প্রিন্ট করুন প্রিন্ট করুন

কসোভোকে স্বীকৃতি দেবে বাংলাদেশ

নিজস্ব প্রতিবেদক: রিপাবলিক অব কসোভো নামের ইউরোপের একটি দেশকে স্বাধীন ও সার্বভৌম রাষ্ট্র হিসেবে দেওয়া সিদ্ধান্ত নিয়েছে বাংলাদেশ। গতকাল সোমবার প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার সভাপতিত্বে সচিবালয়ে অনুষ্ঠিত মন্ত্রিসভার নিয়মিত বৈঠকে এ-সংক্রান্ত প্রস্তাব অনুমোদন দেওয়া হয়। এর আগে পৃথিবীর ১১৩টি দেশ কসোভোকে স্বীকৃতি দিয়েছে। ১১৪তম দেশ হিসেবে বাংলাদেশের সমর্থন পেল দেশটি। মুসলিম সংখ্যাগরিষ্ঠ এ দেশটি ২০০৮ সালের ১৭ ফেব্রুয়ারি সার্বিয়ার নিয়ন্ত্রণ থেকে স্বাধীনতা ঘোষণা করে।

গতকাল মন্ত্রিপরিষদ সচিব মোহাম্মদ শফিউল আলম সাংবাদিকদের জানান, এখন পর্যন্ত ১১৩টি দেশ কসোভোকে স্বাধীন ও সার্বভৌম রাষ্ট্র হিসেবে স্বীকৃতি দিয়েছে। ওআইসিভুক্ত ৫৭টি দেশের মধ্য ৩৬টি দেশ স্বীকৃতি দিয়েছে। মন্ত্রিসভায় অনুমোদন মেলায় বাংলাদেশ ১১৪তম দেশ হিসেবে কসোভোকে বাংলাদেশের পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয় থেকে আনুষ্ঠানিকভাবে স্বীকৃতির বিষয়টি জানিয়ে দেওয়া হবে।

এর আগে যুক্তরাষ্ট্র, যুক্তরাজ্য, ফ্রান্সসহ প্রভাবশালী অনেক দেশের স্বীকৃতি পেয়েছে বলকান অঞ্চলের দেশটি। যুক্তরাষ্ট্রের পক্ষ থেকে দেশটিকে স্বীকৃতি দেওয়ার বিষয়ে বেশ কয়েক বছর ধরে কসোভোকে স্বীকৃতি দিতে বাংলাদেশকে চাপ দিয়ে আসছিল। কিন্তু বাংলাদেশ এ বিষয়ে সিদ্ধান্ত নিতে ধীরে চলো নীতি অবলম্বন করে। সার্বিয়ার ঐতিহ্যগত মিত্র রাশিয়া ও অন্য অনেক দেশ এখনও দেশটিকে স্বীকৃতি দেয়নি। দক্ষিণ ইউরোপের সমুদ্রসীমা বিহীন এ দেশটির আয়তন প্রায় ১১ হাজার বর্গকিলোমিটার। মোট জনসংখ্যা প্রায় ১৯ লাখ।