প্রিন্ট করুন প্রিন্ট করুন

নাসিক নির্বাচন হবে অবাধ ও সুষ্ঠু : সিইসি

 

নারায়ণগঞ্জ প্রতিনিধি: আগামী ২২ ডিসেম্বর অনুষ্ঠিতব্য নারায়ণগঞ্জ সিটি করপোরেশন (নাসিক) নির্বাচন উপলক্ষে মেয়র ও কাউন্সিলর প্রার্থীদের সঙ্গে মতবিনিময় সভা হয়েছে। গতকাল বৃহস্পতিবার সকাল ১১টা হতে দুপুর ১টা পর্যন্ত নারায়ণগঞ্জ ক্লাব লিমিটেডে ওই সভায় প্রধান নির্বাচন কমিশনার রকিবউদ্দিন বলেন, নারায়ণগঞ্জ একটি ঐতিহ্যবাহী জেলা। নানা কারণে এ জেলার লোকজন তাদের ঐতিহ্য ধরে রেখেছে। নারায়ণগঞ্জে একটি সুন্দর ও শান্তিপূর্ণ নির্বাচন অনায়াসে করতে আমরা সক্ষম। আমরা কোনো প্রার্থীকে চিনি না। একটি অবাধ, নিরপেক্ষ ও সুষ্ঠু নির্বাচন করতে আমরা বদ্ধপরিকর। তিনি বলেন, ভোটকেন্দ্র এবারও সুরক্ষিত থাকবে। ভোটের আগের দিন থেকে পরদিন ভোট শেষে গণনা পর্যন্ত কেন্দ্রে পর্যাপ্ত আইনশৃঙ্খলা রক্ষাকারী বাহিনী পাহারায় থাকবে। কোনো ধরনের বিশৃঙ্খলা বরদাশত করা হবে না। আমি আইনশৃঙ্খলা রক্ষাকারী বাহিনীকে নির্দেশ দেব যেন দুষ্কৃতকারীকে দুষ্কৃতকারী হিসেবেই ভাববেন। তাদের ওপর কোনো প্রার্থীর সমর্থন আছে কি না, সেটা দেখা যাবে না।

তিনি বলেন, ভোটাররা এখন অনেক সচেতন। আশা করি নির্বাচনে ভোটাররা একটি অনুকরণীয় দৃষ্টান্ত স্থাপন করবেন। ভোটাররা

যে রায় দেবেন, সেটা মেনে নিয়ে এলাকাবাসীকে সঙ্গে নিয়ে শান্তি বজায়ে কাজ করবেন।

অভিযোগ প্রসঙ্গে নির্বাচন কমিশনার বলেন, প্রতিটি অভিযোগ আমলে নিয়ে ব্যবস্থা নিতে হবে। তবে অভিযোগ যেন সুনির্দিষ্ট হয়।

কেন্দ্র পরিদর্শন সম্পর্কে তিনি বলেন, অতীতে যেসব পর্যবেক্ষককে অনুমতি দেওয়া হয়েছে, তারাই এখন পর্যবেক্ষণ করবেন। আমরা এ ক্ষেত্রে যাচাই-বাছাই করে দিয়েছি। প্রিজাইডিং অফিসারদের অনুমতি নিয়ে কেন্দ্রে গণমাধ্যমকর্মীরা প্রবেশ করতে পারবেন; তবে সুষ্ঠু ভোটের স্বার্থে বেশিক্ষণ অবস্থান করতে পারবেন না।

নারায়ণগঞ্জ জেলা প্রশাসক রাব্বী মিয়ার সভাপতিত্বে অন্যদের মধ্যে উপস্থিত ছিলেন নির্বাচন কমিশনার মো. আবু হাফিজ ও মোহাম্মদ আবদুল মোবারক, সচিব মোহাম্মদ আবদুল্লাহ। বক্তব্য রাখেন ঢাকা বিভাগীয় কমিশনার হেলালুদ্দিন, পুলিশের ঢাকা রেঞ্জের ডিআইজি মাহফুজুল হক নুরুজ্জামান, বিজিবি পরিচালক লে. কর্নেল শামীম ইফতেখার, র‌্যাব-১১-এর অধিনায়ক লে. কর্নেল কামরুল হাসান, রিটার্নিং অফিসার নুরুজ্জামান তালুকদার প্রমুখ।

এছাড়া নির্বাচনে অংশ নেওয়া সাত মেয়র প্রার্থী আওয়ামী লীগের সেলিনা হায়াৎ আইভী, বিএনপির সাখাওয়াত হোসেন খান, এলডিপির কামাল প্রধান, কল্যাণ পার্টির রাশেদ ফেরদৌস, ইসলামী আন্দোলনের মুফতি মাসুম বিল্লাহ, ইসলামী ঐক্যজোটের এজহারুল হক, বাংলাদেশের বিপ্লবী ওয়ার্কার্স পার্টির মাহাবুবুর রহমান ইসমাইল, কাউন্সিলর প্রার্থী

পপি রানী সরকার, মনোয়ারা বেগম, আল মামুন ও হাজী ইউনুস মিয়া বক্তব্য রাখেন।