সারা বাংলা

প্রতি বছর বন্যায় ক্ষতিগ্রস্ত হচ্ছেন হাজারো মানুষ

নাগর নদীর মোহনায় বাঁধ

প্রতিনিধি, সিংড়া: নাটোরের সিংড়ায় গুড় নদীর অববাহিকায় তেমুখ নওগাঁ এলাকার নাগর নদীর সংযোগস্থলে বাঁধ অপসারণের দাবি জানিয়েছেন স্থানীয়রা। অপরিকল্পিতভাবে বাঁধ দিয়ে একদিকে নদীর চলমান প্রবাহ রোধ করা হয়েছে, অপরদিকে নদীর সৌন্দর্য নষ্ট করা হয়েছে বলে অভিযোগ তাদের। এতে বন্ধ হয়ে গেছে নৌ-চলাচলও। এ জন্য পাউবো ও সংশ্লিষ্ট কর্তৃপক্ষের কাছে বাঁধ অপসারণের দাবি জানিয়েছেন তারা।

স্থানীয়রা জানায়, এক সময় এই নদীর পথ দিয়ে তাজপুর ইউনিয়নের শত শত মানুষ নৌকাযোগে শিববাড়ী ও নওগাঁ বাজারে আসতো। কিন্তু বাঁধ দেওয়ার পর থেকে বিচ্ছিন্ন হয়ে পড়ে। সম্প্রতি দুটি ইউনিয়নের মানুষের চলাচলের জন্য পাকা রাস্তা নির্মিত হয়েছে।

জানা যায়, সিংড়া উপজেলা দিয়ে পাঁচটি নদী প্রবাহিত। এর মধ্যে রয়েছে আত্রাই, গুরনই, বারনই, নাগর ও গোদাই নদী। সিংড়া দহ থেকে উত্তরে নাগর নদী পশ্চিমে গুড় নদী। গুড় নদী শেরকোল ইউনিয়নের নওগাঁ বাজারে মিলিত হয়েছে। এ মোহনায় নাগর নদীর সঙ্গে সংযুক্ত।

১৯৯৬ সালে রাতারাতি নদীর মোহনায় বাঁধ দেওয়া হয়। অপরদিকে ধাপে ধাপে আত্রাই নদীর নুরপুর, বিজয় নগর ও কালিনগর এলাকায় বাঁধ দেওয়ায় চলনবিলের সিংড়া অংশে অনেকটা পানি শূন্য হয়ে পড়ে। প্রতি বছর বন্যায় আত্রাই নদীর পানি নেমে যেতে না পাড়ায় বিপদসীমা অতিক্রম করে। এতে প্রতি বছর প্রবল বন্যায় রূপ নিচ্ছে নদীর পানি।

প্রিন্ট করুন প্রিন্ট করুন

সর্বশেষ..