সুশিক্ষা

পুরোনো বিভাগকে সমৃদ্ধ করায় গুরুত্বারোপ

ইবি ১৩তম উপাচার্যের যোগদান

অনি আতিকুর রহমান, ইবি: নতুন বিভাগ খোলার চেয়ে বিদ্যমান পুরোনো বিভাগগুলোকে সমৃদ্ধ করার তাগিদ দিয়েছেন ইসলামী বিশ্ববিদ্যালয়ের নবনিযুক্ত উপাচার্য অধ্যাপক ড. শেখ আব্দুস সালাম। গত রোববার বিশ্ববিদ্যালয়টির ১৩তম উপাচার্য হিসেবে যোগদানের পর বিভিন্ন ফোরামের সঙ্গে শুভেচ্ছা বিনিময়কালে প্রসঙ্গক্রমে এ মন্তব্য করেন তিনি।

উপাচার্য বলেন, ‘একটি পূর্ণাঙ্গ বিভাগ থেকে কয়েকটি কোর্স নিয়ে নতুন বিভাগ খোলার চেয়ে সেই বিভাগটিকেই আরও সমৃদ্ধ ও উন্নত করা যেতে পারে। এর মানে এই নয় যে, নতুন বিভাগ খোলা যাবে না। ‘ডিমান্ড অব দ্য ডে’কে তো আমরা ডিনাই করতে পারি না। তাই প্রয়োজনীয় বিভাগ খোলার পাশাপাশি বিদ্যমানগুলোকে আরও বেশি গুরুত্ব দিতে হবে।’

জানা গেছে, প্রতিনিয়ত দেশে পাবলিক ও প্রাইভেট বিশ্ববিদ্যালয়ের সংখ্যা দিন দিন বাড়ছে। পাশাপাশি নতুন নতুন বিভাগও খোলা হচ্ছে। নবসৃষ্ট এসব বিভাগের উপযোগিতা ও প্রাসঙ্গিকতা নিয়ে সচেতন মহলে নানা প্রশ্ন রয়েছে। চাকরির বাজারে প্রয়োজনীয়তা ও মৌলিকতা নিয়ে প্রশ্ন থাকলেও নতুন নতুন বিভাগ বেড়েই চলেছে।

বিভাগগুলোয় পর্যাপ্ত শিক্ষক ও শ্রেণিকক্ষ সংকটের পাশাপাশি প্রয়োজনীয় শিক্ষা উপকরণ ও পরিবেশের অভাব রয়েছে। ফলে এসব বিভাগ থেকে মৌলিক জ্ঞান কিংবা মানসম্পন্ন গ্র্যাজুয়েট তৈরি হচ্ছে না। অভিযোগ রয়েছে, নতুন এসব বিভাগ খোলার পেছনে শিক্ষক রাজনীতির প্রভাব রয়েছে। সিনিয়র শিক্ষকদের পছন্দের প্রার্থীকে নিয়োগ দিতেই অধিকাংশ ক্ষেত্রে এসব বিভাগ খোলা হয়।

সূত্র জানায়, বিগত চার বছরে ইসলামী বিশ্ববিদ্যালয়ে ৯টি নতুন বিভাগ খোলা হয়েছে। বিভাগগুলোয় বর্তমানে নানা সমস্যা বিদ্যামান। এসব বিভাগে শিক্ষক, শ্রেণিকক্ষ, ল্যাব, সেমিনার লাইব্রেরিসহ বিভিন্ন সংকট রয়েছে। এসব সমস্যা ছাড়াও অপ্রাসঙ্গিক ডিসিপ্লিনের শিক্ষক নিয়োগেরও অভিযোগ রয়েছে। এসব বিভাগের কোনোটিতে প্রাসঙ্গিক শিক্ষক পেয়েও নিয়োগ দেওয়া হয়নি, আবার কোনোটিতে না পাওয়ার কারণে অন্য ডিসিপ্লিনের শিক্ষক নিয়োগ দেওয়া হয়েছে।

সাদিকুল ইসলাম নামে এক শিক্ষার্থী বলেন, ‘আমাদের বিশ্ববিদ্যালয়ে নতুন অনেক বিভাগে এখনও পর্যাপ্ত অবকাঠামোগত সুবিধা ও শিক্ষার পরিবেশ নিশ্চিত হয়নি। তাই নতুন বিভাগ না খুলে আগে পুরোনো বিভাগগুলোকে পর্যাপ্ত সুবিধা নিশ্চিত করে শিক্ষা ও গবেষণায় উদ্বুদ্ধ করতে পারলে বিশ্ববিদ্যালয়সহ গোটা দেশ উপকৃত হবে। আশা করি, নতুন উপাচার্য তার সুচিন্তিত কর্মকৌশলের মাধ্যমে ইবিতে শিক্ষা ও গবেষণার পরিবেশ সৃষ্টি করে বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রকৃত উন্নয়ন নিশ্চিত করবেন।’

অর্থনীতি বিভাগের সিনিয়র অধ্যাপক মুঈদ রহমান বলেন, ‘বেশি বিভাগ খোলার মধ্যে কোনো কৃতিত্ব নেই। লজিস্টিক সাপোর্ট ছাড়া বিভাগ চালু হলে গুণগত মানসম্পন্ন ফলাফল পাওয়া যাবে না। বিশ্ববিদ্যালয়ে অনেক পুরোনো বিভাগ রয়েছে, যেগুলোর অবস্থা বেশিরভাগই পঙ্গু ও অসম্পূর্ণ। নতুন বিভাগ খোলার আগে পুরোনো বিভাগগুলোর দিকেই নজর দেওয়া জরুরি। অপ্রয়োজনীয় বিভাগ খোলা পুরোপুরি শিক্ষক রাজনীতির ফল।’

প্রিন্ট করুন প্রিন্ট করুন

সর্বশেষ..