সারা বাংলা

ধামইরহাট উপজেলা পরিষদের কার্যক্রম ব্যাহত

ভবন উদ্বোধন হয়নি

প্রতিনিধি, ধামইরহাট (নওগাঁ): নওগাঁর সীমান্তঘেঁষা উপজেলা ধামইরহাট। এখানে অবকাঠামোগত উন্নয়ন চলছে। একের পর এক শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানের উন্নয়নসহ গড়ে উঠেছে নানা সরকারি-বেসরকারি ভবন। এর মধ্যে রয়েছে সম্প্রসারিত ধামইরহাট উপজেলা পরিষদ ভবন।

জানা গেছে, ২০১৬ সালের ১৫ নভেম্বরে শুরু হয় উপজেলা পরিষদ ভবন নির্মাণের কাজ। চার কোটি ৫০ লাখ ৮৮ হাজার ২১৭ টাকা ব্যয়ে ৩০ কক্ষের এ ভবনের কাজ শেষ হয় ২০১৮ সালের ডিসেম্বরে। তবে এর উদ্বোধন হয়নি আজও। সেই থেকে নবনির্মিত উপজেলা পরিষদের ভবনটি পড়ে রয়েছে অবহেলা অযতেœ।

উপজেলা পরিষদের আওতায় মোট ১৭টি সরকারি অফিস রয়েছে। একেক অফিস একেক স্থানে হওয়ায় অফিস খুঁজে পেতে বিড়ম্বনায় পড়তে হয় সাধারণ জনগণকে। এসব সমস্যা উত্তোরণে স্থানীয় সংসদ সদস্য শহীদুজ্জামান সরকার উপজেলার অন্য প্রতিষ্ঠানের উন্নয়নের পাশাপাশি উপজেলা পরিষদের প্রশাসনিক ভবনকে আধুনিকায়নের আওতায় আনেন। তার আন্তরিক প্রচেষ্টায় স্থানীয় সরকার ও পল্লী উন্নয়ন মন্ত্রণালয়ের অর্থায়নে নির্মিত হয় নতুন পরিষদ ভবন।

তবে দুই বছরেও উদ্বোধন হয়নি পরিষদ ভবন। এদিকে নানা সমস্যার অবসান ঘটিয়ে পুরোনো ভবনের বিপরীতে পর্যাপ্ত সুযোগ সুবিধা সংবলিত প্রশাসনিক কর্মকাণ্ডকে গতিশীল করতে নতুন সম্প্রসারিত ভবন নির্মিত হওয়ায় উপজেলা পরিষদের কার্যক্রমগুলো একই ছাদের নিচে জনসাধারণকে সেবা নিশ্চিত করতে নির্মাণ হলেও দীর্ষ সময় ধরে রয়েছে উদ্বোধনের অপেক্ষায়। কবে হবে উদ্বোধন এমন প্রশ্ন অনেকের মধ্যে ঘুরপাক করছে।

পরিছন্নতার অভাবে ময়লার আস্তরণ পড়েছে। মুজিববর্ষ ও স্বাধীনতার ৫০ বছর সুবর্ণজয়ন্তীতে ওই নবনির্মিত পরিষদের ভবনটি বাহ্যিক অংশ অপরিচ্ছন্ন রাখায় প্রশ্ন উঠেছে এলাকার সচেতন মহলে।

উপজেলা প্রকৌশলী মো. আলী হোসেন জানান, আমি লিখিতভাবে উদ্বোধনের জন্য কাগজপত্র পাঠিয়ে দিয়েছি। শিগগিরই ভবনটির আনুষ্ঠানিক উদ্বোধন করা হবে।

প্রিন্ট করুন প্রিন্ট করুন

সর্বশেষ..