বিশ্ব সংবাদ

প্রথমবারের মতো সুকুক বন্ড ছেড়েছে সৌদি আরামকো

শেয়ার বিজ ডেস্ক : সৌদি আরবের রাষ্ট্রায়ত্ত তেল-গ্যাস কোম্পানি সৌদি আরামকো প্রথমবারের মতো আন্তর্জাতিক পুঁজিবাজারে নিয়ে এসেছে শরিয়াহ্ভিত্তিক ইসলামি বন্ড ‘ডলার সুকুক বন্ড’। গতকাল বুধবার মার্কিন ডলার স্বীকৃত এ ‘সুকুক বন্ড’ ছেড়েছে কোম্পানিটি। বিনিয়োগকারীদের জন্য তিনটি স্তরে এ বন্ড ছাড়া হয়। খবর: আরব নিউজ, রয়টার্স।

সম্ভাব্য বিনিয়োগকারীদের জন্য মার্কিন তিনটি ট্রেজারি পয়েন্ট যথা- ১০৫ পয়েন্ট বেসিসে তিন বছর, ১২৫ পয়েন্ট বেসিসে পাঁচ বছর এবং ১৬০ পয়েন্ট বেসিসে ১০ বছরের জন্য সুকুক বন্ড ছাড়া হয়।

বিশ্লেষকদের ধারণা, সুকুক ছেড়ে আরামকো তিনি থেকে চার বিলিয়ন মার্কিন ডলার সংগ্রহ করবে। যে অর্থ দিয়ে কোম্পানির শেয়ারহোল্ডারদের লভ্যাংশ ফেরত দেবে। এর আগে গত বছর আরামকো ঘোষণা করে বিনিয়োগকারীদের লভ্যাংশ দেয়া হবে।

এদিকে আান্তর্জাতিক বিভিন্ন ব্যাংক ও কোম্পানির সঙ্গে চুক্তি অনুযায়ী, আরামকো তিন, পাঁচ ও ১০ বছর মেয়াদি এ সুকুক বন্ড ছাড়বে।

এর আগে চলতি সপ্তাহের শুরুর দিকে সৌদি আরামকো ১৩ ব্যাংকসহ ২৯ অর্থনৈতিক কোম্পানির সঙ্গে সুকুক বন্ডের ইস্যুবিষয়ক এক চুক্তি সই করে।

২০১৯ সালে প্রথমবারের মতো আরামকো ১২ বিলিয়ন ডলারের বন্ড ইসু্যু করে। এরপর গত বছরের আরও আট বিলিয়ন ডলারের বন্ড ইস্যু কের। বিশ্লেষকদের ধারণা, কোম্পানিটি বন্ড ছাড়ায় নিয়মিত হয়ে উঠবে।

আরামকো যে ২৯টি কোম্পানির সঙ্গে বন্ডের বিষয়ে চুক্তি করে সেগুলো হলোÑআলিমনা ইনভেস্ট, আল রাজি ক্যাপিটাল, বিএনপিপরিবাস, সিটি, ফাস্ট আবু ধাবি ব্যাংক, গোল্ডেন স্যাকস, এইচএসবিসি, জেপি মরগান, মরগান স্টেনলি, এনসিবি ক্যাপিটাল, রিয়াদ ক্যাপিটাল, এসএমবিসি নিক্কো এবং স্টান্ডার্ড চার্টাড ব্যাংক প্রভৃতি। এসব প্রতিষ্ঠান আরামকোর বিনিয়োগ বাড়তে ধার দেবে।

জ্বালানি তেলের দাম বেড়ে যাওয়ায় গত মার্চে আরামকোর প্রধান নির্বাহী আমিন নাসের ঘোষণা দিয়েছেন, এ বছর অন্য যে কোনো তেল কোম্পানি থেকে আরামকো বেশি মুনাফা করবে। তিনি এ বছরকে ‘অপ্রত্যাশিত এবং কঠিন’ বছর উল্লেখ করেন।

প্রসঙ্গত, গত বছর কভিড মহামারির মধ্যেও তেলের চাহিদা কম থাকার পরও আরামকো ৪৯ বিলিয়ন ডলার মুনাফা করে।

প্রিন্ট করুন প্রিন্ট করুন

সর্বশেষ..