খবর

এপ্রিল ও মে মাসের সঞ্চয় জমায় বিলম্ব ফি মওকুফ

নিজস্ব প্রতিবেদক: সরকারি সাধারণ ছুটি ও লকডাউনের কারণে অনেকেই ব্যাংকে থাকা সঞ্চয়ী হিসাবে মাসিক আমানত জমা দিতে পারেননি। এজন্য বিলম্ব ফি দিতে হয় গ্রাহকদের। এই বিলম্ব ফি মওকুফ করল বাংলাদেশ ব্যাংক।

কোনো ব্যাংক বিলম্ব ফি নিলে তা গ্রাহককে ফেরত দিতে হবে গতকাল এমন নির্দেশনা দেওয়া হয়েছে ব্যাংকগুলোকে। করোনাভাইরাস (কভিড-১৯) বিস্তার রোধে ২৬ মার্চ থেকে ৩০ মে পর্যন্ত সাধারণ ছুটি ঘোষণা করে সরকার। এ সময় অনেক আমানতকারী তাদের ডিপোজিট পেনশন স্কিম (ডিপিএস) ও বিভিন্ন সঞ্চয়ী স্কিমের কিস্তি পরিশোধ করতে পারেননি।

এজন্য গত এপ্রিল ও মে মাসের আমানতের কিস্তি জমা প্রদান করার ক্ষেত্রে কোনো ধরনের বিলম্ব ফি বা অতিরিক্ত অর্থ আদায় না করার নির্দেশনা দিয়েছে কেন্দ্রীয় ব্যাংক। তবে এক্ষেত্রে অবশ্যই আমানতকারীদের চলতি জুনের ২০ তারিখের মধ্যে এপ্রিল ও মে মাসের নির্ধারিত কিস্তি জমা করতে হবে।

বাংলাদেশ ব্যাংকের প্রজ্ঞাপনে বলা হয়, করোনাভাইরাসের বিস্তার ও সংক্রমণ রোধে সরকার ২৬ মার্চ থেকে ৩০ মে পর্যন্ত সাধারণ ছুটি ঘোষণা করে। সরকার কর্তৃক ঘোষিত সাধারণ ছুটি চলাকালে গণপরিবহনে চলাচল বন্ধ এবং জরুরি প্রয়োজন ছাড়া জনসাধারণের বাইরে যাওয়ার ক্ষেত্রে নিষেধাজ্ঞা থাকায় অনেক আমানতকারীর পক্ষেই তাদের ডিপোজিট পেনশন স্কিম ব্যাংকে জমা করা সম্ভব হয়নি।

প্রিন্ট করুন প্রিন্ট করুন

সর্বশেষ..