প্রিন্ট করুন প্রিন্ট করুন

ডিএসইতে সূচকের উত্থান অব্যাহত লেনদেন বেড়েছে ২৬৯ কোটি টাকা

নিজস্ব প্রতিবেদক: চলতি সপ্তাহের শেষ কার্যদিবস গতকাল বৃহস্পতিবার ঢাকা স্টক এক্সচেঞ্জে (ডিএসই) সিংহভাগ কোম্পানি ও মিউচুয়াল ফান্ডের শেয়ার ও ইউনিটদর কমলেও সূচকের ইতিবাচক প্রবণতা অব্যাহত রয়েছে। একইসঙ্গে লেনদেন আগের কার্যদিবসের তুলনায় প্রায় ২৬৯ কোটি টাকা বেড়েছে। এর আগের দিনও ডিএসইতে সূচকের উত্থান হয়েছিল। অন্যদিকে চিটাগং স্টক এক্সচেঞ্জে (সিএসই) একই চিত্র দেখা গেছে। বাজার বিশ্লেষণে দেখা গেছে, গতকাল প্রধান সূচক ডিএসইএক্স ৫৭ দশমিক ৫১ পয়েন্ট বা শূন্য দশমিক ৮৩ শতাংশ বেড়ে ছয় হাজার ৯৮৭ দশমিক ৪৫ পয়েন্টে পৌঁছায়। ডিএসইএস বা শরিয়াহ্ সূচক আট দশমিক ৪৬ পয়েন্ট বা শূন্য দশমিক ৫৭ শতাংশ বেড়ে এক হাজার ৪৭২ দশমিক ১৪ পয়েন্টে অবস্থান করে। অন্যদিকে ডিএস৩০ সূচক ২৭ দশমিক ২০ পয়েন্ট বা এক দশমিক শূন্য পাঁচ শতাংশ বেড়ে দুই হাজার ৬০৩ দশমিক শূন্য আট পয়েন্টে স্থির হয়।

ডিএসইতে এদিন মোট ৩৭৮টি কোম্পানি ও মিউচুয়াল ফান্ডের শেয়ার ও ইউনিট লেনদেন হয়। দর বেড়েছে ১৬৪টির এবং কমেছে ১৭৯টির। বাকি ৩৫টি কোম্পানি ও মিউচুয়াল ফান্ডের শেয়ারদর অপরিবর্তিত ছিল। গতকাল ডিএসইতে লেনদেন হয় এক হাজার ৬৮৩ কোটি ৪৭ লাখ টাকার শেয়ার ও মিউচুয়াল ফান্ডের ইউনিট। আগের কার্যদিবসে লেনদেন হয়েছিল এক হাজার ৪১৪ কোটি ১৬ লাখ টাকার শেয়ার ও মিউচুয়াল ফান্ডের ইউনিট। এ হিসাবে গতকাল লেনদেন বেড়েছে ২৬৯ কোটি ৩১ লাখ টাকা।

ডিএসইতে এদিন ৩৭ কোটি ৭৭ লাখ ৬১ হাজার ৮৩৮টি শেয়ার দুই লাখ ৫৫ হাজার ৪৫ বার হাতবদল হয়। গতকাল লেনদেনের শুরু থেকে শেষ পর্যন্ত উত্থান-পতনের চিত্র দেখা গেছে।

ডিএসইতে গতকাল টাকার অঙ্কে লেনদেনের শীর্ষে উঠে আসে ডেল্টা লাইফ ইন্স্যুরেন্স কোম্পানি লিমিটেড। কোম্পানিটির ১১৮ কোটি ৮৬ লাখ টাকার শেয়ার লেনদেন হয়। শেয়ারটির দর ১৭ টাকা ৬০ পয়সা বেড়েছে। দ্বিতীয় অবস্থানে থাকা বাংলাদেশ এক্সপোর্ট-ইমপোর্ট কোম্পানি (বেক্সিমকো) লিমিটেডের ১১২ কোটি ১২ লাখ টাকার লেনদেন হয়েছে। কোম্পানিটির শেয়ারদর ১০ পয়সা কমেছে। এছাড়া লেনদেনের শীর্ষ ১০-এ থাকা অন্য কোম্পানিগুলোর মধ্যে বাংলাদেশ শিপিং করপোরেশনের ৭৮ কোটি ৩৫ লাখ, পাওয়ার গ্রিড কোম্পানি অব বাংলাদেশ লিমিটেডের ৬৯ কোটি ৯২ লাখ, লাফার্জহোলসিম বাংলাদেশ লিমিটেডের ৪৪ কোটি ৪১ লাখ, ফরচুন শুজ লিমিটেডের ৪০ কোটি ৭১ লাখ, ওয়ান ব্যাংক লিমিটেডের ৩৭ কোটি ৬৩ লাখ, বাংলাদেশ সাবমেরিন কেব্ল কোম্পানি লিমিটেডের ৩৫ কোটি ৭১ লাখ, তাওফিকা ফুডস অ্যান্ড লাভেলো আইসক্রিম পিএলসির ৩১ কোটি ৬৩ লাখ এবং অ্যাকটিভ ফাইন কেমিক্যালস লিমিটেডের ২৮ কোটি ৪৫ লাখ টাকার শেয়ার লেনদেন হয়।

এদিকে ১০ শতাংশ বেড়ে দর বৃদ্ধির শীর্ষে উঠে আসে ওয়েস্টার্ন মেরিন শিপইয়ার্ড লিমিটেড। এর পরের অবস্থানে থাকা বাংলাদেশ শিপিং করপোরেশনের ৯ দশমিক ৯৮ শতাংশ, ঢাকা ইলেকট্রিক সাপ্লাই কোম্পানি লিমিটেডের ৯ দশমিক ৯৭ শতাংশ, তিতাস গ্যাস ট্রান্সমিশন অ্যান্ড ডিস্ট্রিবিউশন কোম্পানি লিমিটেডের ৯ দশমিক ৯৪ শতাংশ, মীর আখতার হোসেন লিমিটেডের ৯ দশমিক ৯২ শতাংশ, আল-হাজ্জ টেক্সটাইল লিমিটেডের ৯ দশমিক ৮৭ শতাংশ, বসুন্ধরা পেপার মিলস লিমিটেডের ৯ দশমিক ৮৭ শতাংশ, এনআরবি কমার্শিয়াল ব্যাংক লিমিটেডের ৯ দশমিক ৮১ শতাংশ, ডেল্টা লাইফ ইন্স্যুরেন্স কোম্পানি লিমিটেডের ৯ দশমিক শূন্য তিন শতাংশ, বাংলাদেশ সাবমেরিন কেব্ল কোম্পানি লিমিটেডের সাত দশমিক ৯০ শতাংশ শেয়ারদর বেড়েছে।

অন্যদিকে চট্টগ্রাম স্টক এক্সচেঞ্জে (সিএসই) প্রধান সূচক সিএসসিএক্স ১০৩ দশমিক ৩৭ পয়েন্ট বা শূন্য দশমিক ৮৪ শতাংশ বেড়ে ১২ হাজার ৩১০ দশমিক ৪৫ পয়েন্টে এবং সার্বিক সূচক সিএএসপিআই ১৬৮ দশমিক ৩৮ পয়েন্ট বা শূন্য দশমিক ৮২ শতাংশ বেড়ে ২০ হাজার ৪৯৫ দশমিক ২১ পয়েন্টে অবস্থান করে। সিএসইতে ৩০৮টি কোম্পানির শেয়ার ও মিউচুয়াল ফান্ডের ইউনিট লেনদেন হয়েছে। দর বেড়েছে ১৩৬টির, কমেছে ১৩৫টির এবং ৩৭টির দর অপরিবর্তিত ছিল। গতকাল সিএসইতে লেনদেন হয় ৪১ কোটি ২৯ লাখ টাকার আর আগের কার্যদিবসে লেনদেন হয়েছিল ৪৩ কোটি ৪৮ লাখ টাকার। এ হিসেবে আগের কার্যদিবসের তুলনায় গতকাল সিএসইতে দুই কোটি ১৯ লাখ টাকার লেনদেন কমেছে।

সিএসইতে গতকাল লেনদেনের শীর্ষ ১০-এ ছিল রবি আজিয়াটা লিমিটেড, ওয়ান ব্যাংক, বেক্সিমকো, বাংলাদেশ শিপিং করপোরেশন, লংকাবাংলা ফাইন্যান্স, আইএফআইসি ব্যাংক, লাফার্জহোলসিম বাংলাদেশ, পাওয়ার গ্রিড কোম্পানি, বারাকা পতেঙ্গা পাওয়ার লিমিটেড।