প্রিন্ট করুন প্রিন্ট করুন

ওয়ার্ল্ড ট্রেড সেন্টারে ৪র্থ চট্টগ্রাম আইটি ফেয়ার-২০২৩ এর সমাপনী অনুষ্ঠিত

শেয়ার বিজ ডেস্ক : দি চিটাগাং চেম্বার অব কমার্স এন্ড ইন্ডাষ্ট্রি ও সোসাইটি অব চিটাগাং আইটি প্রফেশনালস (এসসিআইটিপি)’র যৌথ আয়োজনে ৩ (তিন) দিনব্যাপী ৪র্থ চট্টগ্রাম আইটি ফেয়ার-২০২৩ এর সমাপনী অনুষ্ঠান ২৩ জানুয়ারি ওয়ার্ল্ড ট্রেড সেন্টারে অনুষ্ঠিত হয়। চেম্বার সভাপতি মাহবুবুল আলম’র সভাপতিত্বে বিশেষ অতিথি চট্টগ্রামস্থ সহকারী হাইকমিশনার ড. রাজীব রঞ্জন, চেম্বার সহ-সভাপতি সৈয়দ মোহাম্মদ তানভীর, সোসাইটি অব আইটি প্রফেশনালস’র মহাসচিব মোঃ সাইফুল ইসলাম মাহিন ও এ্যারোডেক’র ম্যানেজিং কনসালট্যান্ট সুব্রত শাহা বক্তব্য রাখেন। এ সময় চেম্বার পরিচালকবৃন্দ মোঃ অহীদ সিরাজ চৌধুরী (স্বপন), অঞ্জন শেখর দাশ ও তানভীর মোস্তফা চৌধুরী এবং প্রাক্তন পরিচালক মাহফুজুল হক শাহ উপস্থিত ছিলেন।

চেম্বার সভাপতি মাহবুবুল আলম বলেন-প্রযুক্তির সঠিক ব্যবহার ও প্রযুক্তি নির্ভর জ্ঞান অর্জনের এখনই উপযুক্ত সময়। যুগের সাথে তাল মিলিয়ে চট্টগ্রাম একটি আইটি ইকনোমিক হাবে পরিণত হচ্ছে। তিনি আরো বলেন-বাস্তবায়িত ডিজিটাল বাংলাদেশকে স্মার্ট বাংলাদেশে পরিণত করতে হলে স্মার্ট মানবসম্পদ গড়ে তুলতে হবে। এজন্য ব্যবসা প্রতিষ্ঠানসহ সবকিছু অটোমেশনের আওতায় আনতে হবে। দক্ষ মানবসম্পদ গড়ে তুলতে হলে আইটি সেক্টরের কোন বিকল্প নেই বলে তিনি মন্তব্য করেন।

বিশেষ অতিথি ড. রাজীব রঞ্জন বলেন-বাংলাদেশ-ভারত সম্পর্কের মূল ভিত্তি হচ্ছে পারস্পরিক শ্রদ্ধা ও সমঝোতার। বঙ্গবন্ধুর স্বপ্নের সোনার বাংলাদেশ প্রধানমন্ত্রীর নেতৃত্বে ডিজিটাল বাংলাদেশে পরিণত হয়েছে। ভারত আইটি সেক্টরে অনন্য ভূমিকা রেখে চলেছে। এক্ষেত্রে বাংলাদেশ-ভারতের আইটি সহায়তা কাজে লাগিয়ে এ সেক্টরে দক্ষতা আরো বাড়াতে পারে।

চেম্বার সহ-সভাপতি সৈয়দ মোহাম্মদ তানভীর বলেন-বাংলাদেশ স্বল্প আয়ের দেশ থেকে মধ্যম আয়ের দেশে উন্নীত হয়েছে। আগামী ২০৪১ সালের মধ্যে উন্নত দেশে রূপান্তরিত হবে। এজন্য জ্ঞানভিত্তিক প্রযুক্তি নির্ভর দক্ষ জনশক্তি প্রয়োজন। দেশে উন্নয়ন সহযোগী হিসেবে চিটাগাং চেম্বার আগামীতে আরো বৃহৎ পরিসরে এ ধরণের মেলা আয়োজন করবে। অনুষ্ঠান শেষে প্লাটিনাম স্পন্সর এফ-ফাইভ, গোল্ড স্পন্সর বেনকিউ, সিলভার স্পন্সর এ্যারোডেক, ভেলোসিটি ও সফোজ, টেকনোলজি পার্টনার লিংথ থ্রি-সহ সকল অংশগ্রহনকারী প্রতিষ্ঠানের মাঝে সম্মাননা ক্রেস্ট প্রদান করা হয়।