নিষেধাজ্ঞার জবাবে উত্তর কোরিয়ার ক্ষেপণাস্ত্র নিক্ষেপ

শেয়ার বিজ ডেস্ক: নতুন বছরে দুইবার ক্ষেপণাস্ত্র নিক্ষেপ করেছে উত্তর কোরিয়া। এজন্য দেশটির ওপর নিষেধাজ্ঞা আরোপ করেছে যুক্তরাষ্ট্র। এর জবাবে আবার ক্ষেপণাস্ত্র নিক্ষেপ করল উত্তর কোরিয়া। এবার একসঙ্গে দুটি ক্ষেপণাস্ত্র নিক্ষেপ করা হয়েছে। খবর: সিজিটিএন।

উত্তর কোরিয়ার এসব ক্ষেপণাস্ত্র নিক্ষেপের ঘটনায় কঠোর পদক্ষেপ নিতে শুরু করেছে যুক্তরাষ্ট্র। ক্ষেপণাস্ত্র কর্মসূচিতে জড়িত, এমন পাঁচ উত্তর কোরিয়া নাগরিকের ওপর স্থানীয় সময় গত বুধবার নিষেধাজ্ঞা আরোপ করেছে যুক্তরাষ্ট্র।

ওই পাঁচ ব্যক্তি উত্তর কোরিয়ায় গণবিধ্বংসী অস্ত্র ও ব্যালিস্টিক ক্ষেপণাস্ত্র কর্মসূচির জন্য সরঞ্জাম সংগ্রহের সঙ্গে জড়িত।

উত্তর কোরিয়ার গণবিধ্বংসী অস্ত্র ও ব্যালিস্টিক ক্ষেপণাস্ত্র কর্মসূচি প্রতিরোধের জন্য যুক্তরাষ্ট্র যে প্রচেষ্টা চালিয়ে যাচ্ছে, তার অংশ হিসেবে এ নিষেধাজ্ঞা আরোপ করা হয়েছে। উত্তর কোরিয়া অবৈধভাবে গণবিধ্বংসী অস্ত্রের জন্য সরঞ্জাম সংগ্রহ করছে, এমন অভিযোগ তুলে যুক্তরাষ্ট্র বলেছে, এ ধরনের কর্মকাণ্ড প্রতিরোধে এমন পদক্ষেপ নেয়া হয়েছে। দক্ষিণ কোরিয়া অনুমান করছে, দুটি স্বল্প পাল্লার ব্যালিস্টিক ক্ষেপণাস্ত্র নিক্ষেপ করেছে উত্তর কোরিয়া। দেশটির উত্তর পিয়ংইয়ং প্রদেশের উপকূলীয় এলাকা থেকে এগুলো নিক্ষেপ করা হয়। চীনের সীমান্তবর্তী এলাকা এটি। ক্ষেপণাস্ত্র দুটি ৪৩০ কিলোমিটার দূরে আঘাত হেনেছে। এগুলো ৩৬ কিলোমিটার উচ্চতায় উঠেছিল।

জাপান জানায়, সমুদ্রে তাদের যে বিশেষায়িত অর্থনৈতিক অঞ্চল রয়েছে, তার বাইরে পড়েছে ক্ষেপণাস্ত্রগুলো। এ ধরনের ঘটনা এ অঞ্চলের নিরাপত্তার জন্য হুমকি বলে মনে করে দক্ষিণ কোরিয়া ও জাপান।

আর যুক্তরাষ্ট্র জানায়, উত্তর কোরিয়া যে ক্ষেপণাস্ত্র নিক্ষেপ করেছে, তা যুক্তরাষ্ট্র ও তার মিত্রদের জন্য হুমকির কি নাÑতা পর্যবেক্ষণ করা হচ্ছে।

বছরের প্রথম দিন উত্তর কোরিয়ার নেতা কিম জন উন বলেছিলেন, দেশটির অর্থনৈতিক অগ্রগতি, ক্ষুধা ও দারিদ্র্য মুক্তির জন্য কাজ করবেন তিনি। একই সঙ্গে সামরিক সক্ষমতা বাড়ানোরও গুরুত্ব দেন সেই ভাষণে। তবে আপাত দেখা যাচ্ছে সামরিক শক্তি বাড়ানোয় গুরুত্ব দিয়েছেন তিনি। নতুন বছর শুরু হওয়ার পর থেকে এ পর্যন্ত তিনবার ক্ষেপণাস্ত্র নিক্ষেপ করল তারা। এর আগের দুই দফার ক্ষেপণাস্ত্র ছিল ‘হাইপারসনিক ক্ষেপণাস্ত্র’।

প্রিন্ট করুন প্রিন্ট করুন   ❑ পড়েছেন  ৯৪৯  জন  

সর্বশেষ..