প্রিন্ট করুন প্রিন্ট করুন

পাঁচ কোম্পানির লভ্যাংশ ঘোষণা

নিজস্ব প্রতিবেদক: সমাপ্ত সপ্তাহে তালিকাভুক্ত পাঁচ কোম্পানি লভ্যাংশ ঘোষণা করেছে। ঢাকা স্টক এক্সচেঞ্জ (ডিএসই) সূত্রে এ তথ্য জানা গেছে।

বাটা সু : বাটা সু কোম্পানি (বাংলাদেশ) লিমিটেড তৃতীয় প্রান্তিকে ২২৫ শতাংশ নগদ লভ্যাংশ ঘোষণা করেছে। চলতি বছরের তৃতীয় প্রান্তিকের (জানুয়ারি-সেপ্টেম্বর) ও ৩১ ডিসেম্বর ২০১৫ সমাপ্ত হিসাববছরের রিটেইল আর্নিং থেকে ২২৫ শতাংশ লভ্যাংশ ঘোষণা করেছে। এ সময়ে শেয়ারপ্রতি আয় (ইপিএস) হয়েছে ৪৭ টাকা ৮৭ পয়সা ও শেয়ারপ্রতি সম্পদমূল্য (এনএভি) দাঁড়িয়েছে ২৫৪ টাকা ১১ পয়সা। এটি আগের বছর একই সময় ছিল যথাক্রমে ৪২ টাকা ৬৩ পয়সা ও ২১৯ টাকা ৫১ পয়সা। রেকর্ড ডেট নির্ধারণ করা হয়েছে ১৮ ডিসেম্বর।

মিথুন নিটিং অ্যান্ড ডায়িং লিমিটেড: ৩০ জুন ২০১৬ সমাপ্ত হিসাববছরের জন্য ২০ শতাংশ বোনাস লভ্যাংশ ঘোষণা করেছে। ওই সময় ইপিএস হয়েছে দুই টাকা ৫৮ পয়সা এবং এনএভি দাঁড়িয়েছে ২৮ টাকা ৫৯ পয়সা। ঘোষিত লভ্যাংশ বিনিয়োগকারীদের সম্মতিক্রমে অনুমোদনের জন্য ২৯ ডিসেম্বর দুপুর ১২টা ৩৫ মিনিটে কোম্পানির কারখানা প্রাঙ্গণে (দৌলতদিয়া, চুয়াডাঙ্গা) অনুষ্ঠেয় বার্ষিক সাধারণ সভায় (এজিএম) উপস্থাপন করা হবে। এ জন্য রেকর্ড ডেট নির্ধারণ করা হয়েছে ১৫ ডিসেম্বর।

এমারেল্ড অয়েল ইন্ডাস্ট্রিজ লিমিটেড : ৩০ জুন ২০১৬ সমাপ্ত হিসাববছরের নিরীক্ষিত আর্থিক প্রতিবেদন পর্যালোচনা করে ১০ শতাংশ বোনাস লভ্যাংশ ঘোষণা করেছে। এ সময় কোম্পানিটির ইপিএস হয়েছে তিন টাকা ৩৩ পয়সা এবং এনএভি দাঁড়িয়েছে ১৭ টাকা ২৩ পয়সা। আগের বছর ছিল যথাক্রমে দুই টাকা ৮২ পয়সা ও ১৬ টাকা ২৯ পয়সা। ঘোষিত লভ্যাংশ বিনিয়োগকারীদের সম্মতিক্রমে অনুমোদনের জন্য ৩১ ডিসেম্বর এজিএম অনুষ্ঠিত হবে। এ জন্য রেকর্ড ডেট নির্ধারণ করা হয়েছে ১২ ডিসেম্বর।

ফ্যামিলিটেক্স (বিডি) লিমিটেড: ৩০ জুন ২০১৬ সমাপ্ত ১৮ মাসের নিরীক্ষিত আর্থিক প্রতিবেদন পর্যালোচনা করে পাঁচ শতাংশ বোনাস লভ্যাংশ ঘোষণা করেছে। এ সময় কোম্পানিটির ইপিএস হয়েছে ৮২ পয়সা এবং এনএভি দাঁড়িয়েছে ১৩ টাকা ৬৮ পয়সা। ঘোষিত লভ্যাংশ বিনিয়োগকারীদের সম্মতিক্রমে অনুমোদনের জন্য ৩১ ডিসেম্বর চট্টগ্রামে এজিএম অনুষ্ঠিত হবে। এ জন্য রেকর্ড ডেট নির্ধারণ করা হয়েছে ১৫ ডিসেম্বর।

ভ্যানগার্ড এএমএল বিডি: ভ্যানগার্ড এএমএল বিডি ফিন্যান্স মিউচুয়াল ফান্ড ওয়ান ৩০ সেপ্টেম্বর ২০১৬ সমাপ্ত হিসাববছরের জন্য সাড়ে সাত শতাংশ নগদ লভ্যাংশ ঘোষণা করেছে। ওই সময় ইউনিটপ্রতি আয় (ইপিইউ) হয়েছে ৪৭ পয়সা এবং শেয়ারপ্রতি প্রকৃত সম্পদমূল্য (এনএভি) দাঁড়িয়েছে  ১১ টাকা ১৭ পয়সা।