এসএমই

ট্রুফিট অ্যান্ড হিলস এখন ঢাকায়

দুইশ’ বছরের বেশি সময় ধরে চলমান ব্রিটিশ সেলুন ট্র–ফিট অ্যান্ড হিলসের সেবা এখন থেকে রাজধানীতেও পাওয়া যাচ্ছে। ধারাবাহিকভাবে গ্রেট ব্রিটেনের ৯ রাজার সময়কাল ধরে রাজপরিবারের সদস্যদের সেবাদান করে আসছে সেলুনটি। পাশাপাশি বিশ্বের বিভিন্ন দেশেও এর শাখা রয়েছে।
গত ৫ আগস্ট রাজধানীর গুলশান অ্যাভিনিউর মলি ক্যাপিটাল সেন্টারে ট্র–ফিট অ্যান্ড হিলসের সেবা চালু হয়েছে। ভারতের বিখ্যাত ও বিলাসবহুল লয়েডস লাক্সারি লিমিটেডের হাত ধরে রয়েল অ্যাফেয়ার্স লিমিটেড পুরুষদের জন্য আন্তর্জাতিক মানের এ সেলুনের শাখা চালু করছে।লয়েডস লাক্সারি লিমিটেডের
কো-ফাউন্ডার অ্যান্ড ডিরেক্টর ইশতিয়াক আনসারি বলেন, সময়ের সঙ্গে সৌন্দর্যের মানদণ্ডেও পরিবর্তন এসেছে। মিডিয়াও ধারাবাহিকভাবে নানা ধরনের আদর্শ শারীরিক চিত্র উপস্থাপন করে থাকে, যা সৌন্দর্যের নতুন এক ধরনের মাত্রা তৈরি করেছে। অর্থাৎ নারীদের পাশাপাশি পুরুষের জন্যও তা গুরুত্বপূর্ণ। দক্ষিণ এশিয়ার দেশগুলোর বিভিন্ন শহরে প্রায় দুই দশকের বেশি সময় ধরে পুরুষের সৌন্দর্যের নতুন এক মাত্রা হলো চুল কাটা ও শেভ করা। এ ধারাবাহিকতায় পুরুষদের আরও ফ্যাশনেবল করে তুলতে আমরা চালু করেছি আন্তর্জাতিক মানের এ সেলুন।
রয়েল অ্যাফেয়ার্স লিমিটেডের চেয়ারম্যান মুকাররাম হুসাইন খান বলেন, আমরা আশা করি সেরা পণ্য ও সেবার মাধ্যমে আমাদের গ্রাহকদের অভিজাত সেবার অভিজ্ঞতা দিতে সক্ষম হব। আমরা ব্রিটিশ রাজকীয় ঐতিহ্যের এমন একটি ব্র্যান্ড বাংলাদেশে এনেছি, যা এরই মধ্যে ঐতিহ্যগত সেলুন হিসেবে গিনেস বুক অব ওয়ার্ল্ড রেকর্ডে জায়গা করে নিয়েছে। আশা করি আধুনিক, ফ্যাশনসচেতন ও রুচিশীল ব্যক্তিরা এ সেলুনে রাজকীয় ঐতিহ্যের সেবার অভিজ্ঞতা উপভোগ করবেন।
উল্লেখ্য, ২০০ বছরের বেশি সময় ধরে ট্রুফিট অ্যান্ড হিলস্ বিশ্বের প্রাচীনতম সেলুন হিসেবে পুরুষদের নানা ডিজাইন, সাজসজ্জা ও বিস্তৃত পরিষেবা সরবরাহ করে আসছে। কানাডা, চীন, অস্ট্রেলিয়া, ভারত, মালয়েশিয়া, সিঙ্গাপুর, কুয়েত, থাইল্যান্ড প্রভৃতি দেশে প্রতিষ্ঠানটির শাখা রয়েছে।

সর্বশেষ..