালুকদার। আবহাওয়া অনুকূলে থাকায় এবার ব্র্যাকের আলু বীজে বাম্পার ফলন হয়েছে।

ফলন ভালো হওয়ায় এবার মৌসুমের শুরু থেকে ব্র্যাকের আলু বীজ সরবরাহে হিমশিম খেয়েছেন স্থানীয় বীজ ডিলাররা। টাকা দিয়েও বীজ সংগ্রহে গলদঘর্ম হন কৃষকরা। এ বীজ রোপণ করে কৃষকরা এবারও প্রতি বিঘায় আলু উৎপাদন করেছে ১২০ থেকে ১৪০ মণ। ভবিষ্যতে আলু চাষ করে কৃষকরা যেন আরও লাভবান হতে পারে সে জন্য বীজ সংগ্রহ রোপণ ও পরিচর্যার নানা কৌশল তুলে ধরা হয় মাঠ দিবসের কর্মসূচিতে। এ সময় কৃষকদের সামনে ব্র্যাকের নতুন উন্নত জাতের আলু বীজ লাল পাকরি ও চল্লিশা প্রদর্শন করা হয়।

পরে কৃষকদের বীজ সংগ্রহ ও আলু চাষ নিয়ে আলোচনা সভায় বক্তব্য দেন ব্র্যাক সিড অ্যান্ড অ্যাগ্রোর উপমহাব্যবস্থাপক তাজুল ইসলাম, জেলা কৃষি সম্প্রসারণ বিভাগের অতিরিক্ত উপপরিচালক (শষ্য) একেএম মফিদুল ইসলাম, কৃষিবিদ এমএ মনছুর লিওন, ড. শীতেষ চন্দ্র বিশ্বাস, উপজেলা কৃষি কর্মকর্তা জাহিদুর রহমান, বীজ ডিলার শাহজামাল তালুকদার, গোলাম রব্বানী চৌধুরী প্রমুখ।

বক্তারা বলেন, দেশের মানুষের উন্নতি তথা উৎপাদন বাড়ানোর লক্ষ্যে কোয়ালিটি মেইনটেইন করে ব্র্যাকের আলু বীজ বাজারজাত করা হয়। ব্র্যাকের আলু বীজে কৃষকরা কখনও প্রতারিত হয়নি। বরং উৎপাদন বেশি হয়েছে।

জেলায় আগামী আলু মৌসুমে ব্র্যাকের বীজ সংগ্রহে কৃষকদের যেন হয়রানি না হয় সে বিষয়ে সুস্পষ্ট ঘোষণা দেয়া হয় মাঠ দিবসের ওই অনুষ্ঠানে।

প্রিন্ট করুন প্রিন্ট করুন

সর্বশেষ..