বিশ্ব সংবাদ

দ্রুত টিকাদান কর্মসূচি বাস্তবায়ন বিদেশি পর্যটকদের জন্য উম্মক্ত হচ্ছে ইইউ

শেয়ার বিজ ডেস্ক: কভিড-১৯-এর সংক্রমণ ও মৃত্যুর হার কমে আসায় এবং দ্রুত টিকাদান কর্মসূচি বাস্তবায়ন করায় ইউরোপীয় ইউনিয়ন (ইইউ) বিদেশি পর্যটকদের জন্য উম্মুক্ত করা হচ্ছে। ইউরোপের অর্থনীতি পুনরুদ্ধারে এরই মধ্যে ইইউ বিদেশি পর্যটকদের ভ্রমণের অনুমতি দিয়েছে। আগামী মাস থেকে টিকাগ্রহণকারী বিদেশিরা ইইউ ভ্রমণ করতে পারবেন। ফলে দীর্ঘ এক বছরের বেশি বিধি-নিষেধের পর ‘ইউরোপীয় সবুজ ডিজিটাল সার্টিফিকেট’ বহনকারী আন্তর্জাতিক পর্যটকদের জন্য উম্মুক্ত ইউরোপীয় ইউনিয়ন। আগামী মাস থেকে সবার জন্য ইউরোপীয় ইউনিয়ন উম্মুক্ত করা হবে।  খবর: বিবিসি, গার্ডিয়ান।

গতকাল মঙ্গলবার ইইউ কমিশনের প্রেসিডেন্ট উজলা ভন ডের লিওয়ন এক টুইটবার্তায় বলেন, সময় এসেছে এখন ইইউর বিদেশি পর্যটক গ্রহণ করার। যদিও বর্তমানে ইউরোপের সাতটি দেশে ‘প্রয়োজনীয় নয় এমন’ ভ্রমণ চালু রয়েছে। কিন্তু কভিড পরিস্থিতি পর্যালোচনা করে ইউরোপের বাইরের দেশের নাগরিকদের ভ্রমণের সুযোগ দেয়ার জন্য ইইউ কমিশন একটি পরিকল্পনা গ্রহণ করেছে,যেখানে প্রতি দুই সপ্তাহ পরপর বৈঠক করে সিদ্ধান্ত জানানো হবে।

এদিকে ইউরোপের বিভিন্ন দেশে এরই মধ্যে হোটেল-রেস্টুরেন্ট ও বিনোদন কেন্দ্র খুলে দেয়া হয়েছে। নেদারল্যান্ডস এরই মধ্যে বহিরাগতদের জন্য আতিথিয়তা শুরু করেছে। গতকাল দেশটি হোটেল-রেস্টুরেন্ট আবার চালু করে, যদিও প্রতিবেশী বেলজিয়াম এখনও চালু করতে নারাজ।

এ বিষয়ে ডাচ প্রধানমন্ত্রী মার্ক রুটে বলেন, সারাদেশে করোনা সংক্রমণ কমে আসা এবং গত কয়েক সপ্তাহে ব্যাপক টিকা প্রয়োগ করায় দেশটিতে অর্থনীতির কর্মকাণ্ড আবার চালু করতে চায় তার সরকার।

এদিকে বেলজিয়ামে সংক্রমণ না কমা সত্ত্বেও আগামী ৮ মে থেকে সতর্কতার সঙ্গে দোকানপাট আবার চালু করার জন্য চেষ্টা করা হচ্ছে।

এক সরকারি পরিসংখ্যানে দেখা যায়, ইউরোপের ২৩টি দেশ প্রায় ৭১ শতাংশ করোনা প্রতিরোধ (টিকাপ্রয়োগ) করতে সক্ষম হয়েছে। যেখানে জার্মানি গত বৃহস্পতিবারে এক দিনে ১০ লাখ ডোজ টিকা প্রয়োগ করেছে। আর ফ্রান্স শুক্রবার এক দিনে পাঁচ লাখ ৪৫ হাজার ডোজ টিকা প্রয়োগ করেছে। অন্যদিকে বুলগেরিয়া, লাটভিয়া, ক্রোয়েশিয়া ও রোমানিয়ায় কেবল ২০ শতাংশ মানুষ টিকা গ্রহণ করেছে, যেখানে মাল্টার ৫৩ শতাংশ মানুষ টিকা গ্রহণ করেছে।

এ অবস্থায় সোমবার যুক্তরাজ্য ও ইউরোপের মধ্যে আগামী জুন থেকে বর্ডার আবার চালু করার কমসূচি উদ্বোধন করে ইইউ কমিশনের প্রেসিডেন্ট বলেন, আমরা প্রকৃতপক্ষে দেখছি, ইইউতে টিকা প্রয়োগ নাটকীয়ভাবে বাড়ছে।

বিদেশি পর্যটকদের জন্য উš§ুক্ত হচ্ছে স্পেন: এদিকে দীর্ঘ এক বছরের বেশি বিধি-নিষেধের পর ‘ইউরোপীয় সবুজ ডিজিটাল সার্টিফিকেট’ বহনকারী আন্তর্জাতিক পর্যটকদের জন্য উš§ুক্ত হচ্ছে স্পেন। আগামী জুন মাস থেকে এটি কার্যকর হবে বলে ঘোষণা দিয়েছেন দেশটির জাতীয় পর্যটনবিষয়ক সম্পাদক ফের্নান্দো ভালদেস।

সম্প্রতি যুক্তরাজ্যে অনুষ্ঠিত হওয়া ওয়ার্ল্ড ট্র্যাভেল অ্যান্ড ট্যুরিজম কাউন্সিলের বার্ষিক সম্মেলনে তিনি এ ঘোষণা দেন। দেশটির শিল্প, বাণিজ্য ও পর্যটনমন্ত্রী রেইয়েস মারোতো এ ঘোষণাকে খুব ভালো সংবাদ বলে উল্লেখ করেছেন। তিনি বলেন, গ্রীষ্মের ছুটির মাসগুলোয় আন্তর্জাতিক পর্যটকদের স্পেনে আগমনের অর্থ হচ্ছে মহামারিতে ‘টিকাস্বরূপ’।

দেশটির জাতীয় পর্যটনবিষয়ক সম্পাদক ফেরনান্দো ভালদেস আশ্বাস দিয়ে বলেন, ‘স্পেনে করোনার অবস্থা গত গ্রীষ্মের মতো নেই। এখন পরিস্থিতি সম্পূর্ণ আলাদা। আর এ কারণে এখন পর্যটকদের নিশ্চয়তা দেয়া যাবে। তাদের সঠিক তথ্য দেয়া ও দেশে ফিরে যাওয়ার আশ্বাসও দেয়া যাবে বলে আমরা মনে করি।’

প্রসঙ্গত, ২০২০ সাল ও চলতি বছরে ইউরোপের করোনা প্রাদুর্ভাবের কেন্দ্রস্থল স্পেন দীর্ঘদিন লকডাউনে থাকে। এতে সংকটের মুখে পড়ে পর্যটননির্ভর দেশটির অর্থনীতি।

প্রিন্ট করুন প্রিন্ট করুন

সর্বশেষ..