প্রিন্ট করুন প্রিন্ট করুন

ক্যালিফোর্নিয়ার সন্দেহভাজন হত্যাকারীর আত্মহত্যা

শেয়ার বিজ ডেস্ক: যুক্তরাষ্ট্রের ক্যালিফোর্নিয়া অঙ্গরাজ্যের মন্টেরি পার্ক শহরে গত শনিবার বন্দুক হামলার ঘটনায় ১০ জন নিহত হন। এতে বেশ কয়েকজন গুরুতর আহত হন। এ ঘটনার পর পালিয়ে যাওয়া সন্দেহভাজন বন্দুকধারী আত্মহত্যা করেছেন। খবর: রয়টার্স।

চীনা চান্দ্র নববর্ষ উদযাপন উপলক্ষে আয়োজিত অনুষ্ঠানে হামলার ঘটনা ঘটে। ওই ঘটনার ১২ ঘণ্টার বেশি সময় পর গত রোববার সকালে ঘটনাস্থল থেকে প্রায় ৩৪ কিলোমিটার দূরে টোরেন্সে সন্দেহভাজন আত্মহত্যা করেন।

রোববার বিকালে এক সংবাদ সম্মেলনে লস অ্যাঞ্জেলেস কাউন্টি শেরিফ রবার্ট লুনা জানান, পুলিশের সোয়াত টিমের কর্মকর্তারা টোরেন্সে একটি সাদা মাইক্রোবাস ঘিরে ফেলেন। সেটির দিকে এগিয়ে যাওয়ার সময় ওই ব্যক্তি নিজেকে গুলি করেন। পুলিশ গাড়ির জানালা ভেঙে তাকে মৃত অবস্থায় পায়। সন্দেহভাজন মাইক্রোবাসটি চালাচ্ছিলেন।

সন্দেহভাজনকে এশীয় বংশোদ্ভূত বৃদ্ধ হু ক্যান ট্রান (৭২) বলে শনাক্ত করেছেন লুনা। তবে কী কারণে তিনি এ হামলা চালিয়েছেন তা জানা যায়নি। তার গুলিতে যারা নিহত হয়েছেন তাদের পাঁচজন পুরুষ ও পাঁচজন নারী। তাদের পরিচয় প্রকাশ করা হয়নি। এ ঘটনায় আরও ১০ জন আহত হয়েছেন। তাদের মধ্যে সাতজন হাসপাতালে ভর্তি এবং অন্তত একজনের অবস্থা সংকটজনক বলে কর্তৃপক্ষ জানিয়েছে।

মন্টেরি পার্কের ঘটনাস্থল থেকে পালিয়ে ট্রান গাড়িপথে ২০ মিনিটের দূরে আলহামব্রায় দ্বিতীয় আরেকটি নাচের অনুষ্ঠানে হামলার চেষ্টা করেছিলেন বলে লুনা নিশ্চিত করেছেন। আলহামব্রার প্রত্যক্ষদর্শীরা জানান, ট্রান একটি পিস্তল হাতে হেঁটে সেখানে প্রবেশ করার পর অনুষ্ঠানের আয়োজকরা তার সঙ্গে ধস্তাধস্তি করে পিস্তলটি কেড়ে নিতে সক্ষম হন। ট্রান পালিয়ে যান। লুনা জানান, এখানে কেউ গুলিবিদ্ধ হয়নি এবং ট্রান এখান থেকেও পালাতে সক্ষম হন।

আলহামব্রা থেকে পুলিশ একটি সেমি-অটোমেটিক পিস্তল উদ্ধার করেছে। আরেকটি অস্ত্র ট্রান আত্মহত্যার সময় ব্যবহার করেন। এর বাইরে তিনি আরও অস্ত্র ব্যবহার করেছেন কিনা তা পরিষ্কার হয়নি। মন্টেরি পার্ক এলাকার একটি রেস্তোরাঁর মালিক বলেছেন, হামলার পর যারা তার রেস্তোরাঁয় আশ্রয় নিতে এসেছিল তারা বলেছেন, এক ব্যক্তি মেশিনগান হাতে তাদের ওপর হামলা চালিয়েছে।