বিশ্ব বাণিজ্য

ইয়েস ব্যাংক সংকটে ভারতের পুঁজিবাজারে পতন

শেয়ার বিজ ডেস্ক : ভারতে ইয়েস ব্যাংকের সংকট প্রভাব ফেলছে অর্থনীতিতে, যার প্রভাবেই দেশটির পুঁজিবাজারে ধস নেমেছে বলে দাবি বিশেষজ্ঞদের। গতকাল সোমবারও দেশটির প্রধান পুঁজিবাজার সূচক সেনসেক্স পড়েছে পাঁচ শতাংশের বেশি। কেন্দ্রীয় ব্যাংক ও সরকারের সিদ্ধান্ত ঘিরে প্রশ্ন উঠতে শুরু করেছে। শুরু হয়েছে রাজনৈতিক দোষারোপের পালা। খবর: পিটিআই ও এএনআই।

ইয়েস ব্যাংকের ঋণখেলাপির সংখ্যা এত বেড়ে গিয়েছিল যে তা ব্যাপক লোকসানে চলে যায়। সংকটাপন্ন হয়ে যখন ডুবে যাওয়ার মুখে, তখন রিজার্ভ ব্যাংক হস্তক্ষেপ করে। তারা স্টেট ব্যাংককে বলে ৪৯ শতাংশ শেয়ার কিনে নিতে। স্টেট ব্যাংকের নেতৃত্বে কয়েকটি ব্যাংক মিলে এখন বিনিয়োগকারীর খোঁজ করছে। তাদের হিসাব ২০ হাজার কোটি রুপি পেলে ব্যাংকটি চালানো যাবে।

এদিকে ইয়েস ব্যাংকের প্রধান রানা কাপুরকে গ্রেফতার করা হয়েছে। অর্থমন্ত্রী নির্মলা সীতারামন আশ্বস্ত করেছেন যে, বিনিয়োগকারীদের অর্থ মার যাবে না, কিন্তু সব মিলিয়ে ব্যাংকের আমানতকারীদের মধ্যে অনিশ্চয়তা ও আতঙ্ক দেখা দিয়েছে।

ইয়েস ব্যাংকের এ অবস্থা, তাতে সরকারের ভূমিকা এবং রিজার্ভ ব্যাংকের মনোভাব নিয়ে প্রশ্ন উঠছে। নিউ ইন্ডিয়ান এক্সপ্রেসের বিজনেস এডিটর জয়ন্ত রায়চৌধুরী বলেছেন, ‘রিজার্ভ ব্যাংক ২০১৭ থেকে জানত, ইয়েস ব্যাংকে সবকিছু ঠিক চলছে না। তারা প্রচুর উচ্চ ঝুঁকিসম্পন্ন ঋণ দিয়েছে। অনেক কোম্পানি ঋণ পরিশোধ করছে না। তারপর দুই বছর তারা কেন চোখ বন্ধ করে বসে রইল? এখন ব্যাংক যখন ডুবে যেতে বসেছে, তখন তারা স্টেট ব্যাংককে ৪৯ শতাংশ শেয়ার কিনতে বলল। অন্য দেশে কী হয়, সরকারি তহবিল থেকে এ ধরনের প্রতিষ্ঠান বাঁচাতে অর্থ দেওয়া হয়। কিন্তু ভারতে ব্যাংকের আমানতকারীদের অর্থে ইয়েস ব্যাংককে বাঁচানোর চেষ্টা করা হচ্ছে। এতে স্টেট ব্যাংকের ওপর চাপ বাড়বে।’

প্রিন্ট করুন প্রিন্ট করুন

সর্বশেষ..