বিশ্ব সংবাদ

দক্ষিণ কোরিয়ার কর্মকর্তা হত্যায় ‘ক্ষমা’ চাইলেন কিম

শেয়ার বিজ ডেস্ক: উত্তর কোরীয় নেতা কিম জং-উন দক্ষিণ কোরিয়ার প্রেসিডেন্টের কাছে ক্ষমা চেয়েছেন। গত শুক্রবার সিউলের পক্ষ থেকে কিমের ক্ষমা চাওয়ার বিষয়টি জানানো হয়েছে। এ সপ্তাহের শুরুতে দক্ষিণ কোরিয়ার একজন সরকারি কর্মকর্তাকে গুলি করে হত্যার পর ক্ষমা চাইলেন কিম। খবর: বিবিসি।

করোনা মহামারি ঠেকাতে উত্তর কোরিয়া সেনাদের সীমান্তে ‘গুলি করে হত্যার’ নির্দেশ দিয়েছে দক্ষিণ কোরিয়ায় যুক্তরাষ্ট্রের সামরিক বাহিনীর এক কমান্ডার জানিয়েছিলেন। এ নির্দেশের ফলেই উত্তর কোরিয়ার কর্মকর্তাকে গুলি করা হয় বলে প্রাথমিকভাবে ধারণা করা হচ্ছে।

জানা গেছে, কিম দক্ষিণ কোরীয় নেতা মুন জায়ে-ইনকে বলেছেন এমন কিছু ঘটা উচিত হয়নি। দক্ষিণ কোরিয়ার রাষ্ট্রপতির কার্যালয় জানিয়েছে, প্রেসিডেন্ট মুনের কাছে পাঠানো এক চিঠিতে এই বিরল ক্ষমা চেয়েছেন কিম। চিঠিতে হতাশ মুনের জন্য কিম খুব দুঃখিত বলে উল্লেখ করেছেন কিম।

দক্ষিণের দাবি, ৪৭ বছরের ওই কর্মকর্তা উত্তর কোরিয়া যাওয়ার চেষ্টা করছিলেন। পরে তাকে ভাসমান অবস্থায় খুঁজে পাওয়া যায় উত্তর কোরিয়ার জলসীমায়। সিউলের দাবি, ওই কর্মকর্তাকে গুলি করে হত্যার পর তার শরীরে আগুন ধরিয়ে দেওয়া হয়। ওই কর্মকর্তা কী করে উত্তরের জলসীমায় পৌঁছেছিলেন সেই ব্যাখ্যা দেয়নি দক্ষিণের সেনাবাহিনী।

প্রেসিডেন্ট মুনের কাছে পাঠানো চিঠিতে উত্তর কোরিয়া এ ঘটনা নিয়ে তাদের তদন্ত প্রতিবেদনও পাঠিয়েছে। প্রতিবেদনে বলা হয়, ওই ব্যক্তিকে ১০টির বেশি গুলি করা হয়েছে। ওই ব্যক্তি উত্তর কোরিয়ার জলসীমায় প্রবেশের পর নিজের পরিচয়পত্র দেখাতে ব্যর্থ হন এবং পালিয়ে যাওয়ার চেষ্টা করেন।

প্রিন্ট করুন প্রিন্ট করুন

সর্বশেষ..