বিশ্ব সংবাদ

ফাউচিকে প্রধান স্বাস্থ্য উপদেষ্টা হিসেবে চান বাইডেন

শেয়ার বিজ ডেস্ক : যুক্তরাষ্ট্রের শীর্ষ সংক্রামক রোগ বিশেষজ্ঞ ড. অ্যান্থনি ফাউচিকে নিজের প্রশাসনের প্রধান স্বাস্থ্য উপদেষ্টা হিসেবে চান নবনির্বাচিত প্রেসিডেন্ট জো বাইডেন। একই সঙ্গে তিনি জানিয়েছেন, ফাউচি অনুরোধ করেছেন নিজের কাজ চালিয়ে যাওয়ার জন্য। গত বৃহস্পতিবার মার্কিন সংবাদমাধ্যম সিএনএনকে দেয়া এক সাক্ষাৎকারে এ কথা জানিয়েছেন তিনি।

যুক্তরাষ্ট্রের ন্যাশনাল ইনস্টিটিউট অব অ্যালার্জি অ্যান্ড ইনফেকশিয়াস ডিজিজেসের পরিচালক ড. ফাউচি। বৃহস্পতিবার বাইডেন ও তার দলের সঙ্গে করোনাভাইরাস মোকাবিলার প্রস্তুতি নিয়ে কথা বলেছেন করোনাভাইরাস মহামারিতে যুক্তরাষ্ট্রের শীর্ষ জনস্বাস্থ্য বিশেষজ্ঞ হিসেবে আবির্ভূত হওয়া ফাউচি। তিনি বলেন, আমি খুব আনন্দিত যে টিকা কর্মসূচিসহ বিভিন্ন বিষয় নিয়ে আজ আমরা প্রথম বৈঠকে বসেছি।

যুক্তরাষ্ট্রের নবনির্বাচিত প্রেসিডেন্ট বাইডেন বলেন, ফাউচি গত কয়েকটি প্রশাসনে যে দায়িত্ব পালন করেছেন আমি তাকে ঠিক সেই দায়িত্বেই থেকে যেতে বলেছি। একইসঙ্গে আমি তাকে আমার প্রধান স্বাস্থ্য উপদেষ্টা হতে এবং আমার কভিড দলে যোগ দিতে অনুরোধ করেছি।

ডা. ফাউচি নিরাপদ বললে তিনি নিজে জনসম্মুখে খুশি মনে কভিড-১৯ এর টিকা নিতে প্রস্তুত আছেন বলেও জানিয়েছেন বাইডেন।  তিনি বলেন, যুক্তরাষ্ট্রের জনগণকে এটা জানানো প্রয়োজন যে, টিকা গ্রহণ নিরাপদ।

দায়িত্ব গ্রহণের পর প্রথম ১০০ দিন দেশবাসীকে মাস্ক পরার জন্য বলবেন বলে জানিয়েছেন বাইডেন। তিনি বলেন, ‘আমার বিশ্বাস যদি প্রতিটি আমেরিকান মাস্ক পরেন, তাহলে করোনাভাইরাস উল্লেখযোগ্য হারে কমে যাবে।’ দায়িত্ব নেয়ার পর তিনি প্রতিটি সরকারি ভবনে মাস্ক পরার নির্দেশ দেবেন বলেও জানান এই ডেমোক্র্যাট প্রেসিডেন্ট। বাইডেন বলেন, ‘অভিষেকের প্রথমদিনই আমি দেশবাসীকে বলব, শুধু ১০০ দিনের জন্য মাস্ক পরুন, শুধু ১০০ দিন, সারাজীবন নয়। আমি মনে করি, যদি আমরা তা করি তাহলে উল্লেখযোগ্য ফল পাওয়া যাবে। যদি তাই হয়, তবে ভ্যাকসিন এবং মাস্ক পরার মাধ্যমে ব্যাপকভাবে আক্রান্ত কমানো যাবে।’

দায়িত্ব গ্রহণের আগেই বাইডেন এমন কথা বলতে পারেন কিনাÑতা নিয়ে কথা বলেছেন সংবিধান বিশেষজ্ঞরা। তারা বলেন, ‘যুক্তরাষ্ট্রের প্রেসিডেন্টের এ ধরনের নির্দেশ দেয়ার আইনি বৈধতা নেই।’ তবে বাইডেন সিএনএনকে জানান, ‘তিনি এবং তার ভাইস প্রেসিডেন্ট কমলা হ্যারিস যুক্তরাষ্ট্রে মাস্ক পরার ক্ষেত্রে দৃষ্টান্ত স্থাপন করবেন।’

যুক্তরাষ্ট্রে শুধু সরকারি সম্পত্তির ওপর প্রেসিডেন্টের নির্বাহী ক্ষমতা থাকে। তিনি শুধু এ ধরনের ক্ষমতার চর্চা করার ইচ্ছার কথা জানিয়েছেন। বাইডেন বলেন, ‘আমি একটি আদেশ কার্যকর করব, তা হলো সরকারি ভবনে অবশ্যই মাস্ক পরতে হবে।’ গণপরিবহনসহ বিমানেও সবাইকে মাস্ক পরতে হবে বলে জানান তিনি। এর আগে যুক্তরাষ্ট্রে পরিবহনগুলোতে মাস্ক পরা বাধ্যতামূলক করার কথা বলেন বিশেষজ্ঞরা। তবে ডোনাল্ড ট্রাম্পের হোয়াইট হাউস তা প্রত্যাখ্যান করে। দেশটির সংক্রামক রোগ বিশেষজ্ঞ ডা. অ্যান্থনি ফাউসি ট্রাম্পের তোপের মুখে পড়েন। যদিও ফাউসিকে বাইডেন তার প্রশাসনের কভিড-১৯ দলের প্রধান চিকিৎসা উপদেষ্টা হিসেবে রাখবেন বলে ঘোষণা দিয়েছেন।

এদিকে যুক্তরাষ্ট্রে করোনায় আক্রান্ত ও মৃত্যু এখনও ঊর্ধ্বমুখী। এ পর্যন্ত দেশটিতে এক কোটি ৪০ লাখ মানুষ করোনায় আক্রান্ত হয়েছেন। এ পর্যন্ত মৃত্যু হয়েছে দুই লাখ ৭৫ হাজার মানুষের।

প্রিন্ট করুন প্রিন্ট করুন

সর্বশেষ..