বিশ্ব সংবাদ

ফের জার্মানিতে শূন্য প্রবৃদ্ধি

শেয়ার বিজ ডেস্ক : ২০১৯ সালের শেষ প্রান্তিকে আবারও জার্মানির আর্থিক প্রবৃদ্ধি ছিল শূন্য। এর আগে ইউরোপের অন্যতম বৃহৎ অর্থনীতির দেশটিতে গত বছরের প্রথম ৯ মাসে প্রবৃদ্ধি শূন্য শতাংশে আটকে ছিল। ধারণা করা হয়েছিল, ওই বছরের শেষ প্রান্তিকে (তিন মাসে) তা শূন্য দশমিক এক হবে; কিন্তু সে প্রত্যাশাও পূরণ হয়নি। খবর: বিবিসি ও ডয়েচে ভেলে।

গত শুক্রবার জার্মানির কেন্দ্রীয় পরিসংখ্যান কর্তৃপক্ষ (ডেস্টাটিস) ২০১৯ সালের শেষ তিন মাসের আর্থিক প্রতিবেদন প্রকাশ করেছে। তাতে দেখা যাচ্ছে, গত বছরের শুরুর ৯ মাসের ধারা বজায় রেখে শেষ তিন মাসেও দেশটির প্রবৃদ্ধি শূন্য শতাংশই ছিল।

তবে আগের ৯ মাসের চেয়ে প্রবৃদ্ধি খারাপ না হওয়াকেও এক অর্থে সাফল্যই বলা যায়। কেএফডব্লিউ ব্যাংকিং গ্রুপের প্রধান অর্থনীতিবিদ ড. ফ্রাৎসি কোলার গেলব এমনটাই বলেছেন। তবে তিনি প্রত্যাশা করেন, আগামী বসন্তে জার্মানির অর্থনীতিতে এ অবস্থা থেকে উত্তরণের লক্ষণ দেখা যেতে পারে।

ড. ফ্রাৎসি কোলার গেলব মনে করেন, চীন থেকে ছড়িয়ে পড়া করোনাভাইরাসের কারণে বৈশ্বিক অর্থনীতিতে এক ধরনের মন্দাভাব চলছে। তিনি বলেন, ‘অন্তত বছরের প্রথম প্রান্তিকে চীনে মন্থরতার লক্ষণ দেখা যাচ্ছে। এটি করোনাভাইরাসের প্রভাব। বৈশ্বিক অর্থনীতিতেও এর প্রভাব পড়ছে।’

জার্মানির ম্যানুফ্যাকচারিং খাত গভীর মন্দায় রয়েছে বলে জানিয়েছে ফেডারেশন অব জার্মান ইন্ডাস্ট্রি। সংগঠনটির পক্ষ থেকে ডিসেম্বরে বলা হয়েছে, বিশ্বব্যাপী শিল্পোৎপাদন কমছে। জার্মানিতেও এর প্রভাব রয়েছে। ২০১৯ সালে জার্মানির রফতানি প্রবৃদ্ধি আগের বছরের দুই দশমিক এক শতাংশ থেকে কমে চলতি বছর দশমিক পাঁচ শতাংশ হবে বলে মনে করা হচ্ছে। ২০০৯ সালের পর ইটিই হবে রফতানির সবচেয়ে শ্লথগতি। সংগঠনটির ব্যবস্থাপনা পরিচালক জোচিম ল্যাং বলেন, টানা ছয় বছর প্রবৃদ্ধির পর গত বছরের তৃতীয় প্রান্তিক থেকে জার্মানির শিল্প খাতে মন্দাবস্থা চলছে। যুক্তরাষ্ট্রের সঙ্গে চীন ও ইউরোপীয় ইউনিয়নের (ইইউ) বাণিজ্যযুদ্ধের প্রভাব পড়েছে।

প্রিন্ট করুন প্রিন্ট করুন

সর্বশেষ..