সারা বাংলা

ক্লাস চলমান রাখার দাবিতে আন্দোলন

প্রতিনিধি, পাবনা: পাবনা পলিটেকনিক ইনস্টিটিউটের দ্বিতীয় শিফটের ক্লাস নিয়মিত চলমান রাখার দাবিতে শিক্ষার্থীরা আন্দোলন কর্মসূচি পালন করেছেন। গতকাল সকালের এ আন্দোলনে শিক্ষার্থীরা দাবি করেন, গত দেড় বছর ধরে তাদের ক্লাস নিয়মিত চলছে না। ব্যবহারিক পাঠ গ্রহণ থেকেও তারা বঞ্চিত হওয়ার অভিযোগ করেন। 

তারা জানান, নিয়মিত শ্রেণিকক্ষে উপস্থিত থাকার সঙ্গে তাদের বৃত্তিরও সম্পর্ক রয়েছে। এ সংকট চলমান থাকলে ইনস্টিটিউটের সব কার্যক্রম বন্ধ করে দেওয়ার সিদ্ধান্ত তারা জানিয়েছেন।

এ বিষয়ে ইনস্টিটিউটের ভারপ্রাপ্ত অধ্যক্ষ মো. আতিকুর রহমান শেয়ার বিজকে বলেন, আমাদের ইনস্টিটিউটের দুটি শিফটের জন্য পৃথকভাবে শিক্ষক ও কর্মচারী নিয়োগের ব্যবস্থা করা হয়নি। ফলে একজন শিক্ষককে ইনস্টিটিউটে প্রবেশ করতে হয় সকাল ৮টায় ও শিক্ষার্থীদের ক্লাস শেষ করে ক্যাম্পাস ত্যাগ করতে হয় সন্ধ্যা ৭টায়। প্রতি সপ্তাহে ছয় হাজার শিক্ষার্থীর জন্য গড়ে প্রতি জন শিক্ষককে কমপক্ষে ৪০টি করে ক্লাস নিতে হচ্ছে। এ সমস্যার কারণেই পাবনা পলিটেকনিক ইনস্টিটিউটের শিক্ষক সমিতি গত চার থেকে পাঁচ দিন শিক্ষার্থীদের দ্বিতীয় শিফটের ক্লাস নেওয়া থেকে বিরত আছেন।  

এদিকে গতকাল দুপুরে পাবনা পলিটেকনিক ইনস্টিটিউটের শিক্ষক পরিষদ ক্যাম্পাস প্রাঙ্গণে দ্বিতীয় শিফটের কর্মবিরতি রেখে অবস্থান কর্মসূচি গ্রহণ করেন। বাংলাদেশ পলিটেকনিক শিক্ষক সমিতি ও পরিষদ, বাংলাদেশ টেকনিক্যাল স্কুল অ্যান্ড কলেজ শিক্ষক সমিতি ও পরিষদ এবং বাংলাদেশ কারিগরি শিক্ষা অধিদপ্তর ও অধিদপ্তরাধীন কর্মচারী সমিতির অংশগ্রহণে কেন্দ্রীয় যৌথ কমিটির সিদ্ধান্তক্রমে দ্বিতীয় শিফটের সম্মানী ভাতা জাতীয় বেতন স্কেল ২০১৫ অনুযায়ী চলমান মূল বেতনের ৫০ শতাংশ বহাল রেখে শতভাগ উন্নীতকরণের লক্ষ্যে গত পাঁচ দিন তারা লাগাতার কর্মবিরতি পালন করছেন। এ ন্যায্য দাবি না মানলে তারা অনির্দিষ্টকালের জন্য কর্মবিরতি ঘোষণা করবেন বলে জানিয়েছেন।

প্রিন্ট করুন প্রিন্ট করুন

সর্বশেষ..