প্রিন্ট করুন প্রিন্ট করুন

ডিএসইতে গত সপ্তাহে দৈনিক গড় লেনদেন এক শতাংশ কমেছে

সপ্তাহের ব্যবধান

নিজস্ব প্রতিবেদক: ঢাকা স্টক এক্সচেঞ্জে (ডিএসই) গত সপ্তাহজুড়ে সিংহভাগ কোম্পানির শেয়ারদর কমায় সূচকের নেতিবাচক প্রবণতা দেখা গেছে; একইসঙ্গে দৈনিক গড় লেনদেন দশমিক ৯৬ শতাংশ কমেছে। অন্যদিকে গত সপ্তাহের বাজার মূলধন কমেছে দশমিক ৬৮ শতাংশ। আগের সপ্তাহে পাঁচ কার্যদিবস লেনদেন হয়েছে আর গত সপ্তাহে পাঁচ কার্যদিবস লেনদেন হয়।

সাপ্তাহিক বাজার পর্যালোচনায় দেখা গেছে, ডিএসইর প্রধান সূচক ডিএসইএক্স ৫৪ দশমিক ৫৬ পয়েন্ট বা দশমিক ৮৪ শতাংশ কমে ৬ হাজার ৪২৪ দশমিক ৭৪ পয়েন্টে স্থির হয়। ডিএসইএস বা শরিয়াহ্ সূচক ১০ দশমিক ৪৯ পয়েন্ট বা দশমিক ৭৪ শতাংশ কমে এক হাজার ৪০৩ দশমিক ২৬ পয়েন্টে পৌঁছায়। অন্যদিকে ডিএস৩০ সূচক ২৪ দশমিক ৪৪ পয়েন্ট বা ১ দশমিক ০৪ শতাংশ কমে দুই হাজার ৩২৭ দশমিক ৯৫ পয়েন্টে স্থির হয়। মোট ৩৯৪টি কোম্পানির শেয়ার ও মিউচুয়াল ফান্ডের ইউনিট লেনদেন হয়। এর মধ্যে দর বেড়েছে ১১৭টির, কমেছে ২৫১টির এবং অপরিবর্তিত ছিল ২১ কোম্পানির শেয়ারদর। লেনদেন হয়নি পাঁচটির। দৈনিক গড় লেনদেন হয় ৮৬০ কোটি ৯১ হাজার ৯১৩ টাকা। আগের সপ্তাহে দৈনিক গড় লেনদেন হয় ৮৬৮ কোটি ৩৮ লাখ ২৭ হাজার ৩৭৬ টাকা। এক সপ্তাহের ব্যবধানে দৈনিক গড় লেনদেন কমেছে দশমিক ৯৬ শতাংশ।

গত সপ্তাহে ডিএসইতে মোট টার্নওভার বা লেনদেনের পরিমাণ দাঁড়ায় ৪ হাজার ৩০০ কোটি চার লাখ ৫৯ হাজার ৫৬৩ টাকা, আগের সপ্তাহে যা ছিল ৪ হাজার ৩৪১ কোটি ৯১ লাখ ৩৬ হাজার ৮৮০ টাকা। অর্থাৎ সপ্তাহের ব্যবধানে ডিএসইতে টার্নওভার বেড়েছে, যা শতাংশের হিসেবে দশমিক ৯৬ শতাংশ।

গত সপ্তাহে ডিএসইর টপটেন গেইনার তালিকার শীর্ষে উঠে আসে মেঘনা ইন্স্যুরেন্স কোম্পানি লিমিটেড। কোম্পানিটি গত সপ্তাহে দর বৃদ্ধির তালিকায় শীর্ষে উঠে এসেছে। আলোচিত সময়ে কোম্পানিটির শেয়ারদর বেড়েছে ৫৯ দশমিক ৫০ শতাংশ। গত সপ্তাহে কোম্পানিটির প্রতিদিন গড় লেনদেন হয়েছে ২৫ হাজার ২০০ টাকার শেয়ার। সপ্তাহ শেষে মোট লেনদেনের পরিমাণ দাঁড়ায় এক লাখ ২৬ হাজার টাকা। এদিকে সর্বশেষ কার্যদিবসে ডিএসইতে শেয়ারদর ৯ দশমিক ৬৬ শতাংশ বা ১ টাকা ৭০ পয়সা বেড়ে প্রতিটি সর্বশেষ ১৯ টাকা ৩০ পয়সায় হাতবদল হয়, যার সমাপনী দরও ছিল একই। দিনভর কোম্পানিটির শেয়ারদর সর্বনি¤œ ও সর্বোচ্চ ১৯ টাকা ৩০ পয়সায় লেনদেন হয়। দিনজুড়ে ১ হাজার ৫৪৮টি শেয়ার মোট ৭৯ বার হাতবদল হয়, যার বাজারদর ৩০ হাজার টাকা।

তালিকার দ্বিতীয় স্থানে থাকা মুন্নু ফেব্রিকস লিমিটেডের শেয়ারদর বেড়েছে ৪১ দশমিক ৭৫ শতাংশ। এর পরের অবস্থানগুলোয় থাকা যথাক্রমে শাইনপুকুর সিরামিকস লিমিটেডের শেয়ারদর বেড়েছে ২২ দশমিক ৩৮ শতাংশ। এইচআর টেক্সটাইল লিমিটেডের শেয়ারদর বেড়েছে ১৮ দশমিক ৯১ শতাংশ। পঞ্চম অবস্থানে থাকা মিরাকল ইন্ডাস্ট্রিজ লিমিটেডের ১৩ দশমিক ৬৪ শতাংশ বেড়েছে। গত সপ্তাহে লেনদেনের শীর্ষে উঠে আসে শাইনপুকুর সিরামিকস লিমিটেড। সপ্তাহজুড়ে কোম্পানিটির ৫ কোটি ৬৫ হাজার ১৫৪টি শেয়ার ২৩৬ কোটি ৯ লাখ ১৯ হাজার টাকায় লেনদেন হয়, যা মোট লেনদেনের ৫ দশমিক ৪৯ শতাংশ। সপ্তাহজুড়ে শেয়ারটির দর ২২ দশমিক ৩৮ শতাংশ বেড়েছে। এদিকে সর্বশেষ কার্যদিবসে ডিএসইতে কোম্পানিটির শেয়ারদর ১ দশমিক ৯৫ শতাংশ বা ১ টাকা কমে প্রতিটি সর্বশেষ ৫০ টাকা ৩০ পয়সায় হাতবদল হয়, যার সমাপনী দরও ছিল একই। দিনভর শেয়ারদর সর্বনি¤œ ৫০ টাকা ৩০ পয়সা থেকে সর্বোচ্চ ৫৩ টাকা ৬০ পয়সায় ওঠানামা করে। এক বছরের মধ্যে শেয়ারদর ২৪ টাকা ৫০ পয়সা থেকে ৫৩ টাকা ৬০ পয়সায় ওঠানামা করে।