Print Date & Time : 15 August 2022 Monday 6:38 am

দুঃখ প্রকাশের পরও শাস্তি পেলেন তাইজুল

ক্রীড়া প্রতিবেদক: ভুলটা বুঝতে পেরেছিলেন মাঠেই। তাইতো তাইজুল ইসলাম বল ছোড়ার পরপরই হাত উঁচিয়ে দুঃখ প্রকাশ করেন। কিন্তু তাতে রক্ষা পাননি বাংলাদেশের এই স্পিনার। মাঠের আম্পায়াররা অভিযোগ আনার পর ম্যাচ  রেফারি তলব করেন তাকে। দায় শিকার কওে নেয়ায় আর আনুষ্ঠানিক শুনানির প্রয়োজন পড়েনি। তবে ঠিকই  পেলেন শাস্তি।

তাইজুল ইসলামকে জরিমানা করেছে আইসিসি। গত বুধবার রাতে এক ই- মেইলে তাইজুলকে জরিমানা করার বিষয়টি জানিয়েছে বিশ্বক্রিকেটের নিয়ন্ত্রক সংস্থাটি।

শ্রীলঙ্কার বিপক্ষে ঢাকায় চলমান দ্বিতীয়  টেস্টে আইসিসির আচরণবিধি (লেভেল-১) লঙ্ঘন করায় ম্যাচ ফি’র ২৫ শতাংশ জরিমানা করা হয়েছে তাইজুলকে। এখানেই শেষ নয়, একটি ডিমেরিট পয়েন্টও দেয়া হয়েছে তাকে। ২৪ মাস বহাল থাকবে এই ডিমেরিট পয়েন্ট। এ সময়ের মধ্যে সব মিলিয়ে ৪ কিংবা তার অধিক ডিমেরিট পয়েন্ট পেলে নিষিদ্ধ হবেন তাইজুল।

এ ধরনের অপরাধের সর্বনিম্ন শাস্তি হলো আনুষ্ঠানিকভাবে তিরস্কার করা। সর্বোচ্চ শাস্তি হলো ম্যাচ ফি’র ৫০ শতাংশ জরিমানা করা ও দুটি ডিমেরিট পয়েন্ট।

গত বুধবার ঢাক টেস্টের তৃতীয় দিনে ভুলটি করেন বাংলাদেশের এই স্পিনার। ৬৯তম ওভারের ঘটনা। তখনই বল কুড়িয়ে অ্যাঞ্জেলো ম্যাথুজকে লক্ষ্য করে ছুঁড়ে মারেন তাইজুল। পপিং ক্রিজের মধ্যেই ছিলেন আর রান নেয়ার কোনো চেষ্টাও করেননি লঙ্কান ব্যাটসম্যান। তারপরও তাকে উদ্দেশ করে ছুঁড়ে মারা বলটি ম্যাথুজের লাগে গায়ে।

তাইজুল আইসিসির আচরণবিধির ২.৯ অনুচ্ছেদ ভঙ্গ করেন। যেখানে লেখা আছে : আন্তর্জাতিক ম্যাচে কোনো  খেলোয়াড়কে লক্ষ্য করে কিংবা অযাযথ অথবা বিপজ্জনকভাবে বল ছুঁড়ে মারা। এরপর তাইজুল অপরাধ স্বীকার করেছেন এবং তাকে করা জরিমানা ও ডিমেরিট পয়েন্ট দেয়ার বিষয়টি মেনে নিয়েছেন। এ জন্য আনুষ্ঠানিক কোনো শুনানির প্রয়োজন হয়নি।

এদিকে ঢাকা টেস্টে বেশ লড়ছে শ্রীলঙ্কান ক্রিকেট দল। বাংলাদেশের প্রথম ইনিংসে ৩৬৫ রানের জবাবটা ভালোই দিচ্ছে দলটি। সফরকারীরা বৃহস্পতিবার টেস্টের চতুর্থ দিনের লাঞ্চ বিরতির আগেই লিড নিয়েছে। শতরান তুলে দলকে বড় স্কোর এনে দিয়েছেন অ্যাঞ্জেলো ম্যাথুজ। এর আগে বাংলাদেশের হয়ে সেঞ্চুরি হাঁকান লিটন দাস ও মুশফিকুর রহিম।