বিশ্ব সংবাদ

তালেবানের বিরুদ্ধে হামলা অব্যাহত রাখার ঘোষণা যুক্তরাষ্ট্রের

শেয়ার বিজ ডেস্ক: আগামী সেপ্টেম্বরের মধ্যে আফগানিস্তান থেকে দেশে ফিরে যাবে সব মার্কিন সেনা। কিন্তু তার আগে আফগান বাহিনীর সমর্থনে তালেবানের বিরুদ্ধে বিমান হামলা চলাচ্ছে যুক্তরাষ্ট্র। আর সামনের দিনগুলোতেও আফগান নিরাপত্তা বাহিনীকে সহায়তা করতে ওয়াশিংটন বিমান হামলা অব্যাহত রাখবে বলে জানিয়েছেন যুক্তরাষ্ট্রের সামরিক বাহিনীর জেনারেল কেনেথ ম্যাকেঞ্জি। খবর: বিবিসি।

রোববার জেনারেল ম্যাকেঞ্জি বলেন, গত সপ্তাহের মতো আগামী সপ্তাহগুলোতেও বিমান হামলা অব্যাহত থাকবে। তবে আগস্টের পরও বিমান হামলা অব্যাহত থাকবে কি নাÑসেটা তিনি জানাননি।

দীর্ঘ দুই দশক যুদ্ধের পর বিধ্বস্ত অবস্থায় আফগানিস্তানকে রেখে দেশে ফিরে যাচ্ছে যুক্তরাষ্ট্র ও ন্যাটোর সামরিক বাহিনীর সদস্যরা। এ পরিস্থিতিতে একের পর এক এলাকা দখল করে নিচ্ছে তালেবান। তাদের সঙ্গে কোনোভাবেই পেরে উঠছে না আফগান সরকারি সেনা। সম্প্রতি সামরিকভাবে আরও সক্রিয় হয়েছে তালেবান। একের পর এক এলাকা দখল করে এবার তারা কার্যত ঘিরে ফেলেছে আঞ্চলিক রাজধানীগুলোকে।

কাবুলে সাংবাদিকদের সঙ্গে কথা বলার সময় রোববার জেনারেল কেনেথ ম্যাকেঞ্জি বলেন, (তালেবানের বিরুদ্ধে যুদ্ধে) আফগান সেনাবাহিনীকে সমর্থন জানিয়ে যাবে যুক্তরাষ্ট্র।

তবে সাংবাদিকদের একটি প্রশ্ন এড়িয়ে গেছেন জেনারেল ম্যাকেঞ্জি। আগামী ৩১ আগস্টের পরও তালেবানের বিরুদ্ধে যুক্তরাষ্ট্র এ বিমান হামলা অব্যাহত রাখবে কি নাÑসাংবাদিকদের এমন প্রশ্নের জবাবে তিনি বলেন, ‘যুক্তরাষ্ট্র আফগান সেনাবাহিনীকে সমর্থন জানিয়ে যাবে। সেই সমর্থন সাধারণভাবে আকাশপথেই অব্যাহত থাকবে।’

সামরিক বাহিনীর এ জেনারেলের মতে, আগামী সপ্তাহগুলো খুবই গুরুত্বপূর্ণ। তার ভাষায়, ‘আমি মনে করি না, এটা সহজ কোনো রাস্তা। কিন্তু আমি এটাও মনে করি না যে, আফগানিস্তানে গৃহযুদ্ধ হবে।’

আফগানিস্তান থেকে বিদেশি সেনাদের প্রত্যাহারের মধ্যেই কার্যত লড়াই চলছে দেশটির সরকারি সেনা ও তালেবান যোদ্ধাদের। রোববারও কান্দাহারের পাশে লড়াই হয়েছে। গত মাসে সেখান থেকে ২২ হাজার পরিবার বাড়ি ছেড়ে নিরাপদ আশ্রয়ের খোঁজে চলে গেছেন।

এর আগে তালেবানের অগ্রযাত্রা রুখতে প্রায় সারাদেশে রাত্রিকালীন কারফিউ জারি করে আফগানিস্তানের সরকার।

প্রিন্ট করুন প্রিন্ট করুন

সর্বশেষ..