বাণিজ্য সংবাদ শিল্প-বাণিজ্য

এসডিজি অর্জনে শিল্পায়নের বিকল্প নেই: শিল্পমন্ত্রী

নিজস্ব প্রতিবেদক: শিল্পমন্ত্রী নূরুল মজিদ মাহমুদ হুমায়ূন বলেন, এজেন্ডা ২০৩০ (এসডিজি) লক্ষ্যমাত্রা অর্জন করতে তৃণমূল থেকে জাতীয় পর্যায়ে শিল্পায়নের কোনো বিকল্প নেই। ক্ষুদ্র ও কুটির শিল্পের উন্নয়ন কার্যক্রম পরিচালনার মাধ্যমেই দেশে টেকসই শিল্প ও শিল্পায়ন সম্প্রসারণ সম্ভব। এ লক্ষ্যে বাংলাদেশ ক্ষুদ্র ও কুটির শিল্প করপোরেশনের (বিসিক) কার্যক্রমকে আরও গতিশীল করতে হবে। গতকাল

ক্ষুদ্র ও কুটির শিল্প প্রশিক্ষণ ইনস্টিটিউট (স্কিটি) ফাউন্ডেশন কোর্সের সমাপনী ভার্চুয়াল অনুষ্ঠানে শিল্পমন্ত্রী এসব কথা বলেন।

বিসিকের পরিচালক (প্রকৌশল ও প্রকল্প বাস্তবায়ন) মুহাম্মদ আতাউর রহমান সিদ্দিকীর সভাপতিত্বে এ অনুষ্ঠান আয়োজন করা হয়। এতে বিশেষ অতিথি ছিলেন বিসিকের চেয়ারম্যান মোশতাক হাসান। অনুষ্ঠানে স্বাগত বক্তব্য রাখেন স্কিটির অধ্যক্ষ প্রকৌশলী মো. শফিকুল আলম।

শিল্পমন্ত্রী বলেন, দেশের শিক্ষিত বেকার নারী ও পুরুষদের ক্ষুদ্র ও মাঝারি শিল্পে কাজে লাগিয়ে প্রধানমন্ত্রী রূপকল্প ২০৪১ সালের মধ্যে উন্নত শিল্প সমৃদ্ধ বাংলাদেশ গঠনে বিসিক স্বল্প, মধ্য ও দীর্ঘমেয়াদি মহাপরিকল্পনা হাতে নিয়েছে।

প্রশিক্ষণ কোর্সের ওপর গুরুত্বারোপ করে তিনি বলেন, দেশের পরিবেশবান্ধব শিল্পায়ন, দরিদ্র বিমোচন ও কর্মসংস্থান সৃষ্টিতে এই তরুণ কর্মকর্তারা প্রশিক্ষিত হয়ে জাতির পিতার স্বপ্ন পূরণে অগ্রণী ভ‚মিকা পালন করবে।

তিনি আরও বলেন, বিসিকের কর্মকর্তাদের এ ফাউন্ডেশন কোর্স তাদের কর্মদক্ষতাকে উৎকর্ষ সাধনে কার্যকর ভ‚মিকা রাখবে। ফাউন্ডেশন কোর্সের সফলভাবে সমাপ্তকারী কর্মকর্তাদের অংশগ্রহণে বিসিকের চলমান কার্যক্রম পরিচালনা আরও বেগবান ও গতিশীল হবে বলে তিনি মন্তব্য করেন।

বিশেষ অতিথির বক্তব্যে মোশতাক হাসান বলেন, প্রধানমন্ত্রী ঘোষিত শিল্পোন্নত বাংলাদেশ বিনির্মাণে বিসিক কর্মকর্তা-কর্মচারীদের অগ্রণী ভ‚মিকা রাখতে হবে। বিসিকের শিল্পায়নই পারে ক্ষুধা ও দারিদ্র্যমুক্ত উন্নত বাংলাদেশ গড়তে।

উল্লেখ্য, ক্ষুদ্র ও কুটির শিল্প প্রশিক্ষণ ইনস্টিটিউটে ২১ দিনব্যাপী ফাউন্ডেশন কোর্সে ২৫ জন কর্মকর্তা অংশগ্রহণ করেন।

প্রিন্ট করুন প্রিন্ট করুন

সর্বশেষ..