কোম্পানি সংবাদ পুঁজিবাজার

ডিএসইতে সূচক বাড়লেও লেনদেন কমেছে

নিজস্ব প্রতিবেদক: ঢাকা স্টক এক্সচেঞ্জে (ডিএসই) গতকাল বৃহস্পতিবার চলতি সপ্তাহের শেষ কার্যদিবসে সূচক বাড়লেও লেনদেন কমেছে। এর আগের কার্যদিবসে ৬৩৪ কোটি টাকা বেড়ে ডিএসইতে লেনদেন দুই হাজার ৭০০ কোটি টাকা ছাড়ায়, যা গত সাড়ে ১০ বছরের মধ্যে সর্বোচ্চ ছিল। এদিকে গতকাল মোট ৩৬৭টি কোম্পানি ও মিউচুয়াল ফান্ডের শেয়ার ও ইউনিট লেনদেন হয়। দর বেড়েছে ২০৯টির এবং কমেছে ১৪৯টির। বাকি ৯টি কোম্পানি ও মিউচুয়াল ফান্ডের শেয়ারদর অপরিবর্তিত ছিল। গতকাল ডিএসইতে লেনদেন হয় দুই হাজার ৬৬৯ কোটি ২৫ লাখ টাকার শেয়ার ও মিউচুয়াল ফান্ডের ইউনিট। আগের কার্যদিবসে লেনদেন হয়েছিল দুই হাজার ৭০০ কোটি ৫৫ লাখ টাকার শেয়ার ও মিউচুয়াল ফান্ডের ইউনিট। অর্থাৎ লেনদেন কমেছে ৩১ কোটি ২৯ লাখ টাকা। এদিন ৮৫ কোটি ৬৩ লাখ ৯০ হাজার ১২৭টি শেয়ার তিন লাখ ৬৭ হাজার ৬৩৪ বার হাতবদল হয়। গতকাল লেনদেনের শুরু থেকে শেষ পর্যন্ত সূচকের উত্থান পতনের চিত্র দেখা গেছে। অন্যদিকে চিটাগং স্টক এক্সচেঞ্জে (সিএসই) সূচক ও লেনদেন বেড়েছে।

বাজার পর্যবেক্ষণে দেখা গেছে, গতকাল ডিএসইর প্রধান সূচক ডিএসইএক্স ১১ দশমিক ৫৯ পয়েন্ট বা শূন্য দশমিক ১৯ শতাংশ বেড়ে ছয় হাজার ৬৬ পয়েন্টে ওঠে আসে। ডিএসইএস বা শরিয়াহ্ সূচক তিন দশমিক ২৩ পয়েন্ট বা শূন্য দশমিক ২৪ শতাংশ বেড়ে এক হাজার ২৯৯ দশমিক ৪৮ পয়েন্টে অবস্থান করে। অন্যদিকে ডিএস৩০ সূচক দুই দশমিক ৪৭ পয়েন্ট বা শূন্য দশমিক ১১ শতাংশ বেড়ে দুই হাজার ২০৫ দশমিক শূন্য ৯ পয়েন্টে স্থির হয়।

গতকাল টাকার অঙ্কে লেনদেনের শীর্ষে উঠে আসে বাংলাদেশ এক্সপোর্ট-ইমপোর্ট কোম্পানি লিমিটেড (বেক্সিমকো)। কোম্পানিটির ২২৯ কোটি ১১ লাখ টাকার শেয়ার লেনদেন হয়েছে। এ তালিকার দ্বিতীয় অবস্থানে ছিল লংকাবাংলা ফাইন্যান্স লিমিটেড। কোম্পানিটির শেয়ার লেনদেন হয়েছে ৫৫ কোটি পাঁচ লাখ টাকার। এরপরের অবস্থানে থাকা পাইওনিয়ার ইন্স্যুরেন্স কোম্পানি লিমিটেডের ৪৮ কোটি ৭০ লাখ টাকার, ফরচুন শুজ লিমিটেডের ৪৭ কোটি ৫৬ লাখ টাকার, ন্যাশনাল পলিমার ইন্ডাস্ট্রিজ লিমিটেডের ৪১ কোটি ৪৪ লাখ টাকার, ন্যাশনাল ফিড মিল লিমিটেডের ৪০ কোটি আট লাখ টাকার, ড্রাগন সোয়েটার অ্যান্ড স্পিনিং লিমিটেডের ৩৬ কোটি ১২ লাখ টাকার শেয়ার লেনদেন হয়।

১০ শতাংশ বেড়ে দর বৃদ্ধির শীর্ষে ছিল জাহিন স্পিনিং লিমিটেড। দর বাড়ার দ্বিতীয় শীর্ষ অবস্থানে থাকা ইনডেক্স এগ্রো ইন্ডাস্ট্রিজ লিমিটেডের শেয়ারদর ৯ দশমিক ৯৪ শতাংশ বেড়েছে। এরপরের অবস্থানে থাকা মীর আক্তার হোসেন লিমিটেডের শেয়ারদর বেড়েছে ৯ দশমিক ৯৩ শতাংশ, কপারটেক ইন্ডাস্ট্রিজ লিমিটেডের শেয়ারদর বেড়েছে ৯ দশমিক ৯২ শতাংশ, এস আলম কোল্ড রোল্ড স্টিলস লিমিটেডের শেয়ারদর বেড়েছে ৯ দশমিক ৯২ শতাংশ, দেশবন্ধু পলিমার লিমিটেডের শেয়ারদর ৯ দশমিক ৯১ শতাংশ বেড়েছে, আলিফ ইন্ডাস্ট্রিজ লিমিটেডের বেড়েছে ৯ দশমিক ৮৯ শতাংশ, নুরানী ডায়িং আ্যান্ড সোয়েটার লিমিটেডের বেড়েছে ৯ দশমিক ৮৭ শতাংশ বেড়েছে।

অন্যদিকে চট্টগ্রাম স্টক এক্সচেঞ্জে (সিএসই) প্রধান সূচক সিএসসিএক্স ৩৯ দশমিক ৩২ পয়েন্ট বা শূন্য দশমিক ৩৭ শতাংশ বেড়ে ১০ হাজার ৫৯৪ দশমিক ৪২ পয়েন্টে এবং সার্বিক সূচক সিএএসপিআই ৬৯ দশমিক ৭৯ পয়েন্ট বা শূন্য দশমিক ৩৯ শতাংশ বেড়ে ১৭ হাজার ৫৮৫ দশমিক ৩৩ পয়েন্টে অবস্থান করে। সিএসইতে ৩১৯টি কোম্পানির শেয়ার ও মিউচুয়াল ফান্ডের ইউনিট লেনদেন হয়েছে। দর বেড়েছে ১৭৫টির, কমেছে ১২০টির এবং ২৪টির দর অপরিবর্তিত ছিল। সিএসইতে লেনদেন হয়েছে ১১৪ কোটি ৬৪ লাখ ১৯ হাজার টাকার শেয়ার ও মিউচুয়াল ফান্ডের ইউনিট। আগের কার্যদিবসে লেনদেন হয়েছিল ৭৬ কোটি ৫২ লাখ ৬৬ হাজার টাকার শেয়ার ও মিউচুয়াল ফান্ডের ইউনিট। এ হিসাবে লেনদেন বেড়েছে ৩৮ কোটি ১১ লাখ ৫২ হাজার টাকা।

প্রিন্ট করুন প্রিন্ট করুন

সর্বশেষ..