প্রিন্ট করুন প্রিন্ট করুন

ট্রাম্প যুগ বিপজ্জনক!

??????? ??? ???????? ???? ?? ??? ????????

শেয়ার বিজ ডেস্ক: আমেরিকায় ট্রাম্প যুগে রাজনীতি বিপজ্জনক মাত্রায় নেমে গেছে বলে নতুন এক জরিপে উঠে এসেছে। ওয়াশিংটন পোস্ট ও মেরিল্যান্ড বিশ্ববিদ্যালয় পরিচালিত ওই জরিপে ৭১ ভাগ আমেরিকান এই মতামত ব্যক্ত করেছেন। শনিবার ওই জরিপের ফলাফল প্রকাশ করা হয়। খবর সিএনএনের। তারা বলছেন যুক্তরাষ্ট্রের বর্তমান রাজনৈতিক আবহাওয়া নতুন স্বাভাবিক বিষয় এবং জের ধরে অনেকদিন টানতে হবে।

অন্যদিকে ২৯ ভাগ উত্তরদাতা বলেছেন, দেশটিতে এখন যে রাজনৈতিক পরিস্থিতি বিরাজ করছে সেটা আগেকার ‘অনৈক্যের সময়কার সঙ্গে মিল’ রয়েছে।

জরিপে অংশগ্রহণকারীদের মধ্যে ৭০ ভাগ বলেছেন, ভিয়েতনাম যুদ্ধকালীন সময়ে আমেরিকানদের মধ্যে যে বিভাজন ছিল এখন তেমনটাই পরিলক্ষিত হচ্ছে। ওই সময়ে যারা প্রাপ্তবয়স্ক ছিলেন তাঁদের মধ্যে নেয়া আলাদা জরিপে এই মত ৭৭ শতাংশের বেশি।

এদিকে উত্তরদাতাদের মধ্যে ৫১ ভাগ বলেছেন, বর্তমান আমেরিকান রাজনৈতিক ব্যবস্থা অকার্যকর হওয়ার পেছনে প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্প ‘অনেকটাই’ দায়ী। তবে ৪৯ ভাগ আমেরিকান মনে করেন এর জন্য মিডিয়া দায়ী। দেশটির রাজনীতির এই অকার্যকরীতার জন্য সোশ্যাল মিডিয়াও দায়ী বলে মত দিয়েছেন ৪৯ ভাগ আমেরিকান।

জরিপে ৬৩ ভাগ মার্কিনি বলেছেন আমেরিকান গণতান্ত্রিক ব্যবস্থা নিয়ে তারা সন্তুষ্ট যদিও এটি বিগত জরিপের ফলাফলের চেয়ে অনেক কম।
৪২ ভাগ আমেরিকান ডোনাল্ড ট্রাম্পের প্রেসিডেন্সির বৈধতা নিয়ে প্রশ্ন তুলেছেন। এদের মধ্যে রয়েছেন দুই-তৃতীয়াংশ ডেমোক্রেট এবং ৯ ভাগ রিপাবলিকান। এর আগে এক জরিপে ২০০৮ সালে বারাক ওবামার প্রেসিডেন্সির বৈধতা নিয়ে প্রশ্ন তুলেছিল ১৪ ভাগ মার্কিনি।

জরিপে অংশগ্রহণকারীদের ৭০ ভাগ উত্তরদাতা বলেছেন, ট্রাম্প প্রশাসন অকার্যকর। আর কংগ্রেসের ব্যাপারে এই মতামত ৮০ ভাগের। অন্যদিকে ৫৬ ভাগ বলছেন পুরো ব্যবস্থার ‘চেক অ্যান্ড ব্যালেন্স’অকার্যকর।

গেলো ২৭ সেপ্টেম্বর থেকে ৫ অক্টোবর পর্যন্ত ওই জরিপ পরিচালিত হয়। টেলিফোন, মোবাইল ফোন এবং অনলাইনে মোট ১৬৬৩ জন প্রাপ্তবয়স্ক ব্যক্তি এতে অংশ নেয়। নমুনায়নের কারণে সার্বিক ফলাফলে ভুলের মাত্রা কমবেশি ৩.৫ ভাগ।