সারা বাংলা

ঘর থেকে ডেকে কলেজছাত্রকে পিটিয়ে হত্যার অভিযোগ

প্রতিনিধি, লক্ষ্মীপুর: লক্ষ্মীপুরে প্রেমসংক্রান্ত বিরোধের জের ধরে ঘর থেকে ডেকে নিয়ে জাবেদ হোসেন (১৯) নামে এক কলেজছাত্রকে পিটিয়ে হত্যার অভিযোগ উঠেছে প্রেমিকার পরিবারের বিরুদ্ধে। গতকাল বৃহস্পতিবার বিকালে লক্ষ্মীপুর সদর উপজেলার বিজয়নগর এলাকার ইন্দ্র পণ্ডিত বাড়িতে এ ঘটনা ঘটে। নিহত জাবেদ হোসেন দালালবাজার ডিগ্রি কলেজের একাদশ শ্রেণির ছাত্র ও লক্ষ্মীপুর পৌর শহরের সাইফুল ইসলামের ছেলে।

খবর পেয়ে পুলিশ ঘটনাস্থল থেকে নিহতের ঝুলন্ত লাশ উদ্ধার করে। তবে পুলিশ বলছে, প্রাথমিকভাবে মনে করা হচ্ছে এটি আত্মহত্যা। তদন্ত করে এ বিষয়ে আইনগত ব্যবস্থা নেওয়া হবে।

পুলিশ ও নিহতের স্বজনরা জানায়, লক্ষ্মীপুর সরকারি মহিলা কলেজের একাদশ শ্রেণির ছাত্রী পলি আক্তারের সঙ্গে জাবেদের দীর্ঘদিনের প্রেমের সম্পর্ক চলে আসছিল। গতকাল সকালে প্রেমিকা পলির মামা রুবেল তাদের বিষয়ে কথা বলার অজুহাতে মুঠোফোনে সদর উপজেলা পরিষদের সামনে আসতে বলে। এ সময় জাবেদ ওই এলাকায় তার বন্ধু রায়হানের বাসায় অবস্থান করছিল।

পরে জাবেদকে প্রেমিকা পলির মামা রুবেলসহ তার সহযোগীরা সিএনজিযোগে সদর উপজেলার বিজয়নগর এলাকায় তাদের বাড়িতে নিয়ে যায়। সেখানে নিয়ে জাবেদকে বেধড়ক মারধর করা হয়। পরে প্রেমিকার বাবা সেলিম ভূঁইয়া মোবাইলে জাবেদের পরিবারকে জানায়, জাবেদ আত্মহত্যা করেছে।

তবে নিহতের বড় বোন হাফসা বেগম ও ভাই ফজলুলসহ স্বজনরা অভিযোগ করে জানান, জাবেদকে তার বন্ধুর বাসা থেকে প্রেমিকার মামা রুবেলসহ তার সহযোগীরা ডেকে নিয়ে মারধর করে হত্যা করে। এরপর তার মরদেহ ঝুলিয়ে রেখে এখন আত্মহত্যার অপপ্রচার চালাচ্ছে। এ অবস্থায় দোষীদের গ্রেপ্তারপূর্বক দৃষ্টান্তমূলক শাস্তির দাবি করেন তারা।

লক্ষ্মীপুর সদর মডেল থানার পরিদর্শক (তদন্ত) মোসলেহ উদ্দিন জানান, প্রেমিকার নানার বাড়ি থেকে কলেজছাত্র জাবেদের ঝুলন্ত মরদেহ উদ্ধার করা হয়েছে। প্রাথমিকভাবে মনে করা হচ্ছে এটি আত্মহত্যা। তবে এ বিষয়ে তদন্ত করে আইনগত ব্যবস্থা নেওয়া হবে বলে তিনি জানান।

প্রিন্ট করুন প্রিন্ট করুন

সর্বশেষ..