প্রিন্ট করুন প্রিন্ট করুন

চলতি অর্থবছর প্রবৃদ্ধি হতে পারে ৬.১ শতাংশ

বিশ্বব্যাংকের পূর্বাভাস

শেয়ার বিজ ডেস্ক: চলতি অর্থবছরে বাংলাদেশের জন্য মোট দেশজ উৎপাদনের প্রবৃদ্ধি (জিডিপি) পূর্বাভাস শূন্য দশমিক ৬ শতাংশ পয়েন্ট কমিয়ে ৬ দশমিক ১ শতাংশ করেছে বিশ্বব্যাংক। গতকাল সংস্থাটির ঢাকা অফিস থেকে পাঠানো এক সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে এসব তথ্য জানানো হয়।

প্রতিবেদনে বলা হয়েছে, মূল্যস্ফীতির ঊর্ধ্বগতি, রোলিং বিদ্যুৎ ব্ল্যাকআউট এবং কভিড-পরবর্তী পুনরুদ্ধারকে ব্যবহার ও বিনিয়োগে কমিয়ে দেয়। এর ফলে বাংলাদেশের জিডিপির প্রবৃদ্ধি কিছুটা কমে ৬ দশমিক ১ শতাংশে নামবে বলে পূর্বাভাস দেয়া হয়েছে।

এর আগে এশীয় উন্নয়ন ব্যাংক (এডিবি) চলতি অর্থবছরে মোট দেশজ উৎপাদনের প্রবৃদ্ধি (জিডিপি) ৬ দশমিক ৬ শতাংশ হতে পারে বলে পূর্বাভাস দিয়েছিল। বাংলাদেশ পরিসংখ্যান ব্যুরোর (বিবিএস) অস্থায়ী তথ্য অনুযায়ী, গত অর্থবছরে বাংলাদেশ ৭ দশমিক ২৫ শতাংশ জিডিপি অর্জন করেছে।

বিশ্বব্যাংক আরও বলেছে, নির্ভরযোগ্য উচ্চ-ফ্রিকোয়েন্সি সূচকের অভাব নীতিনির্ধারকদের জন্য অর্থনৈতিক উন্নয়ন ট্র্যাক করতে অসুবিধা সৃষ্টি করে। উচ্চ মূল্যস্ফীতি ব্যক্তিগত খরচ বৃদ্ধিকে কমিয়ে দেবে বলে আশা করা হচ্ছে।

প্রতিবেদনে উল্লেখ করা হয়েছে, রপ্তানি প্রবৃদ্ধি ধীর হবে বলে আশা করা হচ্ছে, কারণ মূল রপ্তানি বাজারের অর্থনৈতিক অবস্থার অবনতি হচ্ছে, যখন রোলিং ব্ল্যাকআউট, গ্যাস রেশনিং ও ক্রমবর্ধমান ইনপুট খরচ উৎপাদনের ওপর প্রভাব ফেলে।

দক্ষিণ এশিয়ার বিশ্বব্যাংকের ভাইস প্রেসিডেন্ট মার্টিন রাইসার বলেন, মহামারি, বিশ্বব্যাপী তারল্য ও পণ্যের দামের আকস্মিক পরিবর্তন এবং চরম আবহাওয়া বিপর্যয় একসময় লেজ-এন্ড ঝুঁকি ছিল। কিন্তু তিনটিই গত দুই বছরে দ্রুত ধারাবাহিকভাবে এসেছে এবং দক্ষিণ এশিয়ার অর্থনীতি পরীক্ষা করছে।

সংস্থাটি জানায়, দক্ষিণ এশিয়ায় প্রবৃদ্ধি অর্জনে শীর্ষে রয়েছে মালদ্বীপ। দেশটি ৮ দশমিক ১ শতাংশ প্রবৃদ্ধি অর্জন করতে পারে। এর পরেই রয়েছে ভারত, দেশটির প্রবৃদ্ধি হতে পারে ৭ শতাংশ।

বিশ্বব্যাংকের পূর্বাভাসে জানানো হয়, চলতি অর্থবছরে শ্রীলঙ্কার প্রবৃদ্ধি হবে ঋণাত্মক। দেশটি মাইনাস ৪ দশমিক ২ শতাংশ প্রবৃদ্ধি অর্জন করতে পারে। শ্রীলঙ্কার থেকে ভালো অবস্থানে রয়েছে আফগানিস্তান, দেশটির প্রবৃদ্ধি হতে পারে ৫ দশমিক ৮ শতাংশ। এছাড়া একই সময়ে ভুটান ৪ দশমিক ১, নেপাল ৫ দশমিক ১ এবং পাকিস্তান মাত্র দুই শতাংশ প্রবৃদ্ধি অর্জন করতে পারে।