সারা বাংলা

বাড়ি বাড়ি মাস্ক পৌঁছে দিচ্ছে নরসিংদী জেলা প্রশাসন

প্রতিনিধি, নরসিংদী: কভিড-১৯ মহামারির দ্বিতীয় পর্যায় প্রতিরোধে কঠোর অবস্থান নিয়েছে নরসিংদী জেলা প্রশাসন। এরই অংশ হিসেবে জেলার প্রায় ১৯ লাখ মানুষের মাঝে ৩৯ লাখ মাস্ক বিতরণের লক্ষ্যমাত্রা নিয়ে কাজ করছে প্রশাসন। এর অংশ হিসেবে গত রোববার জেলার ৭১টি ইউনিয়ন পরিষদে একযোগে মাস্ক বিতরণ কার্যক্রম উদ্বোধন করেন জেলা প্রশাসক সৈয়দা ফারহানা কাউনাইন। উদ্বোধনী দিনে দুই লাখ মাস্ক বিতরণ করা হয়। এরপর থেকে ছয়টি উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা ও সহকারী কমিশনারের মাধ্যমে প্রতিটি বাড়িতে মাস্ক বিতরণ নিশ্চিত করার লক্ষ্যে নিজেরাই উপস্থিত থেকে জনসাধারণের হাতে মাস্ক পৌঁছে দিচ্ছেন।

এ কার্যক্রম নিয়ে জেলা প্রশাসক সৈয়দা ফারহানা কাউনাইন বলেন, ‘বিগত সময়ে সারা দেশের তুলনায় নরসিংদীর অধিবাসীরা অনেকটা নিরাপদ ছিল। এর প্রধান কারণ প্রশাসন সবাইকে সঙ্গে নিয়ে পূর্ব থেকেই প্রস্তুতি গ্রহণ করেছিল। দ্বিতীয় পর্যায় প্রতিরোধেও জেলার প্রতিটি নাগরিকের জন্য মাস্ক পরিধান নিশ্চিত করার লক্ষ্যে জনপ্রতি দুটি করে মাস্ক পৌঁছে দেওয়া হচ্ছে। এর ফলে আমরা জনগণকে নয়, করোনাকে লকডাউন করতে চাই।’

পলাশ উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা রুমানা ইয়াসমিন বলেন, ‘জেলা প্রশাসকের নির্দেশনায় আমরা প্রতিটি নাগরিকের কাছে মাস্ক পৌঁছে দেওয়ার লক্ষ্যে বাড়ি বাড়ি নিজ হাতে মাস্ক বিতরণ করছি। আমরা মনে করি, মাস্ক পরিধানে করোনা অনেকাংশে প্রতিরোধ সম্ভব।’

এ বিষয়ে পলাশ উপজেলার ডাঙ্গা ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান সাবের উল হাই বলেন, ‘জেলা প্রশাসনের নির্দেশনায় ইউনিয়নের প্রতিটি নাগরিকের স্বাস্থ্যসেবা নিশ্চিত করার লক্ষ্যে মাস্কসহ অন্যান্য উপকরণ দায়িত্বের অংশ হিসেবে পৌঁছে দেওয়ার চেষ্টা করছি। এতে যদি কিছুটা হলেও করোনা প্রতিরোধ হয়Ñতাহলে বাঁচবে দেশ, বাঁচবে দেশের মানুষ।’

প্রিন্ট করুন প্রিন্ট করুন

সর্বশেষ..