প্রচ্ছদ প্রথম পাতা

ঋণ পরিশোধের ব্যর্থতায় এবার মামলা করল যমুনা ব্যাংক

সানোয়ারা ডেইরি ফুডস

সাইফুল আলম, চট্টগ্রাম: খেলাপি পাওনা আদায়ে ১৭ সেপ্টেম্বর চট্টগ্রাম অর্থঋণ আদালতে সানোয়ারা ডেইরি ফুডসের বিপরীতে মামলা করেছে যমুনা ব্যাংক। প্রতিষ্ঠানের কাছে যমুনা ব্যাংক খাতুনগঞ্জ শাখার খেলাপি পাওনা প্রায় ৭৫ কোটি টাকা। দুই মাস আগে ব্যাংক কর্তৃপক্ষ এ পাওনা আদায়ে বন্ধকিতে থাকা ২৬ ডিসিমেল সম্পত্তি নিলামে বিক্রির চেষ্টা করে ব্যর্থ হয়। এর পরিপ্রেক্ষিতে মামলাটি করা হয়েছে।
যমুনা ব্যাংক সূত্রে জানা যায়, চট্টগ্রাম মহানগর আওয়ামী লীগ নেতা ও সাবেক প্রবাসী কল্যাণ ও বৈদেশিক কর্মসংস্থানমন্ত্রী নূরুল ইসলাম বিএসসির পারিবারিক মালিকানাধীন সানোয়ারা গ্রুপ অব কোম্পানিজ। চট্টগ্রামভিত্তিক এ গ্রুপের একাধিক সহযোগী প্রতিষ্ঠান বিভিন্ন বাণিজ্যিক ব্যাংকে খেলাপি গ্রাহক। এর মধ্যে তিন মাস আগে সানোয়ারা ডেইরি ফুডস লিমিটেড যমুনা ব্যাংকে খেলাপি হয়ে পড়ে। এ প্রতিষ্ঠানের কাছে যমুনা ব্যাংক খাতুনগঞ্জ শাখার পাওনা প্রায় ৭৪ কোটি ৯৭ লাখ ৩৯ হাজার টাকা। আর পাওনা আদায়ে গ্রুপটির কর্ণধারদের সঙ্গে ব্যাংকের দায়িত্বপ্রাপ্ত কর্মকর্তারা একাধিকবার যোগাযোগ করলেও তারা পাওনা পরিশোধে আগ্রহী হননি। ফলে চলতি মাসের ১৭ সেপ্টেম্বর চট্টগ্রাম অর্থঋণ আদালতে খেলাপি পাওনা আদায়ে সানোয়ারা ডেইরি ফুডসের বিপরীতে মামলা করে যমুনা ব্যাংক।
এর আগে গত ৭ আগস্ট বন্ধকে থাকা সাবেক নূরুল ইসলাম বিএসসির মালিকানাধীন হাটহাজারীর চিকনদণ্ডী এলাকার ২৬ শতক সম্পত্তি নিলামে বিক্রির চেষ্টা করে ব্যাংক। তবে এতে আগ্রহী ক্রেতা না পাওয়ায় ব্যর্থ হয় ব্যাংকটির নিলাম কার্যক্রম। এ বিষয়ে গত ১৫ জুলাই শেয়ার বিজে একটি প্রতিবেদন প্রকাশিত হয়।
অপরদিকে একই প্রতিষ্ঠানের বিরুদ্ধে ব্যাংক এশিয়া আগ্রাবাদ শাখা গত ১০ জুলাই চট্টগ্রামে অর্থঋণ আদালতে মামলা করে। মামলা নং ১৭৮। এতে আসামি করা হয় প্রতিষ্ঠানটির চেয়ারম্যান সানোয়ারা বেগম, ব্যবস্থাপনা পরিচালক মুজিবুর রহমান, সাইফুল ইসলাম, জাহেদুল ইসলাম, ওয়াহিদুল ইসলাম, কামরুল ইসলাম ও নূরুল ইসলাম বিএসসিকে। মামলাটি চলমান আছে।
অর্থঋণ আদালতের তথ্যমতে, গত ১৭ সেপ্টেম্বর চট্টগ্রাম অর্থঋণ আদালতে সানোয়ারা ডেইরি ফুডসের বিপরীতে মামলা করে যমুনা ব্যাংক। মামলা নং ৩৪৩। এ মামলায় আসামি করা হয়েছে প্রতিষ্ঠানটির চেয়ারম্যান সানোয়ারা বেগম, ব্যবস্থাপনা পরিচালক মুজিবুর রহমান ও সাইফুল ইসলামকে।
সানোয়ারা ফুডসের খেলাপি বিষয়ে যমুনা ব্যাংক লিমিটেডের এসভিপি ও খাতুনগঞ্জ শাখার ব্যবস্থাপক মো. সহিদ উল্লাহ শেয়ার বিজকে বলেন, সাম্প্রতিক সময়ে প্রতিষ্ঠানটি নিয়মিত ঋণ পরিশোধে ব্যর্থতায় খেলাপি হয়ে পড়ে। আর পাওনা আদায়ে বন্ধকি সম্পত্তি নিলামে বিক্রির চেষ্টা করা হয়। এতে আগ্রহী ক্রেতা পাওয়া যায়নি। তাই নিয়মানুসারে মামলা করা হয়। এছাড়া চেক প্রত্যাখ্যানের জন্য এনআই অ্যাক্টে মামলা চলমান আছে।
এ প্রসঙ্গে জানার জন্য সানোয়ারা গ্রুপের ব্যবস্থাপনা পরিচালক মো. জাহেদুল ইসলামের মোবাইল ফোনে যোগাযোগ করা হলে তিনি বলেন, ‘এটা আমার ও ব্যাংকের বিষয়।’ পরে সংযোগ বিচ্ছিন্ন করে দেন তিনি।
উল্লেখ্য, ১৯৭৮ সালে সানোয়ারা গ্রুপের যাত্রা শুরু দুগ্ধজাত পণ্য বিপণনের মধ্য দিয়ে। ব্যবসা ভালো ও লাভজনক হওয়ায় পর্যায়ক্রমে সানোয়ারা ডেইরি ফুডস লিমিটেড, সানোয়ারা ড্রিংকস অ্যান্ড বেভারেজ ইন্ডাস্ট্রিজ লিমিটেড, ইউনিল্যাক সানোয়ারা (বিডি) লিমিটেড, সানোয়ারা কনজুমার প্রডাক্টস লিমিটেড, সানোয়ারা গার্মেন্টস লিমিটেড, সানোয়ারা ইন্টারন্যাশনাল প্রোডাক্টস লিমিটেড, সানোয়ারা প্লাস্টিক প্রোডাক্টস লিমিটেড, সানোয়ারা প্যাকেজিং ইন্ডাস্ট্রিজ লিমিটেড, সানোয়ারা পোলট্রি অ্যান্ড হ্যাচারি লিমিটেড, সানোয়ারা হোল্ডিংস লিমিটেডের মতো প্রতিষ্ঠানের সমন্বয়ে সানোয়ারা গ্রুপ অব কোম্পানিজ গড়ে ওঠে।

সর্বশেষ..